বনগাঁ উত্তর বিধানসভা কেন্দ্র

পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা কেন্দ্র

বনগাঁ উত্তর (বিধানসভা কেন্দ্র) ভারতীয় রাজ্য পশ্চিমবঙ্গের উত্তর চব্বিশ পরগনা জেলার একটি বিধানসভা কেন্দ্র। ২০১১ সাল পর্যন্ত বনগাঁ বিধানসভা কেন্দ্র একটি আসন ছিল। ২০১১ সালের পর থেকে দুইটি আসন হয়েছে ১. বনগাঁ উত্তর বিধানসভা কেন্দ্র এবং ২. বনগাঁ দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্র। এই কেন্দ্রটি এসসি এর জন্য সংরক্ষিত। বনগাঁ কেন্দ্রটি ২০১১ সাল পর্যন্ত একটি উন্মুক্ত আসন ছিল।

বনগাঁ উত্তর
বিধানসভা কেন্দ্র
বনগাঁ উত্তর পশ্চিমবঙ্গ-এ অবস্থিত
বনগাঁ উত্তর
বনগাঁ উত্তর
বনগাঁ উত্তর ভারত-এ অবস্থিত
বনগাঁ উত্তর
বনগাঁ উত্তর
পশ্চিমবঙ্গ
স্থানাঙ্ক: ২৩°০৪′০″ উত্তর ৮৮°৪৯′০″ পূর্ব / ২৩.০৬৬৬৭° উত্তর ৮৮.৮১৬৬৭° পূর্ব / 23.06667; 88.81667স্থানাঙ্ক: ২৩°০৪′০″ উত্তর ৮৮°৪৯′০″ পূর্ব / ২৩.০৬৬৬৭° উত্তর ৮৮.৮১৬৬৭° পূর্ব / 23.06667; 88.81667
দেশ ভারত
রাজ্যপশ্চিমবঙ্গ
জেলাউত্তর চব্বিশ পরগনা
কেন্দ্র নং.৯৫
আসনএসসি এর জন্য সংরক্ষিত
লোকসভা কেন্দ্র১৪.বনগাঁ (এসসি)
নির্বাচনী বছর১৮৮,৪৪৩ (২০১১)

এলাকাসম্পাদনা

ভারতের সীমানা পুনর্নির্ধারণ কমিশনের নির্দেশিকা অনুসারে, ৯৫ নং বনগাঁ উত্তর (এসসি) বিধানসভা কেন্দ্রটি বনগাঁ পৌরসভা এবং আকাইপুর, ছয়ঘড়িয়া, ধরম পুকুরিয়া, গঙ্গাধরপুর, ঘাটবাওর, গোপালনগর-১ ও গোপালনগর -২, গ্রাম পঞ্চায়েত গুলি বনগাঁ সমষ্টি উন্নয়ন ব্লক এর অন্তর্গত।[১]

বনগাঁ উত্তর (এসসি) বিধানসভা কেন্দ্রটি ১৪ নং বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্র (এসসি) এর অন্তর্গত। পূর্বে এই কেন্দ্রটি বারাসাত লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত ছিল।[১]

বিধানসভার বিধায়কসম্পাদনা

নির্বাচন
বছর
কেন্দ্র বিধায়ক রাজনৈতিক দল
১৯৫১ বনগাঁ জীবন রতন ধাড়া ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস [২]
১৯৫৭ অজিত কুমার গাঙ্গুলী ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি[৩]
মনীন্দ্রভূষণ বিশ্বাস ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস[৩]
১৯৬২ জীবন রতন ধাড়া ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস [৪]
১৯৬৭ কে. ভৌমিক ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস [৫]
১৯৬৯ অজিত কুমার গাঙ্গুলী ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি [৬]
১৯৭১ অজিত কুমার গাঙ্গুলী ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি [৭]
১৯৭২ অজিত কুমার গাঙ্গুলী ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি [৮]
১৯৭৭ রঞ্জিত মিত্র ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্ক্সবাদী) [৯]
১৯৮২ ভূপেন্দ্রনাথ শেঠ ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস [১০]
১৯৮৭ রঞ্জিত মিত্র ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্ক্সবাদী) [১১]
১৯৯১ ভূপেন্দ্রনাথ শেঠ ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস [১২]
১৯৯৬ পঙ্কজ ঘোষ ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্ক্সবাদী) [১৩]
২০০১ পঙ্কজ ঘোষ ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্ক্সবাদী)[১৪]
২০০৬ ভূপেন্দ্রনাথ শেঠ সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেস [১৫]
২০০৬ উপনির্বাচন সৌগত রায় সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেস [১৬]
২০০৯ উপনির্বাচন গোপাল শেঠ সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেস[১৭][১৮]
২০১১ বনগাঁ উত্তর বিশ্বজিৎ দাস সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেস [১৯]

নির্বাচনী ফলাফলসম্পাদনা

২০১১সম্পাদনা

২০১১ সালের নির্বাচনে, তৃণমূল কংগ্রেসের বিশ্বজিৎ দাস তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সিপিআই (এম) -এর ডা. বিশ্বজিৎ বিশ্বাসকে পরাজিত করেন।

পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন, ২০১১: বনগাঁ উত্তর (এসসি) কেন্দ্র [১৯][২০]
দল প্রার্থী ভোট % ±%
তৃণমূল কংগ্রেস বিশ্বজিৎ দাস ৮৯,২৬৫ ৫৪.৫৫
সিপিআই(এম) ডা.বিশ্বজিৎ বিশ্বাস ৬৫,৬৪৫ ৪০.১২
বিজেপি হরিচাঁদ বিশ্বাস ৫,১৪৯ ৩.১৫
বিএসপি গণেশ চন্দ্র বিশ্বাস ১,৮২৮
আরএমআরপিপিআই পিনাকী রঞ্জন ভারতী ৯৯৫
নির্যাতিত সমাজ বিপ্লবী পার্টি গোবিন্দ মণ্ডল ৭৫
ভোটার উপস্থিতি ১৬৩,৬৪১ ৮৬.৮৪
তৃণমূল কংগ্রেস জয়ী (নতুন আসন)

২০০৯ উপনির্বাচনসম্পাদনা

২০০৯ সালের বিধানসভা উপনির্বাচনের কারণ বিধায়ক সৌগত রায় দমদম লোকসভা কেন্দ্র থেকে নির্বাচিত হন ফলে, তৃণমূল কংগ্রেসের গোপাল শেঠ বনগাঁ কেন্দ্র থেকে জয়লাভ করেন।[১৭][১৮]

২০০৬ উপনির্বাচনসম্পাদনা

২০০৬ সালের বিধানসভা উপনির্বাচনের কারণ নির্বাচিত বিধায়ক ভূপেন শেঠ এর মৃত্যুর ফলে, তৃণমূল কংগ্রেসের সৌগত রায় সিপিআই (এম) -এর পঙ্কজ ঘোষকে পরাজিত করেন।[১৬]

১৯৭৭-২০০৬সম্পাদনা

২০০৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনে,[১৫] তৃণমূল কংগ্রেসের ভূপেন্দ্রনাথ শেঠ বনগাঁ বিধানসভা কেন্দ্র থেকে জয়লাভ করেন তার নিকটবর্তী প্রতিদ্বন্দ্বী সিপিআই (এম) -এর পঙ্কজ ঘোষকে পরাজিত করেন। অধিকাংশ বছরে প্রতিযোগিতাগুলিতে প্রার্থীদের বিভিন্ন ধরনের কোণঠাসা করে ছিল কিন্তু শুধুমাত্র বিজয়ী ও রানার্সকে উল্লেখ করা হচ্ছে। ২০০১[১৪] এবং ১৯৯৬ সালে[১৩] সিপিআই (এম) -এর পঙ্কজ ঘোষ নির্দল এবং কংগ্রেসের ভূপেন্দ্রনাথ শেঠকে পরাজিত করেন। কংগ্রেসের ভূপেন্দ্রনাথ শেঠ ১৯৯১ সালে সিপিআই (এম) -এর রণজিৎ মিত্রকে পরাজিত করেন।[১২] ১৯৮৭ সালে সিপিআই (এম) -এর রণজিৎ মিত্র কংগ্রেসের ভূপেন্দ্রনাথ শেঠকে পরাজিত করেন।[১১] কংগ্রেসের ভূপেন্দ্রনাথ শেঠ ১৯৮২ সালে সিপিআই (এম) -এর রণজিৎ মিত্রকে পরাজিত করেন।[১০] সিপিআই (এম) -এর রণজিত মিত্র ১৯৭৭ সালে কংগ্রেসের ভূপেন্দ্রনাথ শেঠকে পরাজিত করেন।[৯][২১]

১৯৫১-১৯৭২সম্পাদনা

১৯৭২,[৮] ১৯৭১[৭] এবং ১৯৬৯ সালে[৬] সিপিআই এর অজিত কুমার গাঙ্গুলি জয়ী হন। কংগ্রেসের কে.ভৌমিক ১৯৬৭ সালে জয়ী হন।[৫] কংগ্রেসের জীবন রতন ধর ১৯৬২ সালে জয়ী হন।[৪] ১৯৫৭ সালে বনগাঁ একটি যৌথ আসন ছিল। সিপিআই'র অজিত কুমার গাঙ্গুলি এবং কংগ্রেসের মনীন্দ্র ভূষণ বিশ্বাস ১৯৫৭ সালে উভয়ই জয়ী হন।[৩] কংগ্রেসের জীবন রতন ধর ১৯৫১ সালে জয়ী হন।[২]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Delimitation Commission Order No. 18" (PDF)পশ্চিমবঙ্গ (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ২০ জুন ২০১৪ 
  2. "General Elections, India, 1951, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  3. "General Elections, India, 1957, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  4. "General Elections, India, 1962, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  5. "General Elections, India, 1967, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  6. "General Elections, India, 1969, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  7. "General Elections, India, 1971, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  8. "General Elections, India, 1972, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  9. "General Elections, India, 1977, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  10. "General Elections, India, 1982, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  11. "General Elections, India, 1987, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  12. "General Elections, India, 1991, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  13. "General Elections, India, 1996, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  14. "General Elections, India, 2001, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  15. "General Elections, India, 2006, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  16. "Legislative Assembly of West Bengal – Assembly Constituency 85-Bongaon" (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  17. "West Bengal State Assembly Byelections 2009" (ইংরেজি ভাষায়)। Indian Election Affairs। ১৩ জুলাই ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৬ জানুয়ারি ২০১১ 
  18. "Results of bye – elections to the 31 (thirty one) Assembly Constituencies and 1(one) Lok Sabha Constituency" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ২৬ জানুয়ারি ২০১১ 
  19. "General Elections, India, 2011, to the Legislative Assembly of West Bengal" (PDF) (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  20. "West Bengal Assembly Election 2011"Bangaon Uttar (ইংরেজি ভাষায়)। Empowering India। সংগ্রহের তারিখ ২৪ এপ্রিল ২০১১ 
  21. "85 - Bongaon Assembly Constituency"১৯৭৭ থেকে দল অনুযায়ী তুলনা (ইংরেজি ভাষায়)। ভারতের নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১৫ অক্টোবর ২০১০