সিজিয়াম

ক্ষার ধাতু

সিজিয়াম একটি রাসায়নিক উপাদান যার সংকেত Cs এবং পারমাণবিক সংখ্যা ৫৫। এটি একটি নরম রূপালি-স্বর্ণালি ক্ষার ধাতু, যার গলনাঙ্ক ২৮° সে.। এটি ৫ টি ধাতুর একটি ধাতু যা সাধারণ কক্ষ তাপমাত্রায় বা কক্ষ তাপমাত্রার খুব কাছাকাছি তাপমাত্রায় তরল অবস্থায় থাকে। সিজিয়াম একটি ক্ষার ধাতু এবং এটির ভৌত ও রাসায়নিক বৈশিষ্ট্য রুবিডিয়ামপটাশিয়ামের মতই। এটি অত্যন্ত বিক্রিয়াশীল এবং পাইরোফোরিক, এমনকি -১১৬ সে. (-১৭৭ ফা.) তাপমাত্রায়ও এটি পানির সাথে বিক্রিয়া করে। এটি নূন্যতম ইলেক্ট্রোনেগেটিভ উপাদান যার একটি স্থিতিশীল আইসোটোপ রয়েছে এবং তা হল সিজিয়াম-১৩৩

সিজিয়াম   ৫৫Cs
Some silvery-gold metal, with a liquid-like texture and lustre, sealed in a glass ampoule
উচ্চারণ/ˈsziəm/ (SEE-zee-əm)
উপস্থিতিরূপালি স্বর্ণ
আদর্শ পারমাণবিক ভরAr°(Cs)
পর্যায় সারণিতে সিজিয়াম
হাইড্রোজেন হিলিয়াম
লিথিয়াম বেরিলিয়াম বোরন কার্বন নাইট্রোজেন অক্সিজেন ফ্লোরিন নিয়ন
সোডিয়াম ম্যাগনেসিয়াম অ্যালুমিনিয়াম সিলিকন ফসফরাস সালফার ক্লোরিন আর্গন
পটাশিয়াম ক্যালসিয়াম স্ক্যান্ডিয়াম টাইটেনিয়াম ভ্যানাডিয়াম ক্রোমিয়াম ম্যাঙ্গানিজ আয়রন Cobalt Nickel Copper Zinc Gallium Germanium Arsenic Selenium Bromine Krypton
Rubidium Strontium Yttrium Zirconium Niobium Molybdenum Technetium Ruthenium Rhodium Palladium Silver Cadmium Indium Tin Antimony Tellurium Iodine Xenon
Caesium Barium Lanthanum Cerium Praseodymium Neodymium Promethium Samarium Europium Gadolinium Terbium Dysprosium Holmium Erbium Thulium Ytterbium Lutetium Hafnium Tantalum Tungsten Rhenium Osmium Iridium Platinum Gold Mercury (element) Thallium Lead Bismuth Polonium Astatine Radon
Francium Radium Actinium Thorium Protactinium Uranium Neptunium Plutonium Americium Curium Berkelium Californium Einsteinium Fermium Mendelevium Nobelium Lawrencium Rutherfordium Dubnium Seaborgium Bohrium Hassium Meitnerium Darmstadtium Roentgenium Copernicium Nihonium Flerovium Moscovium Livermorium Tennessine Oganesson
Rb

Cs

Fr
জেননসিজিয়ামবেরিয়াম
পারমাণবিক সংখ্যা৫৫
মৌলের শ্রেণীalkali metal
গ্রুপগ্রুপ ১: হাইড্রোজেন এবং ক্ষার ধাতু
পর্যায়পর্যায় ৬
ব্লক  এস-ব্লক
ইলেকট্রন বিন্যাস[Xe] ৬s
প্রতিটি কক্ষপথে ইলেকট্রন সংখ্যা২, ৮, ১৮, ১৮, ৮, ১
ভৌত বৈশিষ্ট্য
দশাsolid
গলনাঙ্ক৩০১.৭ কে ​(২৮.৫ °সে, ​৮৩.৩ °ফা)
স্ফুটনাঙ্ক৯৪৪ K ​(৬৭১ °সে, ​১২৪০ °ফা)
ঘনত্ব (ক.তা.-র কাছে)১.৯৩ g·cm−৩ (০ °সে-এ, ১০১.৩২৫ kPa)
তরলের ঘনত্বm.p.: ১.৮৪৩ g·cm−৩
পরম বিন্দু১৯৩৮ কে, ৯.৪[৩] MPa
ফিউশনের এনথালপি২.০৯ kJ·mol−১
বাষ্পীভবনের এনথালপি৬৩.৯ kJ·mol−১
তাপ ধারকত্ব৩২.২১০ J·mol−১·K−১
বাষ্প চাপ
P (Pa) ১০ ১০০ ১ k ১০ k ১০ k
at T (K) ৪১৮ ৪৬৯ ৫৩৪ ৬২৩ ৭৫০ ৯৪০
পারমাণবিক বৈশিষ্ট্য
জারণ অবস্থা, −১
(দৃঢ় মৌলিক অক্সাইড)
তড়িৎ-চুম্বকত্ব০.৭৯ (পলিং স্কেল)
পারমাণবিক ব্যাসার্ধempirical: ২৬৫ pm
সমযোজী ব্যাসার্ধ২৪৪±১১ pm
ভ্যান ডার ওয়ালস ব্যাসার্ধ343 pm
বিবিধ
কেলাসের গঠনbody-centered cubic (bcc)
Body-centered cubic জন্য কেলাসের গঠন{{{name}}}
তাপীয় প্রসারাঙ্ক৯৭ µm·m−১·K−১ (২৫ °সে-এ)
তাপীয় পরিবাহিতা৩৫.৯ W·m−১·K−১
তড়িৎ রোধকত্ব ও পরিবাহিতা২০ °সে-এ: ২০৫ n Ω·m
চুম্বকত্বparamagnetic[৪]
ইয়ংয়ের গুণাঙ্ক১.৭ GPa
আয়তন গুণাঙ্ক১.৬ GPa
(মোজ) কাঠিন্য০.২
ব্রিনেল কাঠিন্য০.১৪ MPa
ক্যাস নিবন্ধন সংখ্যা7440-46-2
ইতিহাস
আবিষ্কাররবার্ট বুনসেন and গুস্টাফ কিরশফ (১৮৬০)
প্রথম বিচ্ছিন্ন করেনCarl Setterberg (১৮৮২)
সিজিয়ামের আইসোটোপ
প্রধান আইসোটোপ[৫] ক্ষয়
প্রাচুর্যতা অর্ধায়ু (t১/২) মোড পণ্য
১৩১Cs সিন্থ ৯.৭ d ε ১৩১Xe
১৩৩Cs ১০০% স্থিতিশীল
১৩৪Cs সিন্থ ২.০৬৪৮ y ε ১৩৪Xe
β ১৩৪Ba
১৩৫Cs ট্রেস ১.৩৩×১০ y β ১৩৫Ba
১৩৭Cs সিন্থ ৩০.১৭ y[৬] β ১৩৭Ba
বিষয়শ্রেণী বিষয়শ্রেণী: সিজিয়াম
| তথ্যসূত্র
সিজিয়ামের দৃশ্যমান বর্ণালী

১৮৬০ সালে দুই জার্মান রসায়নবিদ, রবার্ট বুনসেন এবং গুস্টাফ কিরশফ, শিখা বর্ণালিবীক্ষণ যন্ত্রের সদ্য উন্নত পদ্ধতির সাহায্যে সিজিয়াম আবিষ্কার করেন। ১৯৬০ সালে, আইনস্টাইন দ্বারা নির্ধারিত আলোর গতি মহাবিশ্বের সবচেয়ে ধ্রুবক মাত্রা এর উপর ভিত্তি করে, আন্তর্জাতিক একক পদ্ধতি সেকেন্ড এবং মিটার কে সহ-সংজ্ঞায়িত করার জন্য সিজিয়াম-১৩৩ এর একটি নির্গমন বর্ণালী থেকে দুটি নির্দিষ্ট ভিন্ন তরঙ্গ গণনা করেন। তখন থেকে পারমাণবিক ঘড়িসমূহে ব্যাপকভাবে সিজিয়াম ব্যবহার করা হয়েছে।

তথ্যসূত্র সম্পাদনা

  1. "Standard Atomic Weights: সিজিয়াম"CIAAW। ২০১৩। 
  2. Prohaska, Thomas; Irrgeher, Johanna; Benefield, Jacqueline; Böhlke, John K.; Chesson, Lesley A.; Coplen, Tyler B.; Ding, Tiping; Dunn, Philip J. H.; Gröning, Manfred; Holden, Norman E.; Meijer, Harro A. J. (২০২২-০৫-০৪)। "Standard atomic weights of the elements 2021 (IUPAC Technical Report)"Pure and Applied Chemistry (ইংরেজি ভাষায়)। আইএসএসএন 1365-3075ডিওআই:10.1515/pac-2019-0603 
  3. হেইন্স, উইলিয়াম এম., সম্পাদক (২০১১)। সিআরসি হ্যান্ডবুক অব কেমিস্ট্রি এন্ড ফিজিক্স [রসায়ন ও পদার্থ বিজ্ঞানের সিআরসি হস্তপুস্তিকা] (ইংরেজি ভাষায়) (৯২তম সংস্করণ)। বোকা রটন, ফ্লোরিডা: সিআরসি প্রেস। পৃষ্ঠা 4.121। আইএসবিএন 1439855110 
  4. "Magnetic susceptibility of the elements and inorganic compounds"। Handbook of Chemistry and Physics (PDF) (87th সংস্করণ)। CRC press। আইএসবিএন 0-8493-0487-3। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৯-২৬ 
  5. কনদেব, এফ.জি.; ওয়াং, এম.; হুয়াং, ডব্লিউ.জে.; নাইমি, এস.; আউডি, জি. (২০২১)। "The NUBASE2020 evaluation of nuclear properties" [পারমাণবিক বৈশিষ্ট্যের নুবেস২০২০ মূল্যায়ন] (পিডিএফ)চাইনিজ ফিজিক্স সি (ইংরেজি ভাষায়)। ৪৫ (৩): ০৩০০০১। ডিওআই:10.1088/1674-1137/abddae 
  6. "NIST Radionuclide Half-Life Measurements"NIST। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-১৩