২০১৯-২০ ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের দক্ষিণ আফ্রিকা সফর

ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল চারটি টেস্ট ক্রিকেট, তিনটি একদিনের আন্তর্জাতিক এবং তিনটি টুয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক খেলার জন্য দক্ষিণ আফ্রিকা সফর করে, যা ডিসেম্বর ২০১৯ থেকে ফেব্রুয়ারি ২০২০-এ অনুষ্ঠিত হয়।

২০১৯-২০ ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের দক্ষিণ আফ্রিকা সফর
Flag of South Africa.svg
দক্ষিণ আফ্রিকা
Flag of England.svg
ইংল্যান্ড
তারিখ ১৭ ডিসেম্বর ২০১৯ – ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০
অধিনায়ক ফাফ দু প্লেসিস (টেস্ট)
কুইন্টন ডি কক (ওডিআই ও টি২০আই)
জো রুট (টেস্ট)
ইয়ন মর্গ্যান (ওডিআই ও টি২০আই)
টেস্ট সিরিজ
ফলাফল ৪ ম্যাচের সিরিজে ইংল্যান্ড ২–১ ব্যবধানে জয়ী হয়
সর্বাধিক রান কুইন্টন ডি কক (৩৮০) ডম শিবলি (৩২৪)
সর্বাধিক উইকেট এনরিখ নর্জে (১৮) স্টুয়ার্ট ব্রড (১৪)
সিরিজ সেরা বেন স্টোকস (ইংল্যান্ড)
একদিনের আন্তর্জাতিক সিরিজ
ফলাফল ৩ ম্যাচের সিরিজ ১–১ ব্যবধানে ড্র হয়
সর্বাধিক রান কুইন্টন ডি কক (১৮৭) জো ডেনলি (১৫৩)
সর্বাধিক উইকেট বিউরেন হেনড্রিক্স (৪)
তাব্রাইজ শামসী (৪)
আদিল রশিদ (৩)
সিরিজ সেরা কুইন্টন ডি কক (দক্ষিণ আফ্রিকা)
টোয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক সিরিজ
ফলাফল ৩ ম্যাচের সিরিজে ইংল্যান্ড ২–১ ব্যবধানে জয়ী হয়
সর্বাধিক রান কুইন্টন ডি কক (১৩১) ইয়ন মর্গ্যান (১৩৬)
সর্বাধিক উইকেট লুঙ্গি এনগিডি (৮) টম কারেন (৫)
সিরিজ সেরা ইয়ন মর্গ্যান (ইংল্যান্ড)

দলীয় সদস্যসম্পাদনা

টেস্ট ওডিআই টি২০আই
  দক্ষিণ আফ্রিকা   ইংল্যান্ড   দক্ষিণ আফ্রিকা   ইংল্যান্ড   দক্ষিণ আফ্রিকা   ইংল্যান্ড

প্রস্তুতিমূলক খেলাসম্পাদনা

তিনদিনের ম্যাচ: ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রণমূলক একাদশ বনাম ইংল্যান্ডসম্পাদনা

১৭–১৮ ডিসেম্বর ২০১৯
৩০৯/৪ঘো (৯০ ওভার)
জো রুট ৭২* (৮৬)
দিয়েগো রোজিয়ার ১/১৫ (৫ ওভার)
২৮৯ (৬৮ ওভার)
জ্যাক স্নিমান ৭৯ (৭৮)
ক্রিস উকস ৩/৪৮ (১১ ওভার)
খেলা ড্র
উইলোমুর পার্ক, বেনোনি
আম্পায়ার: মাজিজি গাম্পু (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও সিফিলি গাসা (দক্ষিণ আফ্রিকা)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।

তিনদিনের ম্যাচ: দক্ষিণ আফ্রিকা এ বনাম ইংল্যান্ডসম্পাদনা

২০–২২ ডিসেম্বর ২০১৯
৪৫৬/৭ঘো (১০৯.৩ ওভার)
অলি পোপ ১৩২ (১৪৫)
অ্যান্ডিল ফেহলাকওয়াইও ৩/৫৫ (১৫.৩ ওভার)
৩২৫/৫ (৯৩.২ ওভার)
কেগান পিটারসেন ১১১ (২৪০)
জেমস অ্যান্ডারসন ৩/৪১ (১৯ ওভার)
খেলা ড্র
উইলোমুর পার্ক, বেনোনি
আম্পায়ার: স্টিফেন হ্যারিস (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও ব্র্যাড হোয়াইট (দক্ষিণ আফ্রিকা)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।

একদিনের ম্যাচ: ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রণমূলক একাদশ বনাম ইংল্যান্ডসম্পাদনা

৩১ জানুয়ারি ২০২০
১০:০০
ইংল্যান্ড  
২৪০ (৪৪.১ ওভার)
জেসন রয় ১০১ (৯৯)
স্টেফান টইট ২/৩২ (৮ ওভার)
জ্যাক স্নিমান ৬৫ (৬৭)
টম কারেন ২/১৭ (৬ ওভার)
ইংল্যান্ড ৭৭ রানে জয়ী
বোল্যান্ড পার্ক, পার্ল
আম্পায়ার: শন জর্জ (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও আলাহুদ্দেইন পালেকের (দক্ষিণ আফ্রিকা)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।

একদিনের ম্যাচ: ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রণমূলক একাদশ বনাম ইংল্যান্ডসম্পাদনা

১ ফেব্রুয়ারি ২০২০
১০:০০
ইংল্যান্ড  
৩৪৬/৭ (৫০ ওভার)
জনি বেয়ারস্টো ১০০* (৮৩)
স্টেফান টইট ৪/৫৬ (১০ ওভার)
ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রণমূলক ৪ উইকেটে জয়ী (ডি/এল)
বোল্যান্ড পার্ক, পার্ল
আম্পায়ার: শন জর্জ (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও আলাহুদ্দেইন পালেকের (দক্ষিণ আফ্রিকা)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।
  • ম্যাচটি ৩০ ওভারের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকায় ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রণমূলক একাদশের টার্গেটটি ১৮৮ এ সমন্বিত হয়েছিল।

টেস্ট সিরিজসম্পাদনা

১ম টেস্টসম্পাদনা

২৬–৩০ ডিসেম্বর ২০১৯
২৮৪ (৮৪.৩ ওভার)
কুইন্টন ডি কক ৯৫ (১২৮)
স্টুয়ার্ট ব্রড ৪/৫৮ (১৮.৩ ওভার)
১৮১ (৫৩.২ ওভার)
জো ডেনলি ৫০ (১১১)
ভার্নন ফিল্যান্ডার ৪/১৬ (১৪.২ ওভার)
২৭২ (৬১.৪ ওভার)
রাসি ফন ডার ডাসেন ৫১ (৬৭)
জোফ্রা আর্চার ৫/১০২ (১৭ ওভার)
২৬৮ (৯৩ ওভার)
রোরি বার্নস ৮৪ (১৫৪)
কাগিসো রাবাদা ৪/১০৩ (২৪ ওভার)
দক্ষিণ আফ্রিকা ১০৭ রানে জয়ী
সেঞ্চুরিয়ন পার্ক, সেঞ্চুরিয়ন
আম্পায়ার: ক্রিস গফানি (নিউজিল্যান্ড) ও পল রেইফেল (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: কুইন্টন ডি কক (দক্ষিণ আফ্রিকা)

২য় টেস্টসম্পাদনা

৩–৭ জানুয়ারি ২০২০
২৬৯ (৯১.৫ ওভার)
অলি পোপ ৬১* (১৪৪)
কাগিসো রাবাদা ৩/৬৮ (১৯.৫ ওভার)
২২৩ (৮৯ ওভার)
ডিন এলগার ৮৮ (১৮০)
জেমস অ্যান্ডারসন ৫/৪০ (১৯ ওভার)
৩৯১/৮ঘো (১১১ ওভার)
ডম শিবলি ১৩৩* (৩১১)
এনরিখ নর্জে ৩/৬১ (১৮ ওভার)
২৪৮ (১৩৭.৪ ওভার)
পিটার মালান ৮৪ (২৮৮)
বেন স্টোকস ৩/৩৫ (২৩.৪ ওভার)
ইংল্যান্ড ১৮৯ রানে জয়ী
নিউল্যান্ডস ক্রিকেট গ্রাউন্ড, কেপ টাউন
আম্পায়ার: কুমার ধর্মসেনা (শ্রীলঙ্কা) ও পল রেইফেল (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: বেন স্টোকস (ইংল্যান্ড)

৩য় টেস্টসম্পাদনা

১৬–২০ জানুয়ারি ২০২০
৪৯৯/৯ঘো (১৫২ ওভার)
অলি পোপ ১৩৫* (২২৬)
কেশব মহারাজ ৫/১৮০ (৫৮ ওভার)
২০৯ (৮৬.৪ ওভার)
কুইন্টন ডি কক ৬৩ (১৩৯)
ডম বেস ৫/৫১ (৩১ ওভার)
২৩৭ (৮৮.৫ ওভার) (f/o)
কেশব মহারাজ ৭১ (১০৬)
জো রুট ৪/৮৭ (২৯ ওভার)
ইংল্যান্ড একটি ইনিংস এবং ৫৩ রানে দ্বারা জয়ী
সেন্ট জর্জেস ওভাল, পোর্ট এলিজাবেথ
আম্পায়ার: ব্রুস অক্সেনফোর্ড (অস্ট্রেলিয়া) ও রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: অলি পোপ (ইংল্যান্ড)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।
  • ডেন প্যাটারসন (দক্ষিণ আফ্রিকা) তার টেস্ট অভিষেক হয়।
  • এটি বিদেশে খেলা ইংল্যান্ডের ৫০০তম টেস্ট ম্যাচ ছিল।
  • বেন স্টোকস (ইংল্যান্ড) টেস্টে তার ৪,০০০ তম রান করেছেন।
  • অলি পোপ (ইংল্যান্ড) তার প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরি করেছিলেন।
  • ডম বেস (ইংল্যান্ড) টেস্ট ক্রিকেটে তার প্রথম পাঁচ-উইকেট লাভ করেন।
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশীপ পয়েন্ট: ইংল্যান্ড ৩০, দক্ষিণ আফ্রিকা ০।

৪র্থ টেস্টসম্পাদনা

২৪–২৮ জানুয়ারি ২০২০
৪০০ (৯৮.২ ওভার)
জাক ক্রোলি ৬৬ (১১২)
এনরিখ নর্জে ৫/১১০ (২৪ ওভার)
১৮৩ (৬৮.৩ ওভার)
কুইন্টন ডি কক ৭৬ (১১৬)
মার্ক উড ৫/৪৬ (১৪.৩ ওভার)
২৪৮ (৬১.৩ ওভার)
জো রুট ৫৮ (৯৬)
বিউরেন হেনড্রিক্স ৫/৬৪ (১৫.৩ ওভার)
২৭৪ (৭৭.১ ওভার)
রাসি ফন ডার ডাসেন ৯৮ (১৩৮)
মার্ক উড ৪/৫৪ (১৬.১ ওভার)
ইংল্যান্ড ১৯১ রানে জয়ী
ওয়ান্ডারার্স স্টেডিয়াম, জোহানেসবার্গ
আম্পায়ার: রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া) ও জোয়েল উইলসন (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)
ম্যাচসেরা: মার্ক উড (ইংল্যান্ড)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।
  • বিউরেন হেনড্রিক্স (দক্ষিণ আফ্রিকা) তার টেস্ট অভিষেক হয়, গ্রহণ করা পাঁচ-উইকেট প্রাপ্তি
  • এনরিখ নর্জে (দক্ষিণ আফ্রিকা) টেস্ট ক্রিকেটে তার প্রথম পাঁচ-উইকেট লাভ করেন।
  • কুইন্টন ডি কক (দক্ষিণ আফ্রিকা) টেস্টে ২০০ (৪৭) উইকেট শিকারী হয়ে ম্যাচের দিক থেকে দ্রুততম উইকেটরক্ষক হয়েছিলেন।
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশীপ পয়েন্ট: ইংল্যান্ড ৩০, দক্ষিণ আফ্রিকা ০।

ওডিআই সিরিজসম্পাদনা

১ম ওডিআইসম্পাদনা

৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০
১৩:৩০ (দিন/রাত)
দক্ষিণ আফ্রিকা  
২৫৮/৮ (৫০ ওভার)
  ইংল্যান্ড
২৫৯/৩ (৪৭.৭ ওভার)
জো ডেনলি ৮৭ (১০৩)
তাব্রাইজ শামসী ৩/৩৮ (১০ ওভার)
কুইন্টন ডি কক ১০৭ (১৩৩)
ক্রিস জর্দান ১/৩১ (৫ ওভার)
দক্ষিণ আফ্রিকা ৭ উইকেটে জয়ী
নিউল্যান্ডস ক্রিকেট গ্রাউন্ড, কেপ টাউন
আম্পায়ার: গ্রিগোরি ব্রেদওয়েট (ওয়েস্ট ইন্ডিজ) ও শন জর্জ (দক্ষিণ আফ্রিকা)

২য় ওডিআইসম্পাদনা

৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০
১৩:৩০ (দিন/রাত)
দক্ষিণ আফ্রিকা  
৭১/২ (১১.২ ওভার)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।
  • দক্ষিণ আফ্রিকার ইনিংসের সময় বৃষ্টি আর কোনও খেলা বাধা দেয়নি।
  • বিয়র্ন ফরটুইন (দক্ষিণ আফ্রিকা) তার ওডিআই অভিষেক হয়।

৩য় ওডিআইসম্পাদনা

৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০
১০:০০
দক্ষিণ আফ্রিকা  
২৫৬/৭ (৫০ ওভার)
  ইংল্যান্ড
২৫৭/৮ (৪৩.২ ওভার)
ডেভিড মিলার ৬৯* (৫৩)
আদিল রশিদ ২/৫১ (১০ ওভার)
জো ডেনলি ৬৬ (৭৯)
বিউরেন হেনড্রিক্স ৩/৫৯ (১০ ওভার)
ইংল্যান্ড ২ উইকেটে জয়ী
ওয়ান্ডারার্স স্টেডিয়াম, জোহানেসবার্গ
আম্পায়ার: গ্রিগোরি ব্রেদওয়েট (ওয়েস্ট ইন্ডিজ) ও শন জর্জ (দক্ষিণ আফ্রিকা)
ম্যাচসেরা: আদিল রশিদ (ইংল্যান্ড)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।
  • সাকিব মাহমুদ (ইংল্যান্ড) তার ওডিআই অভিষেক হয়।
  • আদিল রশিদ (ইংল্যান্ড) তার ১০০তম ওয়ানডে খেলেছে।

টি২০আই সিরিজসম্পাদনা

১ম টি২০আইসম্পাদনা

১২ ফেব্রুয়ারি ২০২০
১৮:০০ (রাত)
দক্ষিণ আফ্রিকা  
১৭৭/৮ (২০ ওভার)
  ইংল্যান্ড
১৭৬/৯ (২০ ওভার)
জেসন রয় ৭০ (৩৮)
লুঙ্গি এনগিডি ৩/৩০ (৪ ওভার)
দক্ষিণ আফ্রিকা ১ রানে জয়ী
বাফেলো পার্ক, পূর্ব লন্ডন
আম্পায়ার: আদ্রিয়ান হোল্ডস্টক (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও বঙ্গানি জেলে (দক্ষিণ আফ্রিকা)
ম্যাচসেরা: লুঙ্গি এনগিডি (দক্ষিণ আফ্রিকা)

২য় টি২০আইসম্পাদনা

১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০
১৮:০০ (রাত)
ইংল্যান্ড  
২০৪/৭ (২০ ওভার)
  দক্ষিণ আফ্রিকা
২০২/৭ (২০ ওভার)
বেন স্টোকস ৪৭* (৩০)
লুঙ্গি এনগিডি ৩/৪৮ (৪ ওভার)
কুইন্টন ডি কক ৬৫ (২২)
ক্রিস জর্দান ২/৩১ (৪ ওভার)
ইংল্যান্ড ২ রানে জয়ী
কিংসমিড ক্রিকেট গ্রাউন্ড, ডারবান
আম্পায়ার: বঙ্গানি জেলে (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও আলাহুদ্দেইন পালেকের (দক্ষিণ আফ্রিকা)
ম্যাচসেরা: মঈন আলী (ইংল্যান্ড)
  • দক্ষিণ আফ্রিকা টসে জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।
  • কুইন্টন ডি কক দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে টি-টোয়েন্টিতে (১৭ বল) দ্রুততম পঞ্চাশ রানের রেকর্ডটি নিজের।

৩য় টি২০আইসম্পাদনা

১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০
১৪:৩০
দক্ষিণ আফ্রিকা  
২২/৬ (২০ ওভার)
  ইংল্যান্ড
২২৬/৫ (১৯.১ ওভার)
হেইনরিখ ক্লাসেন ৬৬ (৩৩)
টম কারেন ২/৩৩ (৪ ওভার)
ইংল্যান্ড ৫ উইকেটে জয়ী
সেঞ্চুরিয়ন পার্ক, সেঞ্চুরিয়ন
আম্পায়ার: আদ্রিয়ান হোল্ডস্টক (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও আলাহুদ্দেইন পালেকের (দক্ষিণ আফ্রিকা)
ম্যাচসেরা: ইয়ন মর্গ্যান (ইংল্যান্ড)
  • দক্ষিণ আফ্রিকা টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।
  • ইয়ন মর্গ্যান ইংল্যান্ডের হয়ে টি-টোয়েন্টিতে (২১ বল) দ্রুততম পঞ্চাশ রানের রেকর্ডটি নিজের।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা