ইলাথালম, বা এলাথালম হল একটি ধাতব বাদ্যযন্ত্র যেটি একটি ক্ষুদ্রকায় করতাল যুগলের সাথে সাদৃশ্যপূর্ণ। দক্ষিণে ভারতের কেরল এবং তামিলনাড়ু থেকে আসা এই বাদ্যযন্ত্রটি সম্পূর্ণরূপে ব্রোঞ্জ থেকে তৈরি এবং এতে দুটি একইরকম অংশ রয়েছে। এতে যে দুটি গোল চাকতি থাকে তাদের ব্যাসার্ধ ১৫ - ২০ সেমি। এর বাইরের পৃষ্ঠের উপর হাতল লাগানো থাকে।[১] এটি কথাকলি নৃত্যে ব্যবহৃত অন্যতম একটি বাদ্যযন্ত্র।[২] বাম হাতে করতালের একটি অংশ রেখে, করতালের অন্য অংশটি দিয়ে তাতে আঘাত করে ইলাথালম বাজানো হয়। যদিও এই যন্ত্রটি আকারে ছোট, এর ঘনত্ব সাধারণ করতালের চেয়ে বেশি হয়। এটি কোনও ঐকতান বাদ্যে নেতৃত্ব না দিলেও, ইলাথালম দ্বারা উৎপাদিত শব্দটি অনন্য। এতে একটি বিশেষ ধরনের ধ্বনি ওঠে।[৩] ভারতে ইলাথালমের অসংখ্য উল্লেখযোগ্য সম্মানিত গুরু রয়েছেন, যাঁদের প্রতিভা প্রশংসিত।

একজন শিল্পী ইলাথালম ব্যবহার করছেন

ব্যবহারসম্পাদনা

ইলাথালম কখনই ঐকতানের মূল বাদ্য উপকরণ নয় তবে সহায়ক বাদ্যযন্ত্র হিসেবে এটি বেশ কয়েকটি জাতিগত কেরল ঘাতবাদ্য ঐকতান সঙ্গীতে ব্যবহৃত হয়, যেমন পঞ্চবাদ্যম, চেন্দা মেলাম, থায়াম্বাকা এবং কাইলায়া বাথিয়ামকথাকলি নৃত্যে এর সাথে কুঝাল পাট্টু এবং কোম্বু পাট্টু বাজানো হয়।[১]

ইলাথালমের গুরুগণসম্পাদনা

বর্তমান সময়ের শীর্ষস্থানীয় ইলাথালম গুরুগণ হলেন: চেরিয়াথ থাঙ্কু মারার, চেল্লক্কর উন্নিকৃষ্ণান, মণিয়াম্পারাম্বিল মণি, কোথাচিরা সেখরন নায়ার, চেঙ্গামানাড় পরমু নায়ার, পল্লভুর রাঘব পিশারোদি, চেল্লকরা জয়ান, পুকোত্তুর সসিধরন (এশিয়াড স্যাসি), গুরুবায়ুর ভেলুত্তি এবং পেরুভানম মুরলি, অজিত মারার, পাঞ্জাল ভেলুকুট্টি, ভেনু ভরঙ্গনাম, হরি থালানাডু, আজাকাম অজয়ন, মণি কেনুর।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Elathalam"। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০২১ 
  2. "Elathalam"। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০২১ 
  3. "Elathalam"। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০২১ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]

আরও দেখুনসম্পাদনা