মালয়ী বনরুই

স্তন্যপায়ী প্রাণীর প্রজাতি

মালয়ী বনরুই বা মালয়ী পিপড়াভুক[২] বা মালয়ান বনরুই[৩] (ইংরেজি: Sunda pangolin) (বৈজ্ঞানিক নাম:Manis javanica) হচ্ছে Manidae পরিবারের Manis গণের একটি স্তন্যপায়ী প্রাণী।[২]

মালয়ী বনরুই
Sunda pangolin
Pangolin borneo.jpg
বৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ: Animalia
পর্ব: কর্ডাটা
শ্রেণী: Mammalia
বর্গ: Pholidota
পরিবার: Manidae
গণ: Manis
প্রজাতি: M. javanica
দ্বিপদী নাম
Manis javanica
Desmarest, 1822
Sunda Pangolin area.png
Sunda pangolin range

বাংলাদেশের ২০১২ সালের বন্যপ্রাণী (সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা) আইনের রক্ষিত বন্যপ্রাণীর তালিকার তফসিল-১ অনুযায়ী এ প্রজাতিটি সংরক্ষিত।[৩]

বর্ণনাসম্পাদনা

মালয়ী বনরুই-এর লোম আঁইশ থেকে উদ্ভূত। এদের মাথা ছোট চোঙাকার ও চোখ ছোট। চোখ মোটা চোখের পাতা দ্বারা রক্ষিত। প্রাপ্তবয়স্ক এই প্রজাতির বনরুইয়ের মাথাসহ দেহের দৈর্ঘ্য ৫০-৬০ সেমি এবং লেজ ৫০-৮০ সেমি। লেজসহকারে আঁইশ দৈর্ঘ্যে ৭৯-৮৮ সেমি। আদর্শগতভাবে পুরুষ বনরুই আকারে স্ত্রীর চেয়ে বড়।[২]

বিস্তৃতিসম্পাদনা

মালয়ী বনরুই বাংলাদেশ[২] ছাড়াও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া তথা থাইল্যান্ড, ইন্দোনেশিয়া (জাভা, সুমাত্রা, বোর্নিও, এবং সুন্দা দ্বীপপুঞ্জ), ভিয়েতনাম, লাওস, কম্বোডিয়া, মালয়েশিয়া, এবং সিংগাপুরে পাওয়া যায়।।[১]

আরো দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Challender, D., Nguyen Van, T., Shepherd, C., Krishnasamy, K., Wang, A., Lee, B., Panjang, E., Fletcher, L., Heng, S., Seah Han Ming, J., Olsson, A., Nguyen The Truong, A., Nguyen Van, Q. & Chung, Y. (২০১৪)। "Manis javanica"বিপদগ্রস্ত প্রজাতির আইইউসিএন লাল তালিকা। সংস্করণ 2014.2প্রকৃতি সংরক্ষণের জন্য আন্তর্জাতিক ইউনিয়ন। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৭-২৯ 
  2. জিয়া উদ্দিন আহমেদ (সম্পা.), বাংলাদেশ উদ্ভিদ ও প্রাণী জ্ঞানকোষ: স্তন্যপায়ী, খণ্ড: ২৭ (ঢাকা: বাংলাদেশ এশিয়াটিক সোসাইটি, ২০০৯), পৃ. ১০৭-১০৮।
  3. বাংলাদেশ গেজেট, অতিরিক্ত, জুলাই ১০, ২০১২, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার, পৃষ্ঠা-১১৮৪৯৫