প্রধান মেনু খুলুন

হালাল

ইসলামিক আইনানুযায়ী ব্যবহারযোগ্য বা ভক্ষণযোগ্য বস্তু বা খাবার

হালাল (আরবি: حلال‎‎, 'অনুমোদনযোগ্য') মানে হল যে কোনো বস্তুর বা কর্ম যেটা ইসলামী আইন অনুযায়ী ব্যবহার বা নিয়োজিত করা যাবে। হালাল শব্দটি খাদ্য-পানীয়-র সাথে দৈনন্দিন জীবনের সব বিষয়টাও বোঝায় ও মনোনীত করে।[১] এটি ৫টি আহকাম-র মধ্যে ১টি — ফরজ (আবশ্যিক), মুস্তাহাব (প্রস্তাবিত), হালাল (অনুমোদনযোগ্য), মাকরুহ (অপছন্দ), হারাম (নিষিদ্ধ) — ইসলামে মানুষের কর্ম নৈতিকতা নির্ধারণ করে। ইসলাম ধর্মে মুবাহ-ও "অনুমোদনযোগ্য" বা "অনুমোদিত" অর্থ বোঝায়।

খাদ্যসম্পাদনা

খাদ্যগুলো যেটি হালাল হতে পারে না (কুরআন অনুযায়ী):

  • শুয়োরের মাংস[২]
  • রক্ত[৩]
  • নেশাদ্রব্য ও মদ[৪]
  • পশু বা পাখি ভুলভাবে মারলে অথবা পশু বা মারার সময় আল্লাহর নাম উচ্চারণ না হলে।[৫]
  • মৃত পশু বা পাখি (ক্ষীয়মাণ, তবে মৃত মাছ খাওয়া জায়েজ)[২]

কোনো হালাল উপলব্ধ না হলে অনুমতিসম্পাদনা

যখন হারাম খাবার খাওয়া ছাড়া বেচে থাকা সম্ভব নয়, তখন জীবিত থাকার জন্যে হালাল নয় এমন খাদ্য গ্রহণ করার অনুমতি আছে।[২][৬]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. কোরআন ৭:১৫৭
  2. কুরআন ২:১৭৩
  3. কুরআন ৫:৩
  4. কুরআন ৫:৯০
  5. কুরআন ৬:১২১
  6. সহীহ বুখারী ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ৩ এপ্রিল ২০১৫ তারিখে, সহীহ বুখারী, অধ্যায়ঃ ০২, পর্বঃ ঈমান, হাদিস নাম্বারঃ ৫০