হৃদয় খান (জন্ম: ১৮ জানুয়ারি ১৯৯০) একজন বাংলাদেশী গায়ক এবং সুরকার।[১] তার প্রথম এলবাম "হৃদয় মিক্স" প্রকাশিত হয় ২০০৮ সালে।[২][৩][৪] তিনি বাংলাদেশের সুরকার।[৫]

হৃদয় খান
জন্ম (1990-01-18) ১৮ জানুয়ারি ১৯৯০ (বয়স ৩০)
ঢাকা, বাংলাদেশ
উদ্ভবঢাকা
ধরনচলচ্চিত্র স্কোর, টেকনো, ফিউসন, পপ
পেশাসুরকার, গায়ক, রেকর্ড প্রযোজক
বাদ্যযন্ত্রসমূহকি বোর্ড, কন্ঠ, গীটার
কার্যকাল২০০৮–বর্তমান

জন্ম ও পরিচয়সম্পাদনা

হৃদয় খান ১৯৯০ সালের ১৮ জানুয়ারি ঢাকায় জন্মগ্রহণ করেন।[৬] পরিবারে দুই ভাই ও এক বোনের মাঝে হৃদয় বড়।ছোট ভাই প্রত্যয় খান একজন গায়ক,সুরকার ও সংগীত পরিচালক।[৭] ছোট বোন রাইজা দ্বিতীয় শ্রেণিতে পড়ছে। মা শেফালী খান ও তার বাবা রিপন খান, যিনি বাংলাদেশের "জিঙ্গেল কিং" নামে পরিচিত। তার দাদা মইনুল ইসলাম খান একজন সঙ্গীতশিল্পী এবং সঙ্গীত প্রশিক্ষক ছিলেন।[৮]

সংগীত জীবনসম্পাদনা

হৃদয় খানের গান গাওয়া কিংবা কম্পোজিশনের শুরু কিশোর বয়সে। তার দাদা ছিলেন গানের ওস্তাদ। বসার ঘরে ছেলেমেয়েদের তিনি নিয়মিত গান শেখাতেন। সেই পথ ধরে বাবা রিপন খানও হলেন নামকরা সঙ্গীতশিল্পী।[৯] লিটল জুয়েলস স্কুলেই তার পড়াশোনার হাতেখড়ি। ২০০৮ সালে লেজার ভিশন থেকে 'হৃদয় মিক্স' বাজারে আসে। সেই অ্যালবামের কয়েকটি গান তাতে দ্রুত জনপ্রিয় বানিয়ে দেয়। এর পরে তার আরও কয়েকটি অ্যালবাম বের হয়।

ব্যক্তিগত জীবনসম্পাদনা

ছোট বেলা থেকেই হৃদয় খানের ক্রিকেটার হওয়ার প্রবল আগ্রহ ছিল। কিন্তু তিনি তার দাদা এবং বাবার পদাঙ্ক অনুসরণ করে সঙ্গীতেই মনোনিবেশ করেন। হৃদয় খান ২০১০ সালে জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী সুজানা জাফর এর প্রেমে পরেন। প্রায় তিন বছর প্রেম করার পর ২০১৪ সালের ১ আগস্ট দুজনে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন । কিন্তু বিয়ের মাত্র আট মাসের মধ্যে দাম্পত্য কলহের জের ধরে ৬ এপ্রিল ২০১৫ সালে একে অপরের থেকে বিচ্ছেদ হয়ে যান।[১০] এর আগে ২০১০ সালের শুরুর দিকে পূর্ণিমা আকতার নামের একটি মেয়েকে বিয়ে করেছিলেন হৃদয় খান। কিন্তু মাত্র ছয় মাসের মাথায় হৃদয় খানের সেই সংসার ভেঙে যায় [১১]।বর্তমানে হোমায়রা নামে একটি মেয়েকে বিয়ের মাধ্যমে ৩য় নম্বর বিয়েটা সম্পাদন করেন।

ডিস্কোগ্রাফিসম্পাদনা

বছর শিরোনাম
২০০৮ হৃদয় মিক্স
২০০৯ বল না
২০১০ হৃদয় মিক্স ২
২০১১ ছোঁয়া
২০১৩ হৃদয় মিক্স ৩
২০১৪ ভালো লাগে না[১২]

সিনেমা’র গানের এলবাম

পুরস্কার ও মনোনয়নসম্পাদনা

বছর পুরস্কার বিভাগ মনোনীত কর্ম ফলাফল সূত্র
২০১৯ ভারত-বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পুরস্কার শ্রেষ্ঠ সঙ্গীত পরিচালক যদি একদিন বিজয়ী [১৪]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Singing Sensation: Hridoy Khan"। ১৯ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০১৩ 
  2. "Hridoy Khan's Chho(n)a releases on 25 March"। ১৯ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০১৩ 
  3. "Hridoy Khan on Banglavision"। ১৯ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  4. "Hridoy Khan Biography"। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০১৩ 
  5. "300 singers to face Hridoy Khan in June"। priyo.com। ১৯ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০১৩ 
  6. "Singer Hridoy Khan live"। Thedailystar.net। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০১৩ 
  7. "সংগীতাঙ্গনে নতুন মুখ প্রত্যয় খান"। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৮-২৫ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  8. "Hridoy Khan Musical Background"। bebo.com। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০১৩ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  9. "হৃদয় বৃত্তান্ত"। ৫ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৫ এপ্রিল ২০১৫ 
  10. "ঘর ভাঙল হৃদয়:-সুজানার"Prothom Alo। এপ্রিল ৭, ২০১৫। 
  11. "আট মাসেই ভেঙে গেলো হৃদয়-সুজানার সংসার" 
  12. "প্রোফাইলঃ হৃদয় খান"। lyricsbd.com। ৩ সেপ্টেম্বর ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০১৩ 
  13. "Hridoy Khan Discography"। লাস্ট এফএম। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুলাই ২০১৩ 
  14. "প্রথম ভারত-বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পুরস্কারের মঞ্চে ঢাকায় চাঁদের হাট, পেলেন কারা? দেখে নিন..."এইসময়। ২২ অক্টোবর ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ২২ অক্টোবর ২০১৯