প্রধান মেনু খুলুন

বামন পুরাণ অষ্টাদশ হিন্দুপুরাণের অন্যতম এবং একটি গুরুত্বপূর্ণ হিন্দু ধর্মগ্রন্থ। এই পুরাণ বিষ্ণুর বামন অবতারের প্রতি উৎসর্গিত। বামণ পুরাণ–এ অবশ্য বিষ্ণু ও শিব উভয় দেবতাকেই বন্দনা করা হয়েছে। অধিকাংশ পুরাণের মতো বামন পুরাণ–এও দশটি বৈশিষ্ট্য লক্ষিত হয়।[১] এগুলি হল: সর্গ, বিসর্গ, স্থান, পোষণ, উতি, বৃত্তি, রক্ষ, মন্বন্তর, বংশ ও উপাশ্রয়। সর্গের উপজীব্য বিশ্বসৃষ্টির কাহিনি। বিসর্গ থেকে জানা যায় কিভাবে বিভিন্ন জীব একটি প্রজাতি থেকে অপর প্রজাতিতে বিবর্তিত হয়। স্থান, পোষণ, উতি ও বৃত্তি মানব-উদ্বর্তনের বিভিন্ন প্রয়াসের বিবরণী। রক্ষ অংশ থেকে জানা যায় কিভাবে বিষ্ণু বিশ্বরক্ষার উদ্দেশ্যে নানা অবতার গ্রহণ করে মর্ত্যে অবতীর্ণ হন। মন্বন্তর অংশে মন্বন্তর অর্থাৎ মনুর রাজত্বকালের সম্পূর্ণ ইতিহাস বর্ণিত হয়েছে। বংশ অংশে ব্রহ্মা সহ রাজাদের বংশবৃত্তান্ত বর্ণিত হয়েছে। উপাশ্রয় থেকে ব্রহ্মের প্রকৃত অর্থের কথা জানা যায়।

বামন পুরাণ–এর মুদ্রিত সংস্করণে মোট ৯৬টি অধ্যায় রয়েছে। প্রথম অধ্যায়ের সূচনায় দেখা যায়, নারদ পুলস্থ্যকে বিষ্ণুর বামন অবতারের কথা জিজ্ঞাসা করছেন। ৩৪-৪২ অধ্যায়ে কুরুক্ষেত্র অঞ্চলের তীর্থ, নদী ও বনের বিস্তারিত বিবরণ পাওয়া যায়।

টীকাসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  • Mani, Vettam. Puranic Encyclopedia. 1st English ed. New Delhi: Motilal Banarsidass, 1975.

বহিঃসংযোগসম্পাদনা