প্রধান মেনু খুলুন

অ্যাঙ্গাস ফ্রেজার

ইংরেজ ক্রিকেটার
(Angus Fraser থেকে পুনর্নির্দেশিত)

অ্যাঙ্গাস রবার্ট চার্লস ফ্রেজার, এমবিই (ইংরেজি: Angus Robert Charles Fraser; জন্ম: ৮ আগস্ট, ১৯৬৫) ল্যাঙ্কাশায়ারের উইগান এলাকায় জন্মগ্রহণকারী বিশিষ্ট সাবেক ইংরেজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ও সাংবাদিক। ফেব্রুয়ারি, ২০১৪ সালে ইংল্যান্ড দল নির্বাচক হিসেবে মনোনীত হয়েছিলেন অ্যাঙ্গাস ফ্রেজার[১] ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন। দলে তিনি মূলতঃ বোলার ছিলেন। ডানহাতে ফাস্ট-মিডিয়াম বোলিংয়ের পাশাপাশি ডানহাতে ব্যাটিং করতেন। বর্তমানে তিনি মিডলসেক্স কাউন্টি ক্রিকেট ক্লাবের ক্রিকেট ব্যবস্থাপনা পরিচালকের দায়িত্ব পালন করছেন।[২] ‘গাসি হিটার’ নামাঙ্কিত ব্যাট ব্যবহার করতেন তিনি। ১৯৯৬ সালের উইজডেন সংস্করণে তাকে বর্ষসেরা ক্রিকেটাররূপে ঘোষণা করা হয়।[৩]

অ্যাঙ্গাস ফ্রেজার
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামঅ্যাঙ্গাস রবার্ট চার্লস ফ্রেজার
জন্ম (1965-08-08) ৮ আগস্ট ১৯৬৫ (বয়স ৫৪)
বিলিঞ্জ হায়ার এন্ড, উইগান, ল্যাঙ্কাশায়ার, ইংল্যান্ড
ডাকনামগাস, জিনাট
উচ্চতা৬ ফুট ৬ ইঞ্চি (১.৯৮ মিটার)
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি ফাস্ট-মিডিয়াম
ভূমিকাবোলার, প্রশাসক ও ধারাভাষ্যকার
সম্পর্কঅ্যালাস্টেয়ার ফ্রেজার (ভাই)
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ৫৩৭)
৬ জুলাই ১৯৮৯ বনাম অস্ট্রেলিয়া
শেষ টেস্ট২৬ ডিসেম্বর ১৯৯৮ বনাম অস্ট্রেলিয়া
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ১০৩)
১৫ অক্টোবর ১৯৮৯ বনাম শ্রীলঙ্কা
শেষ ওডিআই২৯ মে ১৯৯৯ বনাম ভারত
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
১৯৮৪-২০০২মিডলসেক্স
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই এফসি এলএ
ম্যাচ সংখ্যা ৪৬ ৪২ ২৯০ ৩৩৬
রানের সংখ্যা ৩৮৮ ১৪১ ২৯৩৪ ৮৬৫
ব্যাটিং গড় ৭.৪৬ ১২.৮১ ১১.১৯ ১১.৬৮
১০০/৫০ –/– –/– –/২ –/–
সর্বোচ্চ রান ৩২ ৩৮* ৯২ ৩৮*
বল করেছে ১০৮৭৬ ২৩৯২ ৫৬২৮১ ১৭১১২
উইকেট ১৭৭ ৪৭ ৮৮৬ ৩৯২
বোলিং গড় ২৭.৩২ ৩০.০৪ ২৭.৪০ ২৬.৪৯
ইনিংসে ৫ উইকেট ১৩ ৩৬
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ৮/৫৩ ৪/২২ ৮/৫৩ ৫/৩২
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৯/– ৫/– ৫৪/– ৫৬/–
উৎস: ক্রিকইনফো, ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৭

প্রারম্ভিক জীবনসম্পাদনা

ল্যাঙ্কাশায়ারের বিলিঞ্জ হায়ার এন্ডে জন্মগ্রহণ করেন।[৪] এরপর লন্ডনের হ্যারো এলাকার গেটন হাইস্কুলে অধ্যয়ণ করেন তিনি। সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে ফ্রেজার ৪৬ টেস্ট ও ৪২ ওডিআইয়ে অংশ নিয়েছেন। ক্রিকেট ধারাভাষ্যকার কলিন ব্যাটম্যান ফ্রেজার সম্পর্কে মন্তব্য করেন যে, বিশ্বস্ত, বুদ্ধিমান ও পরিশ্রমী বোলার ছিলেন।[৪]

ল্যাঙ্কাশায়ারে জন্মগ্রহণ করলেও ১৯৮৪ থেকে ২০০২ সাল পর্যন্ত প্রথম-শ্রেণীর কাউন্টি ক্রিকেটে বৃহত্তর লন্ডনের প্রতিনিধিত্ব করেছেন তিনি। তন্মধ্যে ২০০১ থেকে ২০০২ সালে অবসরের পূর্ব-পর্যন্ত ক্লাবের অধিনায়কের দায়িত্বে ছিলেন।

খেলোয়াড়ী জীবনসম্পাদনা

১৯৯৩-৯৪ মৌসুমে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে স্মরণীয় সাফল্য পান। ব্রিজটাউনের বার্বাডোস টেস্টে স্বাগতিক ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ৮/৭৫ লাভের মাধ্যমে দলকে জয়লাভে সহায়তা করেন। এরফলে অর্ধ-শতকেরও অধিক সময় ব্রিজটাউনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের অপরাজিত থাকার রেকর্ডে ছেদ ঘটে। প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে একই প্রতিপক্ষের বিপক্ষে পোর্ট অব স্পেন টেস্টে সেরা বোলিং পরিসংখ্যান গড়েন। ১৯৯৭-৯৮ মৌসুমে ত্রিনিদাদ ও টোবাগোয় অনুষ্ঠিত ঐ টেস্টে ৮/৫৩ লাভ করলেও ওয়েস্ট ইন্ডিজ জয় পায় ও কার্ল হুপার ম্যান অব দ্য ম্যাচের পুরস্কার লাভ করেন।

ওডিআইয়ে নিজস্ব সর্বোচ্চ অপরাজিত ৩৮* করেন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে। ১০ নম্বরে ব্যাটিংয়ে নেমে স্টিভ ওয়াহ’র বলে বিশাল ছক্কা হাঁকালেও ১৯৯০-৯১ মৌসুমে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়ার কাছে ৩ রানের নাটকীয় পরাজয়ের স্বাদ পায় ইংল্যান্ড দল। ১৯৯৮ সালে সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে চমকপ্রদ ব্যাটিং করেন। ওল্ড ট্রাফোর্ডে অনুষ্ঠিত টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে শেষ উইকেটে রবার্ট ক্রফটের সাথে জুটি গড়ে খেলাটিকে ড্রয়ের দিকে নিয়ে যান।

অবসরসম্পাদনা

২০০২ সালে ক্রিকেট খেলা থেকে অবসর নেয়ার পর ২০০৯ সাল পর্যন্ত ‘দি ইন্ডিপেন্ডেন্ট’ সংবাদপত্রে ক্রিকেট সংবাদদাতা হিসেবে কাজ করেন। পরবর্তীতে মিডলসেক্স ক্লাবের নতুন সৃষ্টপদ ক্রিকেট ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে নিয়োগপ্রাপ্ত হন। এছাড়াও নিয়মিতভাবে বিবিসি‘র টেস্ট ম্যাচ স্পেশালে ও স্কাই স্পোর্টসে ক্রিকেট পণ্ডিতের ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়ে থাকেন তিনি।

বর্তমানে তিনি পিনার এলাকায় ‘আলেকজান্ডার’ এবং ‘বেথান’ নামীয় দুই সন্তান ও স্ত্রী সহযোগে বসবাস করছেন। ২০০৮ সালে জন লায়ন স্কুলের অনূর্ধ্ব-১৫ মিডলসেক্স স্কুলস অ্যাসোসিয়েশন কাউন্টি কাপে প্রথমবারের মতো ব্যবস্থাপকীয় ভূমিকায় অবতীর্ণ হন। ঐ বিদ্যালয়েই তার সন্তান অধ্যয়ণ করে। বর্তমানে অ্যাঙ্গাস মিডলসেক্স কাউন্টি ক্রিকেট ক্লাবের ক্রিকেট পরিচালক ও ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের প্রধান নির্বাচকের দায়িত্ব পালন করছেন।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "BBC Sport - Angus Fraser: England selector role for Middlesex chief" (ইংরেজি ভাষায়)। Bbc.co.uk। ২০১৪-০২-১২। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৮-০৭ 
  2. Barrett, Chris (১৮ আগস্ট ২০১৩)। "Robson's pledge to English cricket complicates home calling"Sydney Morning Herald (ইংরেজি ভাষায়)। 
  3. "Wisden Cricketers of the Year" (ইংরেজি ভাষায়)। CricketArchive। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০২-২১ 
  4. Bateman, Colin (১৯৯৩)। If The Cap Fits (ইংরেজি ভাষায়)। Tony Williams Publications। পৃষ্ঠা 70। আইএসবিএন 1-869833-21-X 

আরও দেখুনসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা