ইসমাইল (আরবি: إسماعيل) কুরআন এবং বাইবেলে উল্লেখিত এক ঐতিহাসিক ব্যক্তিত্ব। মুসলমানরা বিশ্বাস করে যে, তিনি একজন নবী, এবং তাঁর সম্মানার্থে তাঁর নামোচ্চারণের সাথে 'আলাইহিসসালাম' (সংক্ষেপে আ.) বা 'শান্তি বর্ষিত হোক' উচ্চারণ করা উচিত। তিনি ইব্রাহিম-এর সর্বপ্রথম সন্তান এবং ইব্রাহিমের স্ত্রী হাজেরার গর্ভে তার জন্ম। বাইবেলের বর্ণনামতে তিনি ১৩৭ বছর বয়সে মৃত্যুবরণ করেন।[১]

ইসমাইল
নবী, কুলপতি, আরব পিতা, কাবার স্থপতি, আরব দূত
জন্মকানান
মৃত্যুআরব উপদ্বীপ
সম্মানিতইহুদি ধর্ম
খ্রিস্ট ধর্ম
ইসলাম
যার দ্বারা প্রভাবিত হয়েছেনইব্রাহিম

বাইবেলে উল্লেখসম্পাদনা

বাইবেলে তাঁর উল্লেখ ইশমায়েল নামে, সেখানে তাঁর পিতার নাম উচ্চারিত হয় 'আব্রাহাম' হিসেবে।

ইসলাম ধর্মে উল্লেখসম্পাদনা

ইসমাঈলের পিতা ইব্রাহীমকে [আ.] ঈশ্বর (আল্লাহ) বলেছিলেন, "তোমার সবচাইতে প্রিয় বস্তু আল্লাহর রাস্তায় কুরবাণী করো"; তখন তিনি একে একে দুম্বা, উট ইত্যাদি কুরবাণী করার পরও যখন দেখলেন আল্লাহর পক্ষ থেকে সেই একই বাণী আসছে, তখন তিনি তাঁর স্বীয় পুত্র ইসমাইলকে কুরবাণী দেওয়ার জন্য সম্পূর্ণ প্রস্তুতি গ্রহণ করলেন, ঠিক তখনই আল্লাহর পক্ষ থেকে দেবদূতের (ফেরেশতার) মাধ্যমে ইব্রাহীমকে পরীক্ষায় উত্তীর্ণ ঘোষণা করলেন এবং পুত্র ইসমাইলের স্থলে দুম্বা শুইয়ে দিলেন, আর তখন থেকেই মুসলমানদের ওপর নির্দিষ্ট নিসাব অনুযায়ী বৎসরে একবার উট, দুম্বা, গরু ইত্যাদি কুরবাণী করা ওয়াজিব হয়ে যায়।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Fredrick E. Greenspahn (২০০৫)। "Ishmael"। Lindsay Jones। Encyclopedia of Religion7। Macmillan Reference USA। পৃষ্ঠা 4551–4552। আইএসবিএন 9780028657400 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা