মিট্‌জি গেনর

মার্কিন অভিনেত্রী

মিট্‌জি গেনর (ইংরেজি: Mitzi Gaynor; জন্ম: ফ্রান্সেস্কা মার্লেনে দে চানিই ফন গার্বার, ৪ সেপ্টেম্বর, ১৯৩১)[১] হলেন একজন মার্কিন অভিনেত্রী, গায়িকা ও নৃত্যশিল্পী। তিনি দেয়ার্স নো বিজনেস লাইক শো বিজনেস (১৯৫৪), দ্য বার্ডস অ্যান্ড দ্য বিস (১৯৫৬) ও সাউথ প্যাসিফিক (১৯৫৮) চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য প্রসিদ্ধি অর্জন করেন। ১৯৫৮ সালে রজার্স ও হ্যামারস্টেইনের সঙ্গীতনাট্যের চলচ্চিত্রায়ন সাউথ প্যাসিফিক-এ অভিনয় করে তিনি সেরা সঙ্গীতধর্মী বা হাস্যরসাত্মক চলচ্চিত্র অভিনেত্রী বিভাগে গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।

মিট্‌জি গেনর
Studio publicity Mitzi Gaynor.jpg
আনু. ১৯৫৪ সালে প্রচারণামূলক চিত্রে গেনর
জন্ম
ফ্রান্সেস্কা মার্লেনে দে চানিই ফন গার্বার

(1931-09-04) ৪ সেপ্টেম্বর ১৯৩১ (বয়স ৯০)
পেশাঅভিনেত্রী, নৃত্যশিল্পী
কর্মজীবন১৯৪৯-বর্তমান
দাম্পত্য সঙ্গীজ্যাক বিন (বি. ১৯৫৪; মৃ. ২০০৬)
ওয়েবসাইটwww.missmitzigaynor.com

প্রারম্ভিক জীবনসম্পাদনা

গেনর ১৯৩১ সালের ৪ঠা সেপ্টেম্বর ইলিনয় অঙ্গরাজ্যের শিকাগো শহরে জন্মগ্রহণ করেন। তার জন্মনাম ফ্রান্সেস্কা মার্লেনে ডা চানিই ফন গার্বার। তার পিতা হেনরি ফন গার্বার একজন বেহালাবাদক, সেলবাদক ও সঙ্গীত পরিচালক এবং তার মাতা পলিন একজন নৃত্যশিল্পী।[২][৩] তার পিতার দ্বিতীয় বিবাহের ফলে তিনি যুদ্ধ-বিরোধী সমাজকর্মী ডোনাল্ড ডব্লিউ. ডানকানের সৎ বোন।[৪]

যখন তার ৩ বছর বয়স তখন তার পরিবার প্রথম ইলিনয়ের এলজিনে চলে যান। পরে তারা ডেট্রয়েট এবং যখন তার ১১ বছর বয়স তখন হলিউড শহরে চলে যায়।[৫] তিনি শৈশবে ব্যালেরিনা হিসেবে তালিম নেন এবং দলীয় নৃত্যশিল্পী হিসেবে তার কর্মজীবন শুরু করেন।

কর্মজীবনসম্পাদনা

গেনর ১৭ বছর বয়সে টুয়েন্টিয়েথ সেঞ্চুরি ফক্সের সাথে সাত বছরের জন্য চুক্তিবদ্ধ হন। তিনি একাধিক সঙ্গীতধর্মী চলচ্চিত্র গান, অভিনয় ও নৃত্য পরিবেশন করেন, এবং প্রায়ই সে সময়ের বড় বড় তারকা অভিনেতাদের বিপরীতে কাজ করেন। ফক্সে থাকাকালীন গেনরের সবচেয়ে জনপ্রিয় চলচ্চিত্র ছিল দেয়ার্স নো বিজনেস লাইক শো বিজনেস (১৯৫৪)। এই চলচ্চিত্রের প্রচ্ছদে ইথেল মারম্যান, ড্যান ডেইলি, ম্যারিলিন মনরো, ডোনাল্ড ওকনরজনি রের পর তার নাম অন্তর্ভুক্ত ছিল।

তার সবচেয়ে বেশি আন্তর্জাতিক পরিচিতি আসে ১৯৫৮ সালে রজার্স ও হ্যামারস্টেইনের সঙ্গীতনাট্যের চলচ্চিত্রায়ন সাউথ প্যাসিফিক (১৯৫৮) চলচ্চিত্রে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে। এতে তিনি এনসাইন নেলি ফরবুশ চরিত্রে অভিনয় করে সেরা সঙ্গীতধর্মী বা হাস্যরসাত্মক চলচ্চিত্র অভিনেত্রী বিভাগে গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।

চলচ্চিত্রের তালিকাসম্পাদনা

বছর শিরোনাম চরিত্র
১৯৫০ মাই ব্লু হেভেন গ্লোরিয়া অ্যাডামস
১৯৫১ টেক কেয়ার অব মাই লিটল গার্ল অ্যাডিলেড সোয়ানসন
গোল্ডেন গার্ল লটা ক্র্যাবট্রি
১৯৫২ উই'আর নট ম্যারিড! প্যাট্রিশিয়া "প্যাটসি" রেনল্ডস ফিশার
ব্লাডহাউন্ডস অব ব্রডওয়ে এমিলি অ্যান স্ট্যাকার্লি
১৯৫৩ দি আই ডোন্ট কেয়ার গার্ল ইভা টাঙ্গুয়াই
ডাউন অ্যামং দ্য শেল্টারিং পামস রোজুইলা
১৯৫৪ থ্রি ইয়াং টেক্সান্স রাস্টি ব্লেয়ার
দেয়ার্স নো বিজনেস লাইক শো বিজনেস ক্যাটি ডোনাহু
১৯৫৬ অ্যানিথিং গোজ প্যাটসি ব্লেয়ার
দ্য বার্ডস অ্যান্ড দ্য বিস জিন হ্যারিস
১৯৫৭ দ্য জোকার ইজ ওয়াইল্ড মার্থা স্টুয়ার্ট
লে গার্লস জোঅ্যান 'জয়' হেন্ডারসন
১৯৫৮ সাউথ প্যাসিফিক এনসাইন নেলি ফরবুশ, ইউএসএন
১৯৫৯ হ্যাপি অ্যানিভার্সারি অ্যালিস ওয়াল্টার্স (গান্স)
১৯৬০ সারপ্রাইজ প্যাকেজ গ্যাবি রজার্স
১৯৬৩ ফর লাভ অর মানি কেট ব্র্যাশার

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Mitzi Gaynor"বায়োগ্রাফি (ইংরেজি ভাষায়)। ২৩ মার্চ ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ 
  2. ম্যাকম্যানাস, মার্গারেট (১২ অক্টোবর, ১৯৬৯), "Presenting Francesca Mitzi", দ্য মিলওয়াউকি জার্নাল
  3. Motion Picture, ম্যাকফেডেন-বার্টেল, ১৯৫২, পৃ. ৮৬।
  4. ম্যাকফেডেন, রবার্ট ডি. (৭ মে ২০১৬)। "Donald W. Duncan, 79, Ex-Green Beret and Early Critic of Vietnam War, Is Dead"দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮His stepfather’s daughter, Frances (Donald’s stepsister), became the actress Mitzi Gaynor. 
  5. গিয়ার, ড্যান (১৯ মার্চ ২০১৩)। "Mitzi Gaynor: Superstar, one-time Elgin girl"ডেইলি হেরাল্ড (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা