প্রধান মেনু খুলুন

ক্রিস গফানি

নিউজিল্যান্ডীয় ক্রিকেটার

ক্রিস্টোফার ব্লেয়ার গফানি (জন্ম: ৩০ নভেম্বর, ১৯৭৫) নিউজিল্যান্ডের ডুনেডিনে জন্মগ্রহণকারী বিশিষ্ট ক্রিকেটার। ঘরোয়া ক্রিকেটে তিনি ওতাগো ভোল্টস দলের হয়ে ক্রিকেট খেলেছেন। ডানহাতি ব্যাটসম্যান গফানি প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে ৩৮টি খেলায় অংশ নিয়েছেন। বর্তমানে তিনি আম্পায়ার ও রেফারিদের আন্তর্জাতিক তালিকার অন্যতম সদস্য হিসেবে আম্পায়ারের দায়িত্ব পালন করছেন।

ক্রিস গফানি
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামক্রিস্টোফার ব্লেয়ার গফানি
জন্ম (1975-11-30) ৩০ নভেম্বর ১৯৭৫ (বয়স ৪৩)
ডুনেডিন, ওতাগো, নিউজিল্যান্ড
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
১৯৯৫-২০০৫ওতাগো
এফসি অভিষেক১৭ জানুয়ারি ১৯৯৬ ওতাগো বনাম অকল্যান্ড
শেষএফসি২০ মার্চ ২০০৫ ওতাগো বনাম ওয়েলিংটন
এলএ অভিষেক২৬ নভেম্বর ১৯৯৫ ওতাগো বনাম ওয়েলিংটন
শেষ এলএ১০ ফেব্রুয়ারি ২০০৭7 ওতাগো বনাম অকল্যান্ড
আম্পায়ারিং তথ্য
ওডিআই আম্পায়ার২৬ (২০১০–বর্তমান)
এফসি আম্পায়ার৩০ (২০০৮–বর্তমান)
এলএ আম্পায়ার৩৮ (২০০৮–বর্তমান)
টি২০ আম্পায়ার৫৯ (২০০৯–বর্তমান)
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা এফসি এলএ টি২০
ম্যাচ সংখ্যা ৮৩ ১১৩
রানের সংখ্যা ৪৭১১ ২৪১১ ২৩২
ব্যাটিং গড় ৩৩.৪১ ২৩.৬৩ ৩৩.১৪
১০০/৫০ ৮/২৪ ১/১১ ১/০
সর্বোচ্চ রান ১৯৪ ১০১* ১০১
বল করেছে ১০২ ৩৬ -
উইকেট -
বোলিং গড় ২৩.৫০ ৩৬.০০ -
ইনিংসে ৫ উইকেট -
ম্যাচে ১০ উইকেট -
সেরা বোলিং ১/৩ ১/৪ -
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৭৩/০ ৩৩/০ ৩/০
উৎস: CricketArchive, ১ জানুয়ারি ২০১৪

বিতর্কসম্পাদনা

৬ জুন ২০১৯, ২০১৯ বিশ্বকাপের ওয়েস্ট ইন্ডিজ বনাম অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার গ্রুপ পর্বের ম্যাচে তিনি আম্পায়ারিং করেন। বার বার ভুল সিদ্ধান্তের কারণে তিনি ব্যাপক সমালোচিত হচ্ছেন, তিনি দুইবার ওয়েস্ট ইন্ডিজের ওপেনিং ব্যাটসম্যান ক্রিস গেইলকে আউট দেন। অতঃপর ব্যাটসম্যান তাড়াতাড়ি রিভিউ নেন এবং উভয় বারই তৃতীয় আম্পায়ার আগের সিদ্ধান্ত ফিরিয়ে নেন, কেননা মাঠের আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত ভুল ছিল। আরো বিস্ময়কর ব্যাপার, আবার তিনি তৃতীয় বার ক্রিস গেইলকে আউট দেন, এবার এলবিডব্লিউ হন এবং ব্যাটসম্যান তৃতীয় বার আবার রিভিউ নেন, কিন্তু দেখা যায় এবার বল স্ট্যাম্পে আঘাত করে। আশ্চর্যজনক যে, রিপ্লেতে দেখা যায় ক্রিস গেইলকে আউট দেওয়ার আগের বলটি নো বল ছিল এবং এটি উক্ত আম্পায়ারের চোখেই পড়েনি! যদি তিনি সেই বলটি নো বল দিতেন, তাহলে পরবর্তী বলটি ফ্রী-হিট হতো এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজও গেইলের উইকেট হারাতো না।

আরও দেখুনসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা