শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহ

বাংলার সুলতান

শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহ (শাসনকাল ১৪১৩-১৪১৪) ছিলেন ইলিয়াস শাহি রাজবংশের সুলতান। তিনি এক বছরের মত সংক্ষিপ্ত সময় সুলতান ছিলেন। তিনি তার পিতা সাইফউদ্দিন হামজা শাহর উত্তরাধিকারী হন।[১]

শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহ তার পূর্বসূরিদের মত চীনের সাথে সুসম্পর্ক বজায় রাখেন। তিনি চীনের সম্রাটের কাছে একটি জিরাফ ও সোনালি পাতার উপর লেখা চিঠি পাঠিয়েছিলেন। ৮১৬ ও ৮১৭ হিজরিতে তিনি মুদ্রা চালু করেন। মুদ্রা সংক্রান্ত কিছু সূত্র মতে তার উত্তরসুরি পুত্র আলাউদ্দিন ফিরোজ শাহ ৮১৭ হিজরিতে মুদ্রা চালু করেন। ঐতিহাসিক মুহাম্মদ কাসিম হিন্দু শাহর মতে রাজা গণেশ শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহর মৃত্যুর পর ক্ষমতা দখল করেন। অন্যদিকে ১৭৮৮ খ্রিষ্টাব্দে লিখিত রিয়াজুস সালাতিন অনুযায়ী রাজা গণেশ শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহকে হত্যা করে ক্ষমতা দখল করেন।[১]

আরও দেখুনসম্পাদনা

শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহ
পূর্বসূরী
হামজা শাহ
বাংলার সুলতান
১৪১৩–১৪১৪
উত্তরসূরী
আলাউদ্দিন ফিরোজ শাহ

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Majumdar, R.C. (ed.) (2006). The Delhi Sultanate, Mumbai: Bharatiya Vidya Bhavan, pp.204-6