হন্ডুরাস

মধ্য আমেরিকার একটি প্রজাতান্ত্রিক রাষ্ট্র

হন্ডুরাস (স্পেনীয় ভাষায় Honduras ওন্দুরাস্‌) মধ্য আমেরিকার একটি প্রজাতান্ত্রিক রাষ্ট্র। হন্ডুরাস প্রজাতন্ত্রের পশ্চিমে গুয়াতেমালা, দক্ষিণ-পশ্চিমে এল সালভাদোর, দক্ষিণ-পূর্বে নিকারাগুয়া, দক্ষিণে ফনসেকা উপসাগরে প্রশান্ত মহাসাগর এবং উত্তরে হন্ডুরাস উপসাগরের সীমানা রয়েছে, ক্যারিবিয়ান সাগরের খাঁড়ি। এর রাজধানীর নাম তেগুসিগালপা

প্রজাতন্ত্রী হন্ডুরাস

República de Honduras
রেপুব্লিকা দে ওন্দুরাস্‌
হন্ডুরাসের জাতীয় পতাকা
পতাকা
হন্ডুরাসের জাতীয় মর্যাদাবাহী নকশা
জাতীয় মর্যাদাবাহী নকশা
নীতিবাক্য: "Libre, Soberana e Independiente"  (Spanish)
"Free, Sovereign and Independent"

"মুক্ত, সার্বভৌম ও স্বাধীন"
জাতীয় সঙ্গীত: Himno Nacional de Honduras
হন্ডুরাসের জাতীয় সঙ্গীত
হন্ডুরাসের অবস্থান
রাজধানীতেগুসিগালপা
বৃহত্তম নগরীcapital
সরকারি ভাষাস্পেনীয়
জাতীয়তাসূচক বিশেষণHonduran
সরকারDemocratic constitutional republic
• President
Juan Orlando Hernández
Independence
• from Spain
15 September 1821
• from the UPCA
1838
আয়তন
• মোট
১,১২,৪৯২ কিমি (৪৩,৪৩৩ মা) (102nd)
জনসংখ্যা
• September 2007 আনুমানিক
7483763² (96th)
• 2000 আদমশুমারি
6,975,204
• ঘনত্ব
৬৪ /কিমি (১৬৫.৮ /বর্গমাইল) (128th)
জিডিপি (পিপিপি)2018 আনুমানিক
• মোট
$49.010 billion[১] (104th)
• মাথাপিছু
$5,817[১] (133rd)
জিডিপি (মনোনীত)2018 আনুমানিক
• মোট
$23.835 billion[১] (108th)
• মাথাপিছু
$2,829[১] (128th)
জিনি (2018)নেতিবাচক বৃদ্ধি 52.1[২]
উচ্চ
মানব উন্নয়ন সূচক (2019)বৃদ্ধি 0.632[৩]
মধ্যম · 133rd
মুদ্রাLempira (HNL)
সময় অঞ্চলইউটিসি-6 (CST)
কলিং কোড504
ইন্টারনেট টিএলডি.hn
  1. "libre, soberana, e independiente" is the official motto, the congress order to put it on the coat of arms. The unofficial motto "NO PASARÁN" or "They shall not pass" became popular during the 1969 war with El Salvador. This is an allusion to the El Salvador's stated goal to reach the Honduran Caribbean coast during their offensive.
  2. note: estimates for this country explicitly take into account the effects of excess mortality due to AIDS; this can result in lower life expectancy, higher infant mortality and death rates, lower population and growth rates, and changes in the distribution of population by age and sex than would otherwise be expected (July 2007 est.)

ষোড়শ শতাব্দীতে স্প্যানিশ উপনিবেশের আগে হন্ডুরাস বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ মেসোআমেরিকান সংস্কৃতির আবাসস্থল ছিল, বিশেষ করে মায়া সভ্যতার। স্প্যানিশরা ক্যাথলিক ধর্ম এবং এখন প্রধান স্পেনীয় ভাষা প্রবর্তন করে, সাথে অসংখ্য রীতিনীতি যা আদিবাসী সংস্কৃতির সাথে মিশে গেছে। হন্ডুরাস ১৮২১ সালে স্বাধীন হয়েছিল এবং তখন থেকে একটি প্রজাতন্ত্র হয়েছে, যদিও এটি ধারাবাহিকভাবে অনেক সামাজিক দ্বন্দ্ব এবং রাজনৈতিক অস্থিতিশীলতা সহ্য করেছে এবং পশ্চিম গোলার্ধের অন্যতম দরিদ্র দেশ হিসেবে রয়ে গেছে। ১৯৬০ সালে, আন্তর্জাতিক ন্যায়বিচার আদালতের দ্বারা মসকুইটো উপকূলের উত্তর অংশ, নিকারাগুয়া থেকে হন্ডুরাসে স্থানান্তরিত হয়েছিল।[৪]

ইতিহাসসম্পাদনা

মধ্য আমেরিকার একটি দেশ এটি ।ইতিপূর্বে এটিকে স্প্যানিশ হন্ডুরাস বলা হতো ।কারণ ,ব্রিটিশ হন্ডুরাস নামের আরেকটি দেশ ছিলো ।সেটি এখন বেলিজের একটি অংশ। স্পেনের কাছ থেকে ১৮২১ সালে এই ছোট্ট দেশটি স্বাধীনতা লাভ করে ।

প্রাচীন যুগে দেশটি Mesoamerican cultural area এর অংশ ছিলো। এরপর ,মধ্য আমেরিকাতে মায়া জাতির আধিপত্য তৈরি হয়। মায়ানরা হন্ডুরাসের পশ্চিম অংশে বাস করতো । তারা 'চরতি' নামে পরিচিত ছিলো। ১৫০২ সালে প্রথম ইউরোপীয় হিসেবে কলম্বাস হন্ডুরাসে আসেন। পরবর্তীতে ,Hernan Cortes এর নেতৃত্বে ১৫২৪ স্পানিশরা হন্ডুরাস দখল শুরু করে। পরবর্তী তিনশ শতাব্দী স্পানিশরাই তাদের শাসন করে। ১৮২১ সালে দেশটি স্বাধীন হবার পর United Provinces of Central America এ যোগ দেয় । ১৮৩৮ এ তারা এখান থেকে বের হয়ে সম্পূর্ণ স্বাধীন রাস্ট্র হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে। ১৮৮০ সালে Comayagua থেকে তেগুচিগালাপায় হন্ডুরাসের রাজধানী স্হানান্তর করা হয়। স্বাধীনতার পর এদেশে ৩০০ এর মতো বিদ্রোহ হয় এবং ফলাফল হিসেবে বেশ কয়েকবার ক্ষমতায় পরিবর্তন আসে। ১৮৮৮ সালে এদেশে প্রথম রেলপথ নির্মিত হয়। ১৯ শতকের শেষ দিকে এদেশে আমেরিকানরা আসে। তারা ফল ভিত্তিক বিশেষত কলা ভিত্তিক শিল্প গড়ে তোলে। ২য় বিশ্বযুদ্ধে পার্লহারবারে আক্রমণের পর হন্ডুরাস যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষে যোগ দেয়। ১৯৬৯ সালে হন্ডুরাসের সাথে এলসালভেদরের যুদ্ধ হয় ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে যা ফুটবল ওয়ার নামে পরিচিত। ৮০ এর দশকে এদেশ জাতিসংঘ শান্তি রক্ষা মিশনে সর্বোচ্চ সেনা পাঠানোর গৌরব অর্জন করে। ১৯৯৮ সালে দেশটির ৭০% অবকাঠামো হারিকেন মিচের আঘাতে ধ্বংস হয়ে যায়। একুশ শতকের প্রথম থেকেই দেশটি দূর্যোগের দেশ হিসেবে পরিচিত হয়।

রাজনীতিসম্পাদনা

হন্ডুরাসে ৫ টি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দল রয়েছে । এগুলো হলো ন্যাশনাল পার্টি ,লিবারেল পার্টি ,সোশাল ডেমোক্রেটিক পার্টি ,সোশাল ক্রিশ্চিয়ান পার্টি ,ডেমোক্রেটিক ইউনিফিকেশান । ১৯৭৯গণতন্ত্র চালু হবার পর ন্যাশনাল এবং লিবারেল পার্টি যুগ যুগ ধরে দেশটিকে শাসন করে এসেছে ।

প্রশাসনিক অঞ্চলসমূহসম্পাদনা

এদেশের প্রশাসনিক অঞ্চলগুলো হলো 1. Atlántida 2. Choluteca 3. Colón 4. Comayagua 5. Copán 6. Cortés 7. El Paraíso 8. Francisco Morazán 9. Gracias a Dios 10. Intibucá 11. Islas de la Bahía 12. La Paz 13. Lempira 14. Ocotepeque 15. Olancho 16. Santa Bárbara 17. Valle 18. Yoro

ভূগোলসম্পাদনা

 
হন্ডুরাসের কোপেন জলবায়ুর ধরন

মধ্য আমেরিকার দেশ হন্ডুরাসের উত্তরে ক্যারিবিয়ান সাগরনিকারাগুয়া । পূর্বে গুয়াতেমালা ,দক্ষিণ পূর্বে এল সালভাদর অবস্হিত

অর্থনীতিসম্পাদনা

হন্ডুরাস একটি পুঁজিবাদী অর্থনীতির দেশ ।দেশটি অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ধীরগতির তবে বিগত কয়েকবছর এ দেশটির প্রবৃদ্ধি ৭% ছিলো যা ল্যাটিন আমেরিকায় সর্বোচ্চ ।তারপরো ,দেশটির জনসংখ্যার প্রায় অর্ধেকই (৩৭ লক্ষ) দারিদ্র সীমার নিচে বাস করে ।

এদেশে ১২ লক্ষ মানুষ বেকার ।বেকারত্বের হার ২৭% !

এটি ল্যাটিন আমেরিকার গরিব দেশগুলোর তালিকায় ৬ষ্ঠ অবস্হানে আছে ।

বিশ্বব্যাংক ও আইএমএফ এর মতে এটি বিশ্বের সবচেয়ে ঝণগ্রস্ত দেশের একটি ।

এদেশের বেশির ভাগ খনিজ সম্পদের মালিক বহুজাতিক কোম্পানী গুলো ।

এককথায় ,দেশটির অর্থনীতি অত্যন্ত ভঙ্গুর

জনসংখ্যাসম্পাদনা

২০১০ এর হিসাবে ৮,২৪৯,৫৭৪ জন ( বিশ্বে ৯৪তম)

সংস্কৃতিসম্পাদনা

হন্ডুরাসের খ্যাতিমান চিত্রকরদের একজন হোসে এন্টনিও ভেলাসকুয়েস ।

হন্ডুরান সাহিত্যিকদের মধ্যে লুসিলা গেমেরো দে মেদিনা, ফ্রয়লান তুরসিওস, রামন আমায়া আমাদোর, জুয়ান পাবলো সুয়াজো ইউসেদা, মার্কো আন্তোনিও রোসা, রবার্তো সোসা, এডুয়ার্ডো বাহর, আমান্ডা কাস্ত্রো, জাভিয়ের অ্যাব্রিল এস্পিনোজা, তেফিলো ট্রেজো, রবার্তো কুয়েসাদা উল্লেখযোগ্য।

তাদের সংগীত শিল্পীদের মধ্যে রাফায়েল কোয়েলো রামোস, লিডিয়া হ্যান্ডাল, ভিক্টোরিয়ানো লোপেজ, গুইলারমো অ্যান্ডারসন, ভিক্টর ডোনায়ার, মাতিল্ডে কোয়ান, ময়েসেস ক্যানেলো, জুলিও কোয়ান ফ্রান্সিসকো ক্যারাঞ্জা, ক্যামিলো রিভেরা গুয়েভারা, হেক্টর ডেভিড, জাভিয়ের রেয়েস, নরমা ইরাজো, সার্জিও সুয়াজো, সার্জিও সুয়াজো, সান্তোস, ওয়াল্টেরিও গালদামেজ, ফার্নান্দো রাউডালেস প্রমুখ উল্লেখযোগ্য।

হন্ডুরাসের ৯৪% মানুষের প্রধান ভাষা স্প্যানিশ। বাকি ৬% মানুষ আর্মেডিয়ান ভাষায় কথা বলে । তাছাড়া স্থানীয় কিছু উপভাষাও আছে।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "World Economic Outlook Database, October 2018"IMF.orgInternational Monetary Fund। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০১৯ 
  2. "Gini Index coefficient"। CIA World Factbook। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০২১ 
  3. Human Development Report 2020 The Next Frontier: Human Development and the Anthropocene (PDF)। United Nations Development Programme। ১৫ ডিসেম্বর ২০২০। পৃষ্ঠা 343–346। আইএসবিএন 978-92-1-126442-5। সংগ্রহের তারিখ ১৬ ডিসেম্বর ২০২০ 
  4. "Mosquito Coast"Encyclopædia Britannica। Britannica Concise Encyclopedia। ২৯ সেপ্টেম্বর ২০০৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ আগস্ট ২০০৭ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা