মাইকেল নোভাক

মার্কিন ক্যাথলিক দার্শনিক, সাংবাদিক, ঔপন্যাসিক এবং কূটনীতিবিদ

মাইকেল নোভাক (১৯৩৩ - ২০১৭) ছিলেন একজন মার্কিন ক্যাথলিক দার্শনিক, সাংবাদিক, ঔপন্যাসিক এবং কূটনীতিবিদ। সংস্কৃতি, দর্শন এবং ধর্মতত্ত্ব সম্পর্কিত চল্লিশেরও বেশি বইয়ের লেখক নোভাক, তার দ্য স্পিরিট অফ ডেমোক্র্যাটিক ক্যাপিটালিজম (১৯৮২) বইয়ের জন্য সমধিক পরিচিত। ১৯৯৩ সালে নোভাক ইউনিভার্সিদাদ্ ফ্রান্সিসকো ম্যারোকান[১] থেকে সম্মানসূচক ডক্টরেট ডিগ্রি লাভ করেন। ১৯৯৪ সালে ধর্মীয় অগ্রগতির জন্য তাকে টেম্পলটন পুরস্কারে ভূষিত করা হয়। তিনি মূলত পুঁজিবাদ, ধর্ম এবং গণতান্ত্রিকীকরণের রাজনীতিকে কেন্দ্র করে বই এবং নিবন্ধ লিখতেন।

মাইকেল নোভাক
Michael Novak
MichaelNovak (cropped).jpg
জন্ম(১৯৩৩-০৯-০৯)৯ সেপ্টেম্বর ১৯৩৩
মৃত্যু১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৭(2017-02-17) (বয়স ৮৩)
জাতীয়তামার্কিন
শিক্ষা
পেশাঅধ্যাপক, ক্যাথলিক ইউনিভার্সিটি অব আমেরিকা
পরিচিতির কারণদার্শনিক, কূটনৈতিক, লেখক
সন্তান
ওয়েবসাইটmichaelnovak.net

নোভাক ১৯৮১ থেকে ১৯৮২ সাল পর্যন্ত জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক কমিশনে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূতের দায়িত্ব পালন করেন এবং ১৯৮৬ সালে ইউরোপের সুরক্ষা ও সহযোগিতা বিষয়ক সম্মেলনে মার্কিন প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন।[২] নোভাক আমেরিকান এন্টারপ্রাইজ ইনস্টিটিউটে ধর্ম, দর্শন, এবং পাবলিক পলিসিতে জর্জ ফ্রেডেরিক জুয়েট স্কলার ছিলেন। ২০০৪ সালে তিনি নিজেকে আজীবন ডেমোক্র্যাট বলে দাবি করেছিলেন, যদিও তিনি উল্লেখ করেছিলেন যে তিনি অনেক রিপাবলিকান প্রার্থীকেও সমর্থন করেছিলেন।[৩]

প্রাথমিক জীবন ও পরিবারসম্পাদনা

নোভাক ১৯৩৩ সালে পেন্সিল্‌ভেনিয়ার জন্সটাউনে এক স্লোভাক-আমেরিকান পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা মাইকেল জে. নোভাক ছিলেন বীমা সেলসম্যান আর মা আইরেন সাকমা ছিলেন স্টেনোগ্রাফার।[৪][৫] ভাইবোনদের মধ্যে তিনি ছিলেন সবার বড়। তার ছোটভাই রিচার্ড জে নোভাক, সিএসসি ঢাকার নটর ডেম কলেজে অধ্যাপনা করতেন। ১৯৬৪'র দাঙ্গাকালীন সময়ে তিনি নিহত হন। বাকি ভাই-বোনরা হল: জেমস জে নোভাক; বেঞ্জামিন নোভাক, আভে মারিয়া, এবং মেরি অ্যান নোভাক।[৬]

তিনি পেশাদার চিত্রশিল্পী ক্যারেন লাব-নোভাকের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। ক্যারেন ২০০৯ সালের আগস্টে ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু বরণ করেন। তাদের তিন সন্তান: রিচার্ড, ট্যানিয়া এবং জানা।[৬]

শিক্ষাজীবনসম্পাদনা

রিচার্ড নোভাক ১৯৫৬ সালে স্টোনহিল কলেজে ইংরেজি ও দর্শন শাস্ত্রের উপর স্নাতক সম্পন্ন করেন। তারপর ১৯৫৮ সালে রোমের পন্টিফিক্যাল গ্রেগরিয়ান বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ব্যাচেলর অব স্যাক্রেড থিওলজি এবং ১৯৬৬ সালে হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয় ইতিহাস ও ধর্মীয় দর্শনের উপর মাস্টার্স ডিগ্রি অর্জন করেন। নোভাক মূলত ধর্মের দর্শনে ডক্টরেট অর্জনের উদ্দেশ্যে হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে দর্শন ও ধর্মতত্ত্ব নিয়ে পড়াশোনা শুরু করেছিলেন। নোভাকের ধারণা ছিল যে, দর্শন বিভাগ ধর্মকে বাদ দিয়ে বরং বিশ্লেষণমূলক দর্শনেই বেশি গুরুত্বারোপ করা হয়। স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করে তিনি হার্ভার্ড ত্যাগ করেন এবং লেখক হিসাবে কর্মজীবনে প্রবেশ করেন।

মৃত্যুসম্পাদনা

নোভাক ২০১৭ সালের ১৭ ফেব্রুয়ারি মলাশয়ের ক্যান্সার জনিত কারণে ওয়াশিংটন, ডি.সি.তে মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৩ বছর।[৭][৮]

রচিত গ্রন্থাবলীসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Honorary Doctorate Degrees at Universidad Francisco Marroquín (in Guatemala City, Guatemala). ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ১ মে ২০১১ তারিখে
  2. "SCHOLARS & FELLOWS – Michael Novak"American Enterprise Institute। ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  3. National Review, retrieved January 1, 2009 from [১]
  4. "Archived copy"। আগস্ট ৪, ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ফেব্রুয়ারি ৪, ২০১২ 
  5. "Archived copy"। জুলাই ১৬, ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ১, ২০১২ 
  6. "Quick Facts"Michael Novak (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৬-১০ 
  7. "Michael Novak, theologian who made a spiritual case for capitalism, dies at 83"Washington Post। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০২-১৭ 
  8. Grimes, William (২০১৭-০২-১৯)। "Michael Novak, Catholic Scholar Who Championed Capitalism, Dies at 83"The New York Timesআইএসএসএন 0362-4331। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০২-২১ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা