প্রধান মেনু খুলুন

নির্বাচিত নিবন্ধ

চর্যাপদ পুঁথির একটি পৃষ্ঠা
চর্যাপদ বাংলা ভাষার প্রাচীনতম কাব্য তথা সাহিত্য নিদর্শন। নব্য ভারতীয় আর্যভাষারও প্রাচীনতম রচনা এটি। খ্রিস্টীয় দশম থেকে দ্বাদশ শতাব্দীর মধ্যবর্তী সময়ে রচিত এই গীতিপদাবলির রচয়িতারা ছিলেন সহজিয়া বৌদ্ধ সিদ্ধাচার্যগণ। চর্যার রচনার সঠিক সময়কাল নিয়ে ইতিহাস গবেষকদের মধ্যে মতবিরোধ আছে। বৌদ্ধ ধর্মের গূঢ় অর্থ সাংকেতিক রূপের আশ্রয়ে ব্যাখ্যার উদ্দেশ্যেই তাঁরা পদগুলি রচনা করেছিলেন। বাংলা সাধন সংগীতের শাখাটির সূত্রপাতও এই চর্যাপদ থেকেই হয়। এই বিবেচনায় এটি ধর্মগ্রন্থজাতীয় রচনা। একই সঙ্গে সমকালীন বাংলার সামাজিক ও প্রাকৃতিক চিত্রাবলি এই পদগুলিতে উজ্জ্বল। এর সাহিত্যগুণ আজও চিত্তাকর্ষক। ১৯০৭ খ্রিস্টাব্দে মহামহোপাধ্যায় হরপ্রসাদ শাস্ত্রী, নেপালের রাজদরবারের গ্রন্থশালা থেকে চর্যার একটি খণ্ডিত পুঁথি উদ্ধার করেন। পরবর্তীতে আচার্য সুনীতিকুমার চট্টোপাধ্যায় ভাষাতাত্ত্বিক বিশ্লেষণের মাধ্যমে চর্যাপদের সঙ্গে বাংলা ভাষার অনস্বীকার্য যোগসূত্র বৈজ্ঞানিক যুক্তিসহ প্রতিষ্ঠিত করেন। চর্যার প্রধান কবিগণ হলেন লুইপাদ, কাহ্নপাদ, ভুসুকুপাদ, শবরপাদ প্রমুখ। (বাকি অংশ পড়ুন...)

আপনি জানেন কি...

আবুল হাশিম


ভালো নিবন্ধ

চুড়িহাট্টা মসজিদ

প্রাচীন চুড়িহাট্টা মসজিদ বা চুড়িহাট্টা মসজিদ বাংলাদেশের অন্যতম একটি পুরাতাত্ত্বিক নিদর্শন, যা ঢাকা মহানগরের পুরোন ঢাকার উমেশ চন্দ্র দত্ত লেন ও হায়দার বকশ লেনের তেমাথায় অবস্থিত। স্থানীয়ভাবে মসজিদটি চুড়িহাট্টা শাহী মসজিদ নামে পরিচিত ছিল। মসজিদটির প্রকৃত অবস্থান ছিল চকবাজারের সামান্য পশ্চিম দিকে ২৬-২৭ শেখ হায়দার বকশ লেন। ঐতিহাসিক তথ্যমতে মসজিদটি ৩৬০ বছর পুরোন (২০০৮ খ্রিস্টাব্দ)। তবে প্রাচীন মসজিদ স্থাপত্যটি বর্তমানে বিলুপ্ত, সে জায়গায় গড়ে তোলা হয়েছে আধুনিক স্থাপত্য। চুড়িহাট্টার ঐতিহাসিক মসজিদটি প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত ছিল না। মসজিদটির ঐতিহাসিক গুরুত্ব না জেনেই মসজিদ কমিটির লোকজন অপেক্ষাকৃত বৃহদাকৃতির বহুতল মসজিদ নির্মাণের লক্ষ্যে পুরোন মসজিদটি ভেঙে ফেলার উদ্যোগ নেন। জানা যায় ২০০৮ খ্রিস্টাব্দের প্রথম দিকেই মসজিদটি ভাঙার কাজ শুরু হয়, এবং জুলাই মাস নাগাদ পুরো মসজিদটি বিলুপ্ত হয়ে যায়। পুরোন, ধ্বংস করে দেয়া মসজিদটির জায়গায় নির্মিত হয়েছে নতুন মসজিদ ভবন। নতুন ভবনের দোতলার মিহরাবে আদি মসজিদের ফলকটি স্থাপন করা হয়েছে। (বাকি অংশ পড়ুন...)


নির্বাচিত ছবি

Prang's Valentine Cards2.jpg
"প্রাংয়ের ভ্যালেনটাইন কার্ড", ১৯৮৩ সালের একটি বিজ্ঞাপনী কার্ড। ছবিটি উইকিমিডিয়া কমন্সে পাবলিক ডোমেইন লাইসেন্সের আওতায় প্রকাশিত।

বিষয় তালিকা

ফলিত বিজ্ঞান · পদার্থ · রসায়ন · জ্যোতির্বিদ্যা · বিজ্ঞানী · জ্যামিতি · বীজগণিত · গণিতবিদ
পরিবহন · যন্ত্র · প্রকৌশল · টেলিযোগাযোগ · কম্পিউটারইলেকট্রনিক্স · ন্যানোপ্রযুক্তি · কৃষি · মহাকাশ · সামরিক প্রযুক্তি
মানবদেহ · রোগব্যাধি · মনোবিজ্ঞান · পুষ্টি · জিনতত্ত্ব · চিকিৎসা · জরুরী চিকিৎসা

জীববিজ্ঞান · জীবাণু · উদ্ভিদ · অমেরুদণ্ডী · মাছ · উভচর · সরীসৃপ · পাখি · স্তন্যপায়ী

ভূতত্ত্ব · রাষ্ট্রসমূহ · মানচিত্র · শহর · সাগরমহাসাগর · পাহাড়-পর্বত · নদ-নদী · দ্বীপ · আবহাওয়াজলবায়ু · অভিযান
সমাজ · সংস্কৃতি · সমাজবিজ্ঞান · নৃবিজ্ঞান · রাষ্ট্রবিজ্ঞান · সরকার · আইন · রাজনীতি · বিচার · শিক্ষা · সামরিক বাহিনী
অর্থনীতি · শিল্প · ব্যবসা · ব্যাংক

ধর্মীয় দর্শন · আস্তিক্যবাদ · নাস্তিক্যবাদ · ইসলাম · হিন্দুধর্ম · বৌদ্ধধর্ম · খ্রিস্টধর্ম · ধর্মগ্রন্থ

ভাষাবিজ্ঞান · ভাষা পরিবার · প্রাচীন ভাষা · বিলুপ্ত ভাষা · ব্যাকরণ · লিখন · কবিতা · উপন্যাস · কল্পসাহিত্য · বাংলা সাহিত্য
স্থাপত্য · ভাস্কর্য · সঙ্গীত · নৃত্য · চিত্রশিল্প · আলোকচিত্র · চলচ্চিত্র · স্থাপত্য
ক্রীড়া প্রতিযোগিতা · ক্রিকেট · ফুটবল · বিনোদন · বাংলাদেশের গ্রামীণ খেলাধুলা

বর্ষপঞ্জি · ইতিহাস · সভ্যতা · প্রাচীন সভ্যতা · প্রত্নতত্ত্ব · যুদ্ধ · সমসাময়িক ঘটনা

পেশা অনুযায়ী নারী · নারী সহিংসতা · বিজ্ঞানী · দার্শনিক · নারীস্বাস্থ্য · নোবেলজয়ী
সাহিত্যিক · বিজ্ঞানী · গণিতবিদ · শিল্পী · অভিনয়শিল্পী · রাজনীতিবিদ · খেলোয়াড়
সরকার · ইতিহাস · প্রশাসনিক অঞ্চল · সামরিক বাহিনী · বাংলাদেশি · ভূগোল · শিক্ষা · সংস্কৃতি · ঢাকা · চট্টগ্রাম

পশ্চিমবঙ্গ (সরকার · ইতিহাস · জেলা · ব্যক্তিত্ব · ভূগোল · শিক্ষা প্রতিষ্ঠান · সংস্কৃতি · কলকাতা) · ত্রিপুরা · আসাম


অন্য ভাষায় পড়ুন