প্রধান মেনু খুলুন

অ্যাশলে জাইলস

ইংরেজ ক্রিকেটার

অ্যাশলে ফ্রেজার জাইলস, এমবিই (ইংরেজি: Ashley Giles; জন্ম: ১৯ মার্চ, ১৯৭৩) সারের চার্টসে এলাকায় জন্মগ্রহণকারী সাবেক ও বিখ্যাত ইংরেজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট তারকা। ইংল্যান্ড দলের পক্ষ হয়ে ৫৪টি টেস্ট এবং ৬২টি একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন। খেলোয়াড়ী জীবনের শুরুতে ফাস্ট বোলার হিসেবে আবির্ভূত হলেও আঘাতজনিত কারণে শুরু থেকেই স্লো লেফট-আর্ম স্পিনার হিসেবে দলে খেলেছেন।[২] আঘাতজনিত কারণেই জোরপূর্বক অবসর নিতে বাধ্য হন অ্যাশলে জাইলস

অ্যাশলে জাইলস
Ashley Giles.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামঅ্যাশলে ফ্রেজার জাইলস
জন্ম (1973-03-19) ১৯ মার্চ ১৯৭৩ (বয়স ৪৬)
চার্টসে, সারে, ইংল্যান্ড
ডাকনামজিলো, স্কিনি, স্প্লেশ, “স্পিনের রাজা”,[১] "দ্য হুইলি বিন"
উচ্চতা৬ ফুট ৪ ইঞ্চি (১.৯৩ মিটার)
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনস্লো লেফট আর্ম অর্থোডক্স
ভূমিকাবোলার, কোচ
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ৫৯০)
২ জুলাই ১৯৯৮ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা
শেষ টেস্ট১ ডিসেম্বর ২০০৬ বনাম অস্ট্রেলিয়া
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ১৪৫)
২৪ মে ১৯৯৭ বনাম অস্ট্রেলিয়া
শেষ ওডিআই১২ জুলাই ২০০৫ বনাম অস্ট্রেলিয়া
ওডিআই শার্ট নং২৯
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
১৯৯৩-২০০৭ওয়ারউইকশায়ার
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই এফসি এলএ
ম্যাচ সংখ্যা ৫৪ ৬২ ১৭৮ ২২৪
রানের সংখ্যা ১৪২১ ৩৮৫ ৫৩৪৬ ২০৮৯
ব্যাটিং গড় ২০.৮৯ ১৭.৫০ ২৬.৩৩ ২০.৮৯
১০০/৫০ ০/৪ ০/০ ৩/২২ ১/৫
সর্বোচ্চ রান ৫৯ ৪১ ১২৮* ১০৭
বল করেছে ১২১৮০ ২৮৫৬ ৩৭৩০৪ ৯৭২৯
উইকেট ১৪৩ ৫৫ ৫৩৯ ২৭২
বোলিং গড় ৪০.৬০ ৩৭.৬১ ২৯.৬০ ২৫.৫৯
ইনিংসে ৫ উইকেট ২৬
ম্যাচে ১০ উইকেট - -
সেরা বোলিং ৫/৫৭ ৫/৫৭ ৮/৯০ ৫/২১
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৩৩/– ২২/– ৮০/– ৭৩/–
উৎস: ক্রিকইনফো, ১ মে ২০১৭

ব্যক্তিগত জীবনসম্পাদনা

জাইলস ওরচেস্টারশায়ারের ড্রইটউইচ স্পা’র বাসিন্দা। ২০০৫ সালের অ্যাশেজ সিরিজে সফলতার পর তার সম্মানে ঐ শহরের মেয়র কর্তৃক তাকে ‌‌‌‌সম্মানসূচক নাগরিক হিসেবে ঘোষণা করা হয়।[৩] ২০০৬ সালে রাণীর জন্মদিনের সম্মানে অ্যাশেজ বিজয়ী দলের সদস্য হিসেবে এমবিই উপাধিপ্রাপ্ত হন। নরওয়ের রমণী স্টাইন (বিবাহ-পূর্ব অসল্যান্ড)-কে বিয়ে করেন তিনি। অ্যান্ডার্স ফ্র্যাজার ও মাতিল্ডে নামীয় দুই সন্তান রয়েছে তাদের। তিনি কুইন্স পার্ক র‌্যাঞ্জার্স ফুটবল ক্লাবের আজীবন সমর্থক[৪]

খেলোয়াড়ী জীবনসম্পাদনা

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে ওয়ারউইকশায়ার কাউন্টি ক্রিকেট ক্লাবের পক্ষ হয়ে ১৯৯৩ সালে অভিষেক ঘটে তার। এরপর ১৯৯৬ সালে থেকে দলে নিয়মিতভাবে খেলতে থাকেন। এ দলে চৌদ্দ বছর যাবৎ প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট খেলেছেন।[৫]

মে, ১৯৯৭ সালে অস্ট্রেলিয়া দলের বিপক্ষে একদিনের আন্তর্জাতিকে অভিষিক্ত হন তিনি। টেস্টে ২ জুলাই, ১৯৯৮ তারিখে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে অভিষিক্ত হন। ৩৬ ওভার বোলিং করে ১০৬ রানের বিনিময়ে তিনি মাত্র ১ উইকেট লাভ করেন।[৬] ২০০১-০১ মৌসুমে পাকিস্তান সফরে ইংল্যান্ড দলের ১নং ধীরগতির বোলার ছিলেন তিনি।[২] ২০০২ মৌসুমে অস্ট্রেলিয়া সফরে ব্রিসবেনে অনুষ্ঠিত টেস্টে ৮ উইকেট নেয়ার পর অনুশীলনকালীন সময়ে স্টিভ হার্মিসনের বোলিংয়ে কব্জিতে আঘাতপ্রাপ্তির ফলে দেশে ফিরে আসতে বাধ্য হন।[৭] ২০০৩-এর শীতে প্রথম টেস্টে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ৮ উইকেট নেন ও ইংল্যান্ডকে সিরিজ ড্র করাতে সক্ষম হন।[৮] এরপর ২০০৪ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে দলের সাথে যুক্ত হন।[৯]

কোচের দায়িত্ব গ্রহণসম্পাদনা

সেপ্টেম্বর, ২০০৭ সালে অবসর গ্রহণের পর ওয়ারউইকশায়ারের ক্রিকেট পরিচালক পদে ডারমট রিভকে পাশ কাটিয়ে মার্ক গ্রেটব্যাচের স্থলাভিষিক্ত হন জাইলস।[১০] দুই মাস পর নভেম্বরে ইংল্যান্ডের দক্ষতাবৃদ্ধিকারী প্রকল্পে আনুষ্ঠানিকভাবে তাকে স্পিন কোচ হিসেবে ঘোষণা করা হয়।[১১] ১৮ জানুয়ারি, ২০০৮ তারিখে ডেভিড গ্রেভিনি’র স্থলাভিষিক্ত জিওফ মিলারের নেতৃত্বে চার সদস্যবিশিষ্ট নতুন কমিটিতে পিটার মুরেজ, জেমস হুইটেকারের সাথে তিনিও অন্তর্ভুক্ত হন। তন্মধ্যে গ্রেভিনি ইংল্যান্ড দল নির্বাচক হলেও পরবর্তীকালে জাতীয় দক্ষতা বৃদ্ধিকারী প্রকল্পের ব্যবস্থাপক হিসেবে বহাল থাকেন।[১২] ২৮ নভেম্বর, ২০১২ তারিখে ইসিবি অ্যাশলে জাইলসকে সীমিত ওভারের টুয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিকএকদিনের আন্তর্জাতিক খেলায় ইংল্যান্ড দলের প্রধান কোচের দায়িত্ব প্রদান করে।

সম্মাননাসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Frindall, Bill (২০০৯)। Ask BeardersBBC Books। পৃষ্ঠা 38–39। আইএসবিএন 978-1-84607-880-4 
  2. Player Profile: Ashley Giles, Cricinfo. Retrieved on 2007-04-16.
  3. "Giles wins honorary citizen award", 27 September 2005, BBC News, Retrieved on 2007-11-30
  4. "Ashely Giles Exclusive Issue Three"। Queens Park Rangers F.C.। ২১ জুলাই ২০০৯। ২০০৯-০৭-০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৮-২১ 
  5. Warwickshire County Cricket Club coaches, www.thebears.co.uk. Retrieved on 2007-11-30
  6. Giles proves his allround worth CricInfo retrieved 5 December 2007
  7. Giles selected for final Ashes Test CricInfo retrieved 5 December 2007
  8. Giles and Batty give England hope CricInfo retrieved 5 December 2007
  9. England name unchanged squad for Windies tour CricInfo retrieved 5 December 2007
  10. Giles succeeds Greatbatch at Warwickshire CricInfo retrieved 5 December 2007
  11. Giles named spin coach for England juniors CricInfo retrieved 5 December 2007
  12. Graveney axed as England selector BBC News retrieved 18 January 2008

আরও দেখুনসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা