রাসুল

(রাসূল থেকে পুনর্নির্দেশিত)

ইসলাম ধর্মে, রাসুল (আরবি: رسول রাসুল্‌ “বার্তাবাহক”, বহুবচন রুসুল) হলেন আল্লাহ্‌ প্রেরিত বার্তাবাহী ব্যক্তিত্ব। রাসুল বলতে তাদেরকেই বোঝানো হয় যারা আল্লাহ্‌র কাছ থেকে কিতাব বা পুস্তক প্রাপ্ত হয়েছেন। হাদিস সহ অন্যান্য ইসলামী বইয়ে এক লক্ষ চব্বিশ হাজার মতান্তরে দুই লক্ষ চব্বিশ হাজার নবির কথা বলা হয়েছে। এদের মাঝে সকলে কিতাব প্রাপ্ত হয় নি। যারা কিতাব প্রাপ্ত হয়েছেন তারাই শুধু রাসুলের খেতাব পেয়েছেন। অর্থাৎ সকল রাসুলই নবি কিন্তু সকল নবি রাসুল নয়। কোরআন অনুযায়ী, আল্লাহ্‌ মানবজাতির নিকট বহু নবি রাসুল (আনবিয়া, একবচন নাবী) প্রেরণ করেছেন।

ইসলামের কিছু প্রধান নবী

আমি তোমাকে সত্যসহ প্রেরণ করেছি সুসংবাদ দাতা ও সতর্ককারী রূপে; এমন কোন সম্প্রদায় নেই যার নিকট সতর্ককারী প্রেরিত হয়নি।

— অনুবাদ মুজিবুর রহমান "কুরআন ২:২৫৬" 

তাদের মধ্যে পঁচিশ জনের নাম কোরআনে উল্লেখ আছে (ইসলামের প্রেরিতপুরুষগণ দেখুন)। কুরআন তাদের চার জনকে রাসুল হিসাবে উল্লেখ করে: দাউদ (আলাইহিস সালাম) , মুসা (আলাইহিস সালাম), ঈসা (আলাইহিস সালাম) এবং মুহাম্মাদ (সঃ)[১]

ইসলাম ধর্ম অনুসারে সকল নবি ও রাসুলের মাঝে শ্রেষ্ঠ রাসুল বলে ধরা হয় মুহাম্মাদ কে। এবং ইসলাম ধর্ম অনুসারে তিনিই শেষ নবি। তার পরে আর কোনো নবি আসবে না।

শব্দ ব্যবহারসম্পাদনা

কিছু মুসলিম আলেম মূল ইসলামী আরবী শব্দ "রাসূল" (رسول)-এর ব্যবহারকে অধিক উৎসাহিত করে থাকেন, যুক্তি হিসেবে তারা বলেন, রাসূল শব্দটি কুরআনে ব্যবহৃত হয়েছে, তাই শব্দটি বলার সময় প্রতি হরফে দশ নেকি করে ৩ হরফে মোট ৩০ নেকি সাওয়াব পাওয়া যাবে, যা পয়গম্বর বা অন্যান্য অ-কুরআনীয় প্রতিশব্দ উচ্চারণে পাওয়া যাবে না। কুরআনীয় শব্দ বলায় প্রতি হরফে দশ নেকির ক্ষেত্রে তারা ইসলামী নবী মুহাম্মদের উক্ত হাদীসটি পেশ করেন,

রাসূল (সা.) বলেছেন,

مَنْ ‌قَرَأَ ‌حَرْفًا ‌مِنْ ‌كِتَابِ ‌اللَّهِ ‌فَلَهُ ‌بِهِ ‌حَسَنَةٌ، وَالحَسَنَةُ بِعَشْرِ أَمْثَالِهَا، لَا أَقُولُ الم حَرْفٌ، وَلَكِنْ أَلِفٌ حَرْفٌ وَلَامٌ حَرْفٌ وَمِيمٌ حَرْفٌ

‘আল্লাহ তাআলার কিতাবের একটি হরফ যে ব্যক্তি পাঠ করবে তার জন্য এর সওয়াব আছে। আর সওয়াব হয় তার দশ গুণ হিসেবে। আমি বলি না যে, আলিফ-লাম-মীম একটি হরফ, বরং আলিফ একটি হরফ, লাম একটি হরফ এবং মীম একটি হরফ।’

— [সুনানে তিরমিযি, হাদিস: ২৯১০]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "University of Southern California Compendium of Muslim Texts"। ২০০৭-০১-০১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৭-০১-০৩  Authors list-এ |প্রথমাংশ1= এর |শেষাংশ1= নেই (সাহায্য)


বহিঃসংযোগসম্পাদনা