শাই হোপ

ওয়েস্ট ইন্ডিয়ান ক্রিকেটার

শাই দিয়েগো হোপ (জন্ম: ১০ নভেম্বর, ১৯৯৩) বার্বাডোসে জন্মগ্রহণকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজের উদীয়মান ক্রিকেটার[১] ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য তিনি। দলে তিনি মূলতঃ উইকেট-রক্ষণের দায়িত্ব পালন করে থাকেন ও সচরাচর তিন নম্বরে ব্যাটিং করে থাকেন শাই হোপ। ঘরোয়া ক্রিকেটে বার্বাডোসের পক্ষে খেলছেন। গত মৌসুমে প্রতিযোগিতার একমাত্র দ্বি-শতক হাঁকিয়ে সংশ্লিষ্টদের নজর কাড়েন।[২]

শাই হোপ
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামশাই দিয়েগো হোপ
জন্ম (1993-11-10) ১০ নভেম্বর ১৯৯৩ (বয়স ২৬)
বার্বাডোস
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
ভূমিকাউইকেট-রক্ষক
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ 302)
01 May 2015 বনাম [জাতীয় ক্রিকেট দল|https://bn.m.wikipedia.org/wiki/%E0%A6%87%E0%A6%82%E0%A6%B2%E0%A7%8D%E0%A6%AF%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A7%8D%E0%A6%A1_%E0%A6%8F%E0%A6%AC%E0%A6%82_%E0%A6%93%E0%A6%AF%E0%A6%BC%E0%A7%87%E0%A6%B2%E0%A6%B8_%E0%A6%95%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%BF%E0%A6%95%E0%A7%87%E0%A6%9F_%E0%A6%AC%E0%A7%8B%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%A1]
শেষ টেস্ট24 July 2020 v https://bn.m.wikipedia.org/wiki/%E0%A6%87%E0%A6%82%E0%A6%B2%E0%A7%8D%E0%A6%AF%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A7%8D%E0%A6%A1_%E0%A6%8F%E0%A6%AC%E0%A6%82_%E0%A6%93%E0%A6%AF%E0%A6%BC%E0%A7%87%E0%A6%B2%E0%A6%B8_%E0%A6%95%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%BF%E0%A6%95%E0%A7%87%E0%A6%9F_%E0%A6%AC%E0%A7%8B%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%A1 2020 বনাম [জাতীয় ক্রিকেট দল|https://bn.m.wikipedia.org/wiki/%E0%A6%87%E0%A6%82%E0%A6%B2%E0%A7%8D%E0%A6%AF%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A7%8D%E0%A6%A1_%E0%A6%8F%E0%A6%AC%E0%A6%82_%E0%A6%93%E0%A6%AF%E0%A6%BC%E0%A7%87%E0%A6%B2%E0%A6%B8_%E0%A6%95%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%BF%E0%A6%95%E0%A7%87%E0%A6%9F_%E0%A6%AC%E0%A7%8B%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%A1]
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা এফসি এলএ টুয়েন্টি২০
ম্যাচ সংখ্যা ১৪
রানের সংখ্যা ৭২৪ ৮৪ ৩৭
ব্যাটিং গড় ৩৪.৪৭ ৪২.০০ ৩৭.০০
১০০/৫০ ২/৩ ০/১ ০/০
সর্বোচ্চ রান ২১১ ৫৮ ৩৭
বল করেছে ১২
উইকেট -
বোলিং গড় -
ইনিংসে ৫ উইকেট -
ম্যাচে ১০ উইকেট -
সেরা বোলিং -
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ১৪/০ ১/০ ০/১
উৎস: ESPN Cricinfo, ১৯ এপ্রিল ২০১৫

খেলোয়াড়ী জীবনসম্পাদনা

২০১৪-১৫ মৌসুমে সফরকারী ইংল্যান্ড দলের বিপক্ষে খেলার জন্য টেস্ট দলের সদস্য মনোনীত হন।[৩] অতঃপর ১ মে, ২০১৫ তারিখে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তার টেস্ট অভিষেক ঘটে।[৪] কিন্তু ১ম ইনিংসে অ্যান্ডারসনের বলে মাত্র ৫ রানে কুকের হাতে গ্লাভস বন্দী হন।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

আরও দেখুনসম্পাদনা