হেপ্টিন

রাসায়নিক যৌগ

হেপ্টিন একটি অ্যালিফ্যাটিক হাইড্রোকার্বন, এর সমগোত্রীয় শ্রেণীর অণুতে কার্বন=কার্বন দ্বিবন্ধন (C=C) বিদ্যমান। হেপ্টিন সাধারণভাবে এলকিন বা অলেফিনস নামে পরিচিত। লাতিন অলেফিনস মানে তৈল উৎপাদনকারী। এই যৌগগুলো ক্লোরিনের সাথে বিক্রিয়া করে ডাইক্লোরাইড গঠন করে যা তৈলজাতীয় যৌগ।

1-Heptene
1-Heptene.png
নামসমূহ
ইউপ্যাক নাম
hept-1-ene
শনাক্তকারী
ত্রিমাত্রিক মডেল (জেমল)
কেমস্পাইডার
ইসিএইচএ ইনফোকার্ড ১০০.০০৮.৮৮১
বৈশিষ্ট্য
C7H14
আণবিক ভর ৯৮.১৯ g·mol−১
বর্ণ Colorless liquid
ঘনত্ব 0.697 g/mL
গলনাঙ্ক −১১৯ °সে (−১৮২ °ফা; ১৫৪ K)
স্ফুটনাঙ্ক ৯৪ °সে (২০১ °ফা; ৩৬৭ K)
ঝুঁকি প্রবণতা
আর-বাক্যাংশ আর১১ আর৩৬/৩৭/৩৮ আর৬৫
এস-বাক্যাংশ এস১৬ এস২৬ এস৩৬ এস৬২
ফ্ল্যাশ পয়েন্ট −৯ °সে (১৬ °ফা; ২৬৪ K)
সুনির্দিষ্টভাবে উল্লেখ করা ছাড়া, পদার্থসমূহের সকল তথ্য-উপাত্তসমূহ তাদের প্রমাণ অবস্থা (২৫ °সে (৭৭ °ফা), ১০০ kPa) অনুসারে দেওয়া হয়েছে।
YesY যাচাই করুন (এটি কি YesYN ?)
তথ্যছক তথ্যসূত্র
অন্যান্য তরলের তুলনায় হেপ্টিনের বাষ্পচাপ।
CH3-CH2-CH2-CH2-CH= CH2 + Cl2 = CH3-CH2-CH2-CH2-CHCl-CH2Cl

এটি একটি মুক্ত শিকল অ্যালকিন।

সংকেতসম্পাদনা

  • হেপ্টিনের রাসায়নিক সংকেতঃ C7H14
  • হেপ্টিনের রাসায়নিক সংকেতঃ CH3 -CH2 -CH2 -CH2 -CH=CH2

উৎসসম্পাদনা

প্রকৃতিতে প্রাপ্তসম্পাদনা

হেপ্টিন দুই পদ্ধতিতে উৎপাদন করা যায়। ভাঙন বা ক্রাকিং পদ্ধতিতে পেট্রোলিয়াম থেকে প্রাপ্ত হাইড্রোকার্বন থেকে এটি আহরণ করা হয়। আমেরিকায় প্রাকৃতিক গ্যাস এবং ইউরোপে অপরিশোধিত তেলের ন্যাপথা অংশ থেকে হেপ্টিন পাওয়া যায়। করে।[২] উচ্চ তাপমাত্রা ও চাপে হেপ্টেনকে ভাঙলে হেপ্টিন পাওয়া যায়। সেই সাথে কিছু এলকেনও উৎপন্ন হয়। হেপ্টেন---> হেপ্টিন + অ্যালকেন

পরীক্ষাগারে প্রস্তুতিসম্পাদনা

পরীক্ষাগারে অধিক পরিমাণ গাঢ় সালফিউরিক এসিডের সাথে হেপ্টানলকে উত্তপ্ত করলে হেপ্টিন উৎপন্ন হয়। CH3-CH2-CH2-CH2-CH-OH + H2SO4 = CH3-CH2-CH2-CH2-CH=CH2 + (H2O + H2SO4)

শিল্পোৎপাদন পদ্ধতিসম্পাদনা

শিল্প কারখানায় হেপ্টিন উৎপাদনে বেশ কয়েকটি পদ্ধতি অনুসরণ করা হয়।

অ্যালকোহল থেকেসম্পাদনা

হেপ্টানলকে উচ্চ তাপমাত্রায় অ্যালুমিনিয়াম অক্সাইডের উপর দিয়ে প্রবাহিত করলে প্রচুর পরিমাণে হেপ্টিন উৎপন্ন হয়। এক্ষেত্রে এলুমিনা (AL2O3) নিরুদক হিসেবে কাজ করে।

হেপ্টাইন থেকেসম্পাদনা

লেড এবং বেরিয়াম সালফেট এর উপস্থিতিতে হেপ্টাইনের সাথে হাইড্রোজেন যুক্ত হয়ে হেপ্টিন উৎপন্ন করে।

বৈশিষ্ট্যসম্পাদনা

স্বাভাবিক তাপমাত্রায় তরল। হেপ্টিন হেপ্টেনের ন্যায় অপোলার জৈব দ্রাবকে দ্রবনীয় কিন্তু পোলার দ্রাবক যেমন পানিতে অদ্রবনীয়। হেপ্টিনের সাথে নিকেল প্রভাবকের উপস্থিতিতে হাইড্রোজেন অণু যুক্ত হয়ে হেপ্টেন তৈরী করে।[৩]

আরো পড়ুনসম্পাদনা

ব্যবহারসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. 1-Heptene at Sigma-Aldrich
  2. উচ্চ মাধ্যমিক রসায়ন, দ্বিতীয় পত্র, হাজারী এবং নাগ।
  3. উচ্চ মাধ্যমিক রসায়ন, দ্বিতীয় পত্র, ড. মোঃ রবিউল ইসলাম, ড. গাজী মোঃ আহসানুল কবীর, ড. মোঃ মনিমুল হক।