মারোলস

ওলন্দাজ ভাষার একটি উপভাষা

মারোলস বা ব্রাসেলিয়ার হচ্ছে ওলন্দাজ ভাষার একটি সদ্য বিলুপ্ত উপভাষা যেটি বেলজিয়ামের রাজধানী ব্রাসেলসে প্রচলিত ছিল। ব্রাবানশীয় উপভাষা থেকে উদ্ভুত এই উপভাষাটি ছিল একসময় ব্রাসেলস নগরীতে প্রচলিত প্রধান মৌখিক ভাষা।[১] এই ভাষাটির উপর ভিত্তি করেই বেলজীয় কার্টুনিস্ট অ্যার্জে তাঁর অমর কীর্তি দ্য অ্যাডভেঞ্চার্স অফ টিনটিন (বাংলা: দুঃসাহসী টিনটিন) এর বেশ কিছু কাল্পনিক ভাষা তৈরি করেন।

মারোলস
Brusseleir
দেশোদ্ভববেলজিয়াম, বিশেষত ব্রাসেলস
মাতৃভাষী

ভাষা কোডসমূহ
আইএসও ৬৩৯-৩

ইতিহাসসম্পাদনা

নেদারল্যান্ডস ও বেলজিয়ামে স্পেনীয় শাসনামলে ব্রাবান্ট অঞ্চলের নিম্ন শ্রেণির মানুষের মধ্যে ব্রানানশীয় উপভাষা গড়ে উঠে। ব্রাসেলস নগরে প্রচলিত ব্রাবানশীয়রই একটি শাখাভাষা মারোলস। ১৯শতাব্দীতে ব্রাসেলস বেলজিয়ামের রাজধানীতে পরিণত হয় এবং এর ফলে সারা দেশ থেকে মানুষ কর্মসংস্থানের উদ্দেশ্যে ব্রাসেলসে আসতে থাকে। বহুভাষী ব্রাসেলস শহরে আবার সরকারি কাজে তখন ফরাসি ভাষা প্রচলিত থাকায় মারোলসের যথাযথ মূল্যায়ন হয় নি। ১৯১৪ সাল নাগাদ স্কুলে পড়ুয়া মারোলস-ভাষী শিক্ষার্থীরা পুরোপুরি ফরাসিভাষী হয়ে উঠে। বর্তমানে ভাষাটির কোনো মৌখিক ব্যবহার নেই।[১] মারোলসের বিবর্তনের ধারা ও বিলুপ্তির সঙ্গে বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় প্রচলিত ঢাকাইয়া কুট্টি ভাষাঢাকাইয়া উর্দু সাদৃশ্যপূর্ণ, যদিও এই দুইটি ভাষা এখনো পুরান ঢাকার অধিবাসীদের মধ্যে প্রচলিত আছে।[২][৩]

দ্য অ্যাডভেঞ্চার্স অফ টিনটিনেসম্পাদনা

বেলজীয় কার্টুনিস্ট অ্যার্জে তাঁর বিখ্যাত কমিক্স সিরিজ দ্য অ্যাডভেঞ্চার্স অফ টিনটিন এর জন্য তাঁর দ্বারা সৃষ্ট কাল্পনিক ভাষা সিলদাভীয় ও বর্দুরীয়কে মারোলসের উপর ভিত্তি করে তৈরি করেন।[৪] যেমন: কমিক্সের সিলদাভিয়ার কোট-অফ-আর্মে সিলদাভীয় ভাষায় লিখিত ছিল সিলদাভিয়ার নীতিবাক্য। এতে লেখা ছিল Eih bennek, eih blavek, বাংলাতে: ("আমি এখানে, আমি থাকি এখানে")[৫]। আবার, বর্দুরীয় ভাষায়, বর্দুরীয় শব্দ "mänhir", যার বাংলা অর্থ হতে পারে "জনাব" বা "স্যার", ওলন্দাজ শব্দ mijnheer থেকে আগত।[৬] এছাড়াও কমিক্সে ব্যবহৃত বিভিন্ন স্থানের নামও তিনি মারোলস থেকেই নিয়েছেন। যেমন: টিনটিন কমিক্সে মধ্যপ্রাচ্যতে অবস্থিত একটি কাল্পনিক দেশ খেমেদ এর রাজধানী Khemkhâh নগরীর নাম একটি মারোলস শব্দ, যার অর্থ "আমার শীত লাগছে"[৭]।কমিক্সটির মূল ফরাসি সংস্করণে, আরেকটি কাল্পনিক রাষ্ট্র সান থেওদোরোসে প্রচলিত আদিবাসী ভাষা আরুম্বায়া ভাষাও মারোলসের উপর ভিত্তি করেই তৈরি[৮]

উদাহরণসম্পাদনা

Na mooie ni paaze da'k ee da poèzeke em zitte deklameire / Allien mo vè aile t'amuzeire / Neineie... ik em aile wille demonstreire / Dat as er zain dee uile me konviksen e stuk in uilen uur drinke. / Dat da ni seulement en allien es vè te drinke.

— প্রমিত ওলন্দাজ ভাষায়: Nu moet je niet denken dat ik hier dat gedichtje heb zitten voordragen / Alleen maar om jullie te vermaken / Neenee… ik heb jullie willen tonen / Dat er [mensen] zijn die met overtuiging een stuk in hun kraag drinken. / Dat dat niet louter en alleen is om te drinken.

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Mary Anne Evans, Frommer's Brussels and Bruges Day by Day. First Edition (Hoboken: John Wiley & Sons, 2008), 71.
  2. বণিক, বিজয় কৃষ্ণ (২০১৪)। Kuttis of Bangladesh: Study of a Declining Culture [বাংলাদেশের কুট্টি: একটি ক্রমহ্রাসমান সংস্কৃতির অধ্যয়ন] (PDF) (গবেষণাপত্র)। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় 
  3. "Between two languages: Examining my identity as a Bangladeshi"The Daily Star (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৯-০৩-১৬। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১২-০৪ 
  4. Hergé's Syldavian
  5. দেখুন, দুঃসাহসী টিনটিন:ওটোকারের রাজদণ্ড
  6. দেখুন, দুঃসাহসী টিনটিন:ক্যালকুলাসের কাণ্ড
  7. দেখুন, দুঃসাহসী টিনটিন:কালো সোনার দেশে
  8. দেখুন, দুঃসাহসী টিনটিন:কানভাঙা মূর্তি