অভ্যন্তরীণ চক্রপথ, চেন্নাই

চেন্নাইতে অবস্থিত অভ্যন্তরীণ চক্রপথ-এর রয়েছে একাধিক নাম, এগুলি হল ইনার রিং রোড, জওহরলাল নেহেরু সালাই, ১০০ ফিট রোড বা রাজ্য সড়ক ২। চেন্নাই শহরকে অভ্যন্তরীণভাবে পরিবেষ্টিত করে থাকায় এটি শহরের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ পরিবহন পথ। বর্তমানে এই চক্রপথ চেন্নাই নগরোন্নয়ন কর্তৃপক্ষ বা সিএমডিএ দ্বারা রক্ষণাবেক্ষণ ও উন্নয়নমূলক কাজ করা হয়। ২৫.২ কিলোমিটার দীর্ঘ এই রাস্তাটির তিনটি খণ্ড রয়েছে, উত্তরাংশ কেন্দ্রীয় অংশ এবং দক্ষিণাংশ। এই সড়কের ওপর ‌তিরুবান্মিয়ুরে‌ রাজীব গান্ধী সালাই যুক্ত হয়েছে, যা ৪৯ ক নং রাজ্য সড়ক নামে পরিচিত। ছাড়াও রয়েছে বেলাচেরি মূশ সড়ক, গ্র্যান্ড সাদার্ন ট্রাঙ্ক রোড, কাতিপারা জংশন, কোয়মবেড়ু জংশন, পাড়ি জংশন, মাধবরম বাইপাস জংশন, টিপিপি রোড ইত্যাদি আরো কিছু গুরুত্বপূর্ণ সড়ক ও জংশন৷[১]

রাজ্য সড়ক ২
পথের তথ্য
দৈর্ঘ্য২৫.২ কিমি (১৫.৭ মা)
প্রধান সংযোগস্থল
উত্তর প্রান্ত:মানালিতে রাজ্য সড়ক ৫৬
প্রধান সংযোগস্থলমাধবরমে রাজ্য সড়ক ১১১
মঞ্জমবক্কমে ১৬ নং জাতীয় সড়কের লাঙ্করোড
পাড়ি জংশনে চেন্নাই-তিরুভেলুর মহাসড়ক
তিরুমঙ্গলমের নিকট রাজ্য সড়ক ১১২
কোয়মবেড়ু জংশন
বড়পালনিতে ১১৩ নং রাজ্য সড়ক
কাতিপারা জংশনে ৩২ নং জাতীয় সড়ক
দক্ষিণ প্রান্ত:তিরুবান্মিয়ুরে রাজীব গান্ধী সালাই
মহাসড়ক ব্যবস্থা

কোরিডরের বিবরণ

সম্পাদনা

চেন্নাই অভ্যন্তরীণ চক্রপথ হলো তিনটি অংশ বিশিষ্ট ৬ লেনের সড়ক৷ সড়কটির উত্তরাংশ পাড়ি জংশন থেকে উত্তর-পূর্বে মানালির নিকট ৫৬ নং রাজ্য সড়ক অবধি৷ মাধবরমে রাজ্য সড়ক ১১১, মঞ্জমবক্কমে ১৬ নং জাতীয় সড়কের লিঙ্করোড, পাড়ি জংশনে চেন্নাই-তিরুভেলুর মহাসড়ক, তিরুমঙ্গলমের নিকট রাজ্য সড়ক ১১২, কোয়মবেড়ু জংশন-এর নিকট পুরাতন ৪ নং জাতীয় সড়ক, বড়পালনিতে ১১৩ নং রাজ্য সড়ক, কাতিপারা জংশনে ৩২ নং জাতীয় সড়কের সাথে সংযোগ রয়েছে৷ এই মহাসড়কে উত্তর ও মধ্যভাগ নিয়ে ২ নং রাজ্য সড়ক গঠিত৷ আইটি কোরিডর থেকে তারামণি লিঙ্ক রোড অবধি বিস্তৃত আভ্যন্তরীন চক্রপথের দক্ষিণাংশে কাতিপাড়া জংশন শুরু হওয়ার পূর্বে রয়েছে অফিসার্স ট্রেনিং একাডেমি৷[২] তারামণি লিঙ্ক রোড বরাবর চেন্নাই দ্রুত বাস পরিবহন ব্যবস্থা বা চেন্নাই আরবিটিডাব্লিউয়ের দপ্তরটি তৈরির পরিকল্পনা রয়েছে৷

তথ্যসূত্র

সম্পাদনা
  1. "Waiting for completion of work on Inner Ring Road"The Hindu। ১০ জুলাই ২০০৬। ১৫ জুলাই ২০০৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১ 
  2. R. Srikanth (১৫ মে ২০০৮)। "Inner Ring Road southern extension taking shape"The Hindu। ২২ মে ২০০৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১