মহাভারত (২০১৩-এর টিভি ধারাবাহিক)

(Mahabharat (2013 TV series) থেকে পুনর্নির্দেশিত)

মহাভারত হলো স্টার প্লাসের একটি ভারতীয় হিন্দি ভাষার পৌরাণিক[১] টেলিভিশন ধারাবাহিক নাটক যা মূলত সংস্কৃত উপাখ্যান মহাভারত উপর ভিত্তি করে বানানো। এটি একই নামে ১৯৮৮-এর টিভি ধারাবাহিকের পুনর্করণ।[৪][৫][৬][৭][৮] এটি স্টার প্লাসে ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৩ থেকে ১৬ আগস্ট, ২০১৪ পর্যন্ত চলে।[৯]

মহাভারত
মহাভারত ২০১৩ শিরোনাম.jpg
ধরনপুরাণ[১] নাটক
নির্মাতাসিদ্ধার্থ কুমার তেওয়ারি
ভিত্তিমহাভারত
লেখকশারমিন জোসেপ
রাধিকা আনন্দ
আনন্দ বর্ধন
মিহির ভূতা
সিদ্ধার্থ কুমার তেওয়ারি
পরিচালকসিদ্ধার্থ আনন্দ কুমার
অমরপ্রিত জি
মুকেশ কুমার সিং
কমল মোংগা
লোকনাথ পাণ্ডে
অভিনয়েসৌরভ রাজ জৈন
শাহির শেখ
পূজা শর্মা
উদ্বোধনী সঙ্গীতহ্যা কাথা সাংগ্রাম কী
সমাপনী সঙ্গীতমহাভারত
সুরকারঅজয়-অতুল
ইসমাইল দরবার
মূল দেশভারত
মূল ভাষাহিন্দি
পর্বের সংখ্যা২৬৭[২]
নির্মাণ
প্রযোজকসিদ্ধার্থ কুমার তেওয়ারি
গায়ত্রী গিল তেওয়ারি
রাহুল কুমার তেওয়ারি
নির্মাণের স্থানউম্বেরগাঁও, গুজরাট
সম্পাদকপরেশ শাহ
ক্যামেরা সেটআপবহু-ক্যামেরা
ব্যাপ্তিকালপর্ব→১: ৪০ মিনিট;
পর্ব→২-১১: ২০ মি;
পর্ব→১২-২৬৭:
২২ মি[৩]
নির্মাণ কোম্পানিস্বস্তিকা পিকচার
পরিবেশকস্টার ইন্ডিয়া
মুক্তি
মূল নেটওয়ার্কস্টার প্লাস
ছবির ফরম্যাট৫৭৬আই (প্রমিত নির্ধারিত টেলিভিশন)
১০৮০আই (উচ্চ নির্ধারিত টেলিভিশন)
প্রথম প্রকাশ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৩ (2013-09-16)
বহিঃসংযোগ
নির্মাণ ওয়েবসাইট

এটি স্বস্তিকা প্রোডাকশন প্রাইভেট লিমিটেড দ্বারা প্রযোজিত যার অভিনয়ে আছেন শ্রীকৃষ্ণ হিসেবে সৌরভ রাজ জৈন, অর্জুন হিসেবে শাহির শেখ, দ্রৌপদী হিসেবে পূজা শর্মা, কর্ণ হিসেবে অহম শর্মা, ভীষ্ম হিসেবে আরভ চৌধুরী, দুর্যোধন হিসেবে অর্পিত রাঙ্কা

সারসংক্ষেপসম্পাদনা

মহাভারত প্রাচীন ভারতীয় মহাকাব্য মহাভারতের একটি টেলিভিশন-রূপায়ণ। মহাভারত প্রাচীন ভারতবর্ষের কাহিনির ওপর ভিত্তি করে লিখিত একটি মহাকাব্য। হস্তিনাপুর ছিলো কুরুবংশের রাজ্য, এবং প্রাচীন ভারতবর্ষের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ রাজ্য। এই রাজ্যকে ঘিরে কৌরব এবং পাণ্ডবদের প্রতিদ্বন্দ্বিতা হয়।

মহাভারতের কাহিনির বিস্তার অনেক বেশি; এই ধারাবাহিকটিতে কেবল মহাকাব্যটির গুরুত্বপূর্ণ ঘটনাগুলো দেখানো হয়েছে।

ধারাবাহিকটির কাহিনির আরম্ভ হয় হস্তিনাপুরের রাজা শান্তনুসত্যবতীর এক নৌবিহারের দৃশ্য দেখানোর মাধ্যমে। কুন্তী ঋষি দুর্বাসা থেকে একটি বর অর্জন করেন, যাতে তিনি যেকোনো দেবতাকে আবাহন করতে এবং তার সন্তান ধারণ করতে পারবেন। কৌতুহলের বষে, তিনি বরটিকে পরীক্ষা করার সিদ্ধান্ত নেন এবং মন্ত্রটি উচ্চারণ সূর্য দেবতাকে আহ্বান করেন এবং একটি শিশু হস্তান্তর করা হয়, কর্ণ। কুন্তি, একজন অবিবাহিত মা, একটি ভারী হৃদয়ের সাথে কর্ণকে গঙ্গা নদীর উপরে ভাসিয়ে দেন, যাতে বিবাহের আগে একটি সন্তান রাখার বিমূঢ়তা এড়াতে পারেন। পাণ্ডুর সাথে বিবাহের পর, কুন্তি অন্যান্য দেবতাকে আবাহন করেন এবং তার পুত্র, যুধিষ্ঠির, ভীম, অর্জুন, নকুল এবং সহদেব(মাদ্রী থেকে) পান। না কর্ণ, না পাণ্ডবরা কুরুক্ষেত্রের যুদ্ধের শেষ পর্যন্ত কর্ণের আসল পরিচয় জানতেন। কর্ণ তার জীবনের সবসময়ে দুর্ভাগ্যের বিরুদ্ধে লড়াই করতেন, এবং একজন রথচালকের পুত্র হিসেবে প্রায়ই তার সাথে দুর্ব্যবহার করা হতো। (অধিরথ, একজন রথচালক এবং তার স্ত্রী রাধা কর্ণ-কে গঙ্গা নদীর তীরে পান এবং তাদের আপন করে বড় করেন।) দুর্যোধন, পাণ্ডবদের মারাত্মক শত্রু ছিলেন একমাত্র ব্যক্তি যিনি কর্ণকে সমর্থন করেন, তখনও যখন পাণ্ডব ভাইয়েরা তার একজন দক্ষ ধনুকধারী হয়েও একটি নিম্ন বর্ণের হওয়ার জন্য অপমান করেন। এভাবে কর্ণ তার জীবনকালের সবসময়ে রক্ষা করার এবং কুরুক্ষেত্রের যুদ্ধে পাণ্ডবদের বিরুদ্ধে তার পক্ষে হয়ে লড়াই করার প্রতিজ্ঞা করেন।

যখন ভীষ্ম তার অন্ধ ভাইপো ধৃতরাষ্ট্রের জন্য বিয়েতে গান্ধারীর হাত চান, তার ভাই শকুনি প্রচণ্ড রেগে যান। কিন্তু পরে তিনি একমত হন যখন ভীষ্ম তাদের বিশ্বাস করান যে ধৃতরাষ্ট্র হস্তিনাপুরের ভবিষ্যত রাজা হবেন।

শ্রেষ্ঠাংশেসম্পাদনা

প্রযোজনা এবং পদোন্নতিসম্পাদনা

স্টার এই প্রকল্পে ₹১০০ কোটি রুপি (১৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার) ব্যয় করে এবং বাজার বিপণনের জন্য ₹২০ কোটি রুপি (৩.১ মিলিয়ন মার্কিন ডলার) ব্যয় করে, এটি তার সময়ের সবচেয়ে ব্যয়বহুল টিভি সিরিজ তৈরি করা হয়। ভারতের সবচেয়ে ব্যয়বহুল টিভি শো হওয়ার রেকর্ডটি পোরস টিভি শো দ্বারা ভেঙ্গে যায়। [১০]

প্রযোজক সিদ্ধার্থ কুমার তিওয়ারির মতে, দ্রৌপদীকে বিবস্ত্রা (কাপড় খোলানো) ক্রম অনুসারে [১১] তিওয়ারির পরিচালনায় এটি চিত্রগ্রহণ করতে ২০ দিনের সময় লাগে। [১২]

অভ্যর্থনা এবং প্রভাবসম্পাদনা

পুরস্কারসম্পাদনা

বছর পুরস্কার বিষয়শ্রেণী নির্বাচন পরিণাম
২০১৪ স্টার সংস্থা পুরস্কার সেরা ঐকতান-সঙ্গীত কার্যচুযত সিদ্ধার্থ কুমার তেওয়ারি বিজয়ী
সেরা পুরাণ ধারাবাহিক স্বয়স্তিক পিকচার
ভারতীয় টেলিভিশন অ্যাকাডেমি পুরস্কার সেরা চাক্ষুষ প্রভাব স্বয়স্তিক পিকচার
সেরা ইতিহাসিক/পুরাণ ধারাবাহিক মহাভারত
ভারতীয় টেলি পুরস্কার
টিভি কার্যক্রমের জন্য সেরা পরিচ্ছদ ভানু অথৈয়া
সেরা মেকআপ শিল্পী জি. এ. যমেশ
সেরা ঐকতান-সঙ্গীত সিদ্ধার্থ কুমার তেওয়ারি
সেরা খলনায়কের ভূমিকা প্রণীত ভাট
সেরা স্টাইলিস্ট শ্বেতা কোরদে
পার্শ্ব চরিত্রে সেরা অভিনেতা অহম শর্মা
স্টার পরিবার আয়ার্ড ফেবোরিট নায়া সদস্য (পুরুষ) শাহির শেখ
পেহেল নেয়ি শোচ কী সৌরভ রাজ জৈন এবং পূজা শর্মা
সাথি নেয়ি সোছ কা অহম শর্মা
নেয়ি সোছ সৌরভ রাজ জৈন
ফেবোরিট কুতুম্ব মহাভারত
২০১৫ সম্মাননা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Parmavatar Shri Krishna to premiere soon; 5 mythological shows that redefined the genre and left us asking for more"India Today 
  2. "[[:টেমপ্লেট:PageTitle]]"টেমপ্লেট:MetaSiteName  ইউআরএল–উইকিসংযোগ দ্বন্দ্ব (সাহায্য)
  3. "Mahabharat (2013 TV series) Technical specifications"IMDb। সংগ্রহের তারিখ ৬ নভেম্বর ২০১৩ 
  4. TNN 15 Sep 2013, 10.27AM IST (২০১৩-০৯-১৫)। "Mahabharat launced for the youth of the nation! - Times Of India"। Articles.timesofindia.indiatimes.com। ২০১৩-০৯-১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৩-১০-২০ 
  5. "Shakuni's role in Mahabharat once in a lifetime: Praneet Bhatt"The Times of India। ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৯ মে ২০১৬ 
  6. "Is Shafaq Naaz miffed with Mahabharat makers?"The Times of India। ১২ নভেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৯ মে ২০১৬ 
  7. "Shaheer Sheikh and Rohit Bhardwaj's Buddy Diwali!"The Times of India। ৩ ডিসেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৯ মে ২০১৬ 
  8. "Riding high on 'Mahabharat' ratings, Star Plus tops the chart"। সংগ্রহের তারিখ ৯ মে ২০১৬ 
  9. Deepanjana Pal। "The new Mahabharat is an epic fail"। Firstpost। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০১-২৫ 
  10. Ajita Shashidhar। "Broadcasters betting big money on the small screen with Rs.100 crore shows"। India Today। সংগ্রহের তারিখ ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৩ 
  11. "The cheer haran sequence in Mahabharat took 20 days to shoot"The Indian Express। ৪ এপ্রিল ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ৯ মে ২০১৬ 
  12. Kanabar, Ankita R. (২ এপ্রিল ২০১৪)। "The cheer haran sequence in Mahabharat took 20 days to shoot"Indian Express। সংগ্রহের তারিখ ১০ এপ্রিল ২০১৪ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা