ঘানি (চলচ্চিত্র)

চলচ্চিত্র

ঘানি ২০০৬ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত বাংলাদেশী বাংলা ভাষার চলচ্চিত্র[১] ছায়াছবিটি পরিচালনা করেছেন খ্যাতনামা পরিচালক কাজী মোরশেদ। চলচ্চিত্রটিতে প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন রাইসুল ইসলাম আসাদ, মাসুম আজিজ, আরমান পারভেজ মুরাদ, নাজনীন হাসান চুমকি, ডলি জহুর প্রমুখ। চলচ্চিত্রটি ২০০৮ সালে প্রদত্ত জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের ১২ টি শাখায় পুরস্কার অর্জন করে।[২]

ঘানি
থিয়েটারে মুক্তি পাওয়া পোস্টার
পরিচালককাজী মোরশেদ
প্রযোজককাজী মোরশেদ
রচয়িতাকাজী মোরশেদ
চিত্রনাট্যকারকাজী মোরশেদ
শ্রেষ্ঠাংশেরাইসুল ইসলাম আসাদ
মাসুম আজিজ
আরমান পারভেজ মুরাদ
নাজনীন হাসান চুমকি
ডলি জহুর
সুরকারশেখ সাদী খান
চিত্রগ্রাহকহাসান আহমেদ
সম্পাদকসাইফুল ইসলাম
পরিবেশককোরাস ফিল্মস
মুক্তি২০০৬
স্থিতিকাল১০৯ মিনিট
দেশবাংলাদেশ
ভাষাবাংলা ভাষা

কাহিনি সংক্ষেপ

সম্পাদনা

আফসু ও শামসু দুই ভাই কলুর কাজ করে দিনযাপন করে। আফসু বয়সের কারণে এ কাজ ছেড়ে দেয় আর তার ছেলে কুদ্দুস ঢাকা চলে যায় কাজের সন্ধানে। কিন্তু শামসু পারিবারিক ঐতিহ্যে ধারক এই কাজ ধরে রাখে। তার কাজে সহায়তা করে তার পুত্র বজলু। ঢাকায় ভালো কোন কাজ না পেয়ে বাড়ি চলে আসতে চায় কুদ্দুস। কিন্তু হরতালে বোমার আঘাতে মৃত্যু হয় তার। তার মৃত দেহ দেখে শোকে কাতর হয়ে যায় তার বাবা।

এরই মধ্যে ময়নাকে বিয়ে করে ঘরে আনে বজলু। আনন্দ-দুঃখে তাদের দিন কাটতে থাকে। কিছুদিন পর তাদের কলুর বলদ চুরি হয়ে যায়। উপায় না দেখে শামসু ময়নাকে দিয়ে ঘানি টানাতে বাধ্য হয়। এতে ক্ষিপ্ত বজলু বলদ আনতে গিয়ে না পেরে চুরি করতে গিয়ে হাতে নাতে ধরা পড়ে এবং বেধড়ক মার খায়। অবশেষে সে নিজেই শুরু করে ঘানি টানা। স্বামীর কষ্ট দেখে তার পাশে দাড়ায় স্ত্রী ময়না।

কুশীলব

সম্পাদনা

সঙ্গীত

সম্পাদনা

ঘানি চলচ্চিত্রের সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন শেখ সাদী খান

পুরস্কার

সম্পাদনা
পুরস্কার বিভাগ বিজয়ী/মনোনীত ফলাফল
জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার[২] শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র কাজী মোরশেদ (প্রযোজক) বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ পরিচালক কাজী মোরশেদ বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ অভিনেতা আরমান পারভেজ মুরাদ বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী নাজনীন হাসান চুমকি বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেতা মাসুম আজিজরাইসুল ইসলাম আসাদ বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রী ডলি জহুর বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ সঙ্গীত পরিচালক শেখ সাদী খান বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ কাহিনিকার কাজী মোরশেদ বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ চিত্রনাট্যকার কাজী মোরশেদ বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ সংলাপ রচয়িতা কাজী মোরশেদ বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ চিত্রগ্রাহক হাসান আহমেদ বিজয়ী
শ্রেষ্ঠ চিত্রসম্পাদক সাইফুল ইসলাম বিজয়ী

আরও দেখুন

সম্পাদনা

তথ্যসূত্র

সম্পাদনা
  1. ফাহমিদুল হক (আগস্ট ১৪, ২০১৩)। "সমকালীন বাংলাদেশের চলচ্চিত্র"দৈনিক প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ২৮ মার্চ ২০১৬ 
  2. "National Film Awards for the last fours years announced"দ্য ডেইলি স্টার। ২৯ জানুয়ারি ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ মার্চ ২০১৬ 

বহিঃসংযোগ

সম্পাদনা