২০১৯ ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ

(২০১৯ ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগ থেকে পুনর্নির্দেশিত)

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের ২০১৯ মৌসুমটি আইপিএলের দ্বাদশতম মৌসুম। এই প্রতিযোগিতাটি ২০০৭ সালে ভারতীয় ক্রিকেট নিয়ন্ত্রণ বোর্ড কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত একটি পেশাদার টুয়েন্টি২০ ক্রিকেট লিগ।[১][২] ভারতের লোকসভা নির্বাচনের জন্য ভারতের বাইরে অন্যত্র হওয়ার সম্ভবনা থাকলেও শেষ পর্যন্ত ভারতেই হয়েছে।

২০১৯ ভিভো ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ
তারিখ২৩ মার্চ ২০১৯ (2019-03-23) – ১২ মে ২০১৯
তত্ত্বাবধায়কভারতীয় ক্রিকেট নিয়ন্ত্রণ বোর্ড (বিসিসিআই)
ক্রিকেটের ধরনটুয়েন্টি২০
প্রতিযোগিতার ধরনরাউন্ড-রবিন এবং প্লে-অফ নকআউট
আয়োজক ভারত
বিজয়ীমুম্বাই ইন্ডিয়ান্স
অংশগ্রহণকারী দলসংখ্যা
খেলার সংখ্যা৬০
প্রতিযোগিতার সেরা খেলোয়াড়আন্দ্রে রাসেল (কেকেআর) (৫১০ রান এবং ১১ উইকেট)
সর্বাধিক রান সংগ্রহকারীডেভিড ওয়ার্নার (এসআরএইচ) (৬৯২)
সর্বাধিক উইকেটধারীইমরান তাহির (সিএসকে) (২৬)
আনুষ্ঠানিক ওয়েবসাইটwww.iplt20.com

কর্মকর্তার পরিবর্তন সম্পাদনা

২০১৮ সালের নভেম্বর মাসে, এই মৌসুমের জন্য স্থানান্তর ও ধারণ তালিকা ঘোষণা করা হয়েছিল। গৌতম গম্ভীর, যুবরাজ সিং এবং গ্লেন ম্যাক্সওয়েল মতো খেলোয়াড়দেরকে দলগুলো বিমুক্ত করে দিয়েছিল। ২০১৮ সালের নিলামের সবচেয়ে ব্যয়বহুল ভারতীয় খেলোয়াড় জয়দেব উনাদকাতকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছিল।[৩] ২০১৮ সালের ১৮ই ডিসেম্বর তারিখে জয়পুরে এই মৌসুমের নিলাম অনুষ্ঠিত হয়েছে।[২] জয়দেব উনাদকাত এবং নতুন মুখ বরুন চক্রবর্তী হলেন এই মৌসুমের সবচেয়ে ব্যয়বহুল খেলোয়াড়, উভয়ই ৮.৪ কোটি রুপির বিনিময়ে নিলামে বিক্রি হয়েছেন। ৭.২ কোটি রুপির মাধ্যমে সবচেয়ে ব্যয়বহুল বিদেশী খেলোয়াড়ে পরিণত হয়েছে স্যাম কারেনচেতেশ্বর পুজারা, ব্রেন্ডন ম্যাককুলাম, মুশফিকুর রহিম এবং অ্যালেক্স হেলসের মতো খেলোয়াড় এই মৌসুমে নিলামে অবিক্রিত ছিলেন।[৪]

স্টেডিয়াম সমূহ সম্পাদনা

স্টেডিয়াম অবস্থিত ধারণ ক্ষমতা স্থানীয় দল উল্লেখযোগ্য ম্যাচ
এম. চিন্নাস্বামী স্টেডিয়াম বেঙ্গালুরু ৪২০০০ রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর
এম. এ. চিদম্বরম স্টেডিয়াম চেন্নাই ৪৬০০০ চেন্নাই সুপার কিংস ফাইনাল
ফিরোজ শাহ কোটলা মাঠ দিল্লি ৪৮০০০ দিল্লি ক্যাপিটালস
রাজীব গান্ধী আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম হায়দ্রাবাদ ৫৫০০০ সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদ
সয়াই মানসিং স্টেডিয়াম জয়পুর ২৩১৮৫ রাজস্থান রয়্যালস
ইডেন গার্ডেন্স কলকাতা ৮২০০০ কলকাতা নাইট রাইডার্স
ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম মুম্বাই ৩৩০০০ মুম্বই ইন্ডিয়ান্স
পাঞ্জাব ক্রিকেট সংস্থা আইএস বিন্দ্রা স্টেডিয়াম মোহালি ৩৫০০০ কিংস এলেভেন পাঞ্জাব

দল ও অবস্থান সম্পাদনা

লিগ টেবিল সম্পাদনা

দল
ম্যাচ জয় হার টাই অমীমাংসিত পয়েন্ট নেট রান রেট
সানরাইজার্স হায়দরাবাদ ১৪ ১২ -০.২৫১
কলকাতা নাইট রাইডার্স ১৩ ১২ +০.১৭৩
কিংস এলেভেন পাঞ্জাব ১৪ ১২ -০.২৫১
চেন্নাই সুপার কিংস ১৪ ১৮ +০.১৩১
দিল্লি ক্যাপিটালস ১৪ ১৮ +০.০৪৪
মুম্বই ইন্ডিয়ান্স ১৩ ১৬ +০.৩২১
রাজস্থান রয়্যালস ১৪ ১১ –০.৪৪৯
রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর ১৪ ১১ –০.৬০৭
সূত্র: ক্রিকইনফো
৫ মে ২০১৯ এ ৫৫তম ম্যাচ পর্যন্ত সর্বশেষ হালনাগাদ করা হয়েছে।


খেলার সারাংশ সম্পাদনা

দলগ্রুপের খেলাপ্লে-অফ
১০১১১২ব১/এবা২ফা
কলকাতা নাইট রাইডার্স১০১২১২
কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব১০
চেন্নাই সুপার কিংস১০১২১২১২১৪১৪১৪হাহা
মুম্বই ইন্ডিয়ান্স১০১০১২১২১৪১৬
রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু১১
রাজস্থান রয়্যালস১০১১
সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদ১০১০১০হা
জয়হারফলাফল হয়নি
  • টীকা: প্রতিটি গ্রুপ ম্যাচের খেলা শেষে পয়েন্ট হালনাগাদ করা হয়েছে।
  • টীকা: খেলার সারাংশ দেখতে (গ্রুপ খেলার) পয়েন্টের উপর অথবা (প্লে-অফের) জ/হা এর উপর ক্লিক করুন।
অতিথি দল →কলকাতা পাঞ্জাব চেন্নাই মুম্বই বেঙ্গালুরু রাজস্থান হায়দ্রাবাদ
স্থানীয় দল ↓
কলকাতা নাইট রাইডার্সকলকাতা
২৮ রান
চেন্নাই
৫ উইকেট
কলকাতা
৩৪ রান
বেঙ্গালুরু
১০ রান
রাজস্থান
৩ উইকেট
কলকাতা
৬ উইকেট
কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবকলকাতা
৭ উইকেট
পাঞ্জাব
৬ উইকেট
পাঞ্জাব
৮ উইকেট
বেঙ্গালুরু
৮ উইকেট
পাঞ্জাব
১২ রান
পাঞ্জাব
৬ উইকেট
চেন্নাই সুপার কিংসচেন্নাই
৭ উইকেট
চেন্নাই
২২ রান
মুম্বই
৪৬ রান
চেন্নাই
৭ উইকেট
চেন্নাই
৮ রান
চেন্নাই
৬ উইকেট
মুম্বই ইন্ডিয়ান্সমুম্বই
৯ উইকেট
মুম্বই
৩ উইকেট
মুম্বই
৩৭ রান
মুম্বই
৫ উইকেট
রাজস্থান
৪ উইকেট
মুম্বই
সুপারওভার
রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুকলকাতা
৫ উইকেট
বেঙ্গালুরু
১৭ রান
বেঙ্গালুরু
১ রান
মুম্বই
৬ রান
খেলা
পরিত্যাক্ত
বেঙ্গালুরু
৪ উইকেট
রাজস্থান রয়্যালসকলকাতা
৮ উইকেট
পাঞ্জাব
১৪ রান
চেন্নাই
৪ উইকেট
রাজস্থান
৫ উইকেট
রাজস্থান
৭ উইকেট
রাজস্থান
৭ উইকেট
সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদহায়দ্রাবাদ
৯ উইকেট
হায়দ্রাবাদ
৪৫ রান
হায়দ্রাবাদ
৬ উইকেট
মুম্বই
৪০ রান
হায়দ্রাবাদ
১১৮ রান
হায়দ্রাবাদ
৫ উইকেট
স্থানীয় দল জয়ীঅতিথি দল জয়ীখেলা পরিত্যাক্ত
  • দ্রষ্টব্য: ম্যাচের ফলাফল স্থানীয় দল (লম্বালম্বি ভাবে) এবং অতিথি দল (আড়াআড়ি ভাবে) অনুযায়ী সাজানো হয়েছে।
  • দ্রষ্টব্য: ম্যাচের পূর্ণাঙ্গ ফলাফল জানতে সংক্ষিপ্ত ফলাফলে ক্লিক করুন।


লিগ পর্ব সম্পাদনা

২৩ মার্চ
২০.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
বনাম
চেন্নাই সুপার কিংস (স্থা)
৭১/৩ (১৭.৪ ওভার)
চেন্নাই ৭ উইকেটে জয় লাভ করে।
এম. এ. চিদাম্বরম স্টেডিয়াম, চেন্নাই
আম্পায়ার: Anil Dএবং ekar (ভারত) এবং ব্রুস অক্সেনফোর্ড (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: হরভজন সিং (চেন্নাই সুপার কিংস)
  • চেন্নাই সুপার কিংস টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।
  • *Suresh Raina (চেন্নাই সুপার কিংস) প্রথম ব্যাটসম্যান হিসাবে আইপিএলে ৫০০০ করেন।[৫]
  • এই ম্যাচে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর made the lowest total for any team in the IPL against the চেন্নাই সুপার কিংস.[৬][৭]

২৪ মার্চ
১৬.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
বনাম
কলকাতা নাইট রাইডার্স (স্থা)
১৮৩/৪ (১৯.৪ ওভার)
নীতিশ রানা ৬৮ (৪৭)
রশীদ খান ১/২৬ (৪ ওভার)
কলকাতা ৬ উইকেটে জয় লাভ করে।
ইডেন গার্ডেন্স, কলকাতা
আম্পায়ার: অনিল চৌধুরী (ভারত) এবং ক্রিস গফানি (নিউজিল্যান্ড)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: আন্দ্রে রাসেল (কলকাতা নাইট রাইডার্স)
  • কলকাতা নাইট রাইডার্স টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।

২৪ মার্চ
২০.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
দিল্লি ক্যাপিটালস
২১৩/৬ (২০ ওভার)
বনাম
মুম্বই ইন্ডিয়ান্স (স্থা)
১৭৬ (১৯.২ ওভার)
যুবরাজ সিং ৫৩ (৩৫)
কাগিসো রাবাদা ২/২৩ (৪ ওভার)
দিল্লি ৩৭ রানে জয় লাভ করে।
ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম, মুম্বই
আম্পায়ার: Yeshwant Barde (ভারত) এবং সুন্দরম রবি (ভারত)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: ঋষভ পন্ত (দিল্লি ক্যাপিটালস)
  • মুম্বাই ইন্ডিয়ানস টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।

২৫ মার্চ
২০.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
পাঞ্জাব কিংস
১৮৪/৪ (২০ ওভার)
বনাম
রাজস্থান রয়্যালস (স্থা)
১৭০/৯ (২০ ওভার)
ক্রিস গেইল ৭৯ (৪৭)
বেন স্টোকস ২/৪৮ (৪ ওভার)
জস বাটলার ৬৯ (৪৩)
মুজিব উর রহমান ২/৩১ (৪ ওভার)
পাঞ্জাব ১৪ রানে জয় লাভ করে।
সয়াই মানসিং স্টেডিয়াম, জয়পুর
আম্পায়ার: K. N. Ananthapadmanabhan (ভারত) এবং Chettithody Shamshuddin (ভারত)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: ক্রিস গেইল (কিংস এলেভেন পাঞ্জাব)
  • রাজস্থান রয়্যালস টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।
  • আইপিএলের ইতিহাসে প্রথমবার জস বাটলার (রাজস্থান রয়্যালস) মাকঁরীয় পন্থায় রান আউট হন।[৮]

২৬ মার্চ
২০.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
দিল্লি ক্যাপিটালস (স্থা)
১৪৭/৬ (২০ ওভার)
বনাম
চেন্নাই সুপার কিংস
১৫০/৪ (১৯.৪ ওভার)
শেন ওয়াটসন ৪৪ (২৬)
অমিত মিশ্র ২/৩৫ (৪ ওভার)
চেন্নাই ৬ উইকেটে জয় লাভ করে।
ফিরোজ শাহ কোটলা মাঠ, দিল্লি
আম্পায়ার: Marais Erasmus (দক্ষিণ আফ্রিকা) এবং নীতিন মেনন (ভারত)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: শেন ওয়াটসন (চেন্নাই সুপার কিংস)
  • দিল্লি ক্যাপিটালস টসে জিতে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।

27 মার্চ
২০.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
কলকাতা নাইট রাইডার্স (স্থা)
২১৮/৪ (২০ ওভার)
বনাম
পাঞ্জাব কিংস
১৯০/৪ (২০ ওভার)
ডেভিড মিলার ৫৯* (৪০)
আন্দ্রে রাসেল ২/২১ (৩ ওভার)
কলকাতা ২৮ রানে জয় লাভ করে।
ইডেন গার্ডেন্স , কলকাতা
আম্পায়ার: অনিল চৌধুরী (Ind) এবং Vineet Kulkarni (Ind)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: আন্দ্রে রাসেল (কলকাতা নাইট রাইডার্স)
  • কিংস এলেভেন পাঞ্জাব টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।
  • Varun Chakravarthy (কিংস এলেভেন পাঞ্জাব) made his T20 debut. His first over went for 25 runs, the highest number of runs conceded by a bowler on debut in the IPL.[৯]
  • Sunil Narine (কলকাতা নাইট রাইডার্স) played in his 100th IPL match.[১০]
  • কলকাতা নাইট রাইডার্স made their highest total at home in the IPL.[১০]

28 মার্চ
২০.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
মুম্বই ইন্ডিয়ান্স
১৮৭/৮ (২০ ওভার)
বনাম
  • রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।
  • Virat Kohli (রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর) became the second batsman to score 5,000 runs in the IPL.[১১]

29 মার্চ
২০.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
রাজস্থান রয়্যালস
১৯৮/২ (২০ ওভার)
বনাম
সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদ (স্থা)
২০১/৫ (১৯ ওভার)
সঞ্জু স্যামসন ১০২* (৫৫)
রশীদ খান ১/২৪ (৪ ওভার)
ডেভিড ওয়ার্নার ৬৯ (৩৭)
Shreyas Gopal ৩/২৭ (৪ ওভার)
  • রাজস্থান রয়্যালস টসে জিতে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।
  • This was সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদ's highest successful run chase in the IPL.[১২]

30 মার্চ
১৬.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
মুম্বই ইন্ডিয়ান্স
১৭৬/৭ (২০ ওভার)
বনাম
পাঞ্জাব কিংস (স্থা)
১৭৭/২ (১৮.৪ ওভার)
কুইন্টন ডি কক ৬০ (৩৯)
Murugan Ashwin ২/২৫ (৪ ওভার)
লোকেশ রাহুল ৭১* (৫৭)
Krunal Pএবং ya ২/৪৩ (৪ ওভার)
পাঞ্জাব ৮ উইকেটে জয় লাভ করে।
ইন্দ্রজিৎ সিং বিন্দ্রা স্টেডিয়াম, মোহালি
আম্পায়ার: ক্রিস গফানি (নিউজিল্যান্ড)এবং Vineet Kulkarni (ভারত)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: Mayank Agarwal (কিংস এলেভেন পাঞ্জাব)
  • কিংস এলেভেন পাঞ্জাব টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।

30 মার্চ
২০.০০ (দিন/রাত)
স্কোরবোর্ড
বনাম
দিল্লি ক্যাপিটালস (স্থা)
১৮৫/৬ (২০ ওভার)
আন্দ্রে রাসেল ৬২ (২৮)
Harshal Patel ২/৪০ (৪ ওভার)
Prithvi Shaw ৯৯ (৫৫)
কুলদীপ যাদব ২/৪১ (৪ ওভার)
  • দিল্লি ক্যাপিটালস টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয়।

তথ্যসূত্র সম্পাদনা

  1. "IPL 2019 to be held between March 29 and May 19"The Indian Express। ২৪ এপ্রিল ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ৬ মে ২০১৮ 
  2. "IPL 2019 likely to start early to give India break before World Cup"Cricinfo। ৯ নভেম্বর ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ৯ নভেম্বর ২০১৮ 
  3. "Ins and Outs of the IPL trade window"। ESPNcricinfo। ১৫ নভেম্বর ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১৫ নভেম্বর ২০১৮ 
  4. "IPL Auction 2019 Highlights: Varun Chakravarthy, Jaydev Unadkat emerge most expensive buys at Rs 8.40 crore"। Indian Express। ১৮ ডিসেম্বর ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১৮ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  5. "Suresh Raina first player to score 5000 runs in IPL"The Times of India। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৯ 
  6. "IPL 2019: Match 1, চেন্নাই সুপার কিংস vs রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর – Statistical Highlights"Cricktracker। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৯ 
  7. "RCB crumble against spin as CSK win IPL 2019 opener"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৯ 
  8. "Drama in Jaipur as Jos Buttler mankaded by R Ashwin"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৫ মার্চ ২০১৯ 
  9. "Sunil Narine makes it a first over to forget for Varun Chakravarthy"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৭ মার্চ ২০১৯ 
  10. "আন্দ্রে রাসেল steals the show as Knight Riders make it two in two"Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৭ মার্চ ২০১৯ 
  11. "IPL 2019, RCB vs MI: Virat Kohli scripts history, becomes 2nd batsman to score 5000 runs in IPL"Hindustan Times। সংগ্রহের তারিখ ২৮ মার্চ ২০১৯ 
  12. "Decoding the Sanju Samson, David Warner blitzkriegs"ESPNCricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৯ মার্চ ২০১৯