ভূত (উপমহাদেশীয় সংস্কৃতি)

ভূত (সংস্কৃত: भूत) ভারতীয় উপমহাদেশের সংস্কৃতিতে এবং বিশেষভাবে হিন্দু সমাজের বিশ্বাসে একটি অতিপ্রাকৃত সৃষ্টি বা সত্তা, যা সাধারত একজন মৃত ব্যক্তির আত্মা বা প্রেতাত্মা[১] উপমহাদেশের জনসংস্কৃতি ও সাহিত্য এবং কিছু প্রাচীন পুঁথিতে ভূতের উপস্থিতি ব্যাপক। অঞ্চল ও সম্প্রদায় ভেদে ভূতের উদ্ভবের বিবিধ ব্যাখ্যা রয়েছে তবে সাধারণভাবে তাদেরকে অস্থির অতৃপ্ত হিসেবে ধরা হয়ে থাকে যার কারণ তাদের মুক্তির (স্বর্গ-নরক গমন অথবা পুনর্জন্ম কিংবা নির্বাণ বা অনস্তিত্বের) পথে কোন বাঁধা। এই বাঁধা হতে পারে অস্বাভাবিক, নির্ঘাত বা অকাল মৃত্যু, জীবনের কোন অমীমাংসিত বিষয় বা অসম্পূর্ণ কাজ কিংবা শেষকৃত্য করতে অবহেলা বা ব্যর্থতা।[১]

একটি ব্রহ্মদৈত্য (ব্রাহ্মণের ভূত) অন্যান্য অপকারী ভূতদের হাত থেকে একজন দরিদ্র ব্রাহ্মণকে রক্ষা করছে। দরিদ্র ব্রাহ্মণটি একটি বটগাছ কিংবা অশুত্থ গাছের ডাল কাটছিলেন।

ভারতবর্ষে ভূত বিশ্বাস প্রজন্মের পর প্রজন্ম মানুষের মনে গভিরভাবে বদ্ধমূল হয়ে আছে। ভূতের বিবিধ ধারণার মূলে রয়েছে হিন্দু পুরাকথার সুবিশাল ক্ষেত্র ও এর ধর্মীয় গ্রন্থাবলী, সাহিত্য ও লোককথা। ভারতে (ও উপমহাদেশে) অনেক অভিযুক্ত ভুতুড়ে স্থান রয়েছে যেমন, শশ্মান (কিংবা কবরস্থান), ভাঙ্গা দালানকোঠা, জমিদারবাড়ি বা রাজবাড়ি, দুর্গ, জঙ্গলের মাঝে বাংলাবাড়ি, চিতা দহনের ঘাট, ইত্যাদি। বাঙালী সংস্কৃতিতেও ভূত একটি গুরুত্বপূর্ণ স্থান অধিকার করে আছে। ভূত ও বিভিন্ন অতিপ্রাকৃত সত্তা গ্রামবাংলার হিন্দু-মুসলমান উভয় সম্প্রদায়ের মানুষের সামাজিক ও সাংস্কৃতিক বিশ্বাসের একটি অবিচ্ছেদ্য অংশ। রূপকথায় প্রায়ই ভূতের ধারণা ব্যবহার হয়ে থাকে এবং আধুনিককালের বাংলা সাহিত্য, চলচ্চিত্র, বেতার ও টেলিভিশন প্রোগ্রামে ভূতের উপস্থিতি যথেষ্ট পাওয়া যায়।

ব্যুৎপত্তি ও বাগধারাসম্পাদনা

ভূত একটি সংস্কৃত শব্দ যার অর্থ "অতীত" বা "সত্তা" বুঝায়[২] এবং এটির ইন্দো-ইউরোপীয় ভাষাগত মূলশব্দ (*ভেউ*ভু-) খুব ব্যাপক হওয়াতে ভাষা পরিবারের সর্বত্রই এর সগোত্রীয় শব্দ পাওয়া যায়, যেমন আইরিশ ভা (bha), ইংরেজি বি (be), লাতভীয় বুত ও ফার্সি বুদান

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Britannica; Dale Hoiberg; Indu Ramchandani (২০০০), Students' Britannica India, Volumes 1-5, Popular Prakashan, 2000, আইএসবিএন 978-0-85229-760-5, ... Bhut also spelt bhoot, in Hindu mythology, a restless ghost. Bhoots are believed to be malignant if they have died a violent of premature death or have been denied funerary rites ... 
  2. Henk W. Wagenaar; S. S. Parikh; D. F. Plukker; R. Veldhuijzen van Zanten (১৯৯৩), Allied Chambers transliterated Hindi-Hindi-English dictionary, Allied Publishers, 1993, আইএসবিএন 978-81-86062-10-4, ... bhūt भूत (m.) a ghost; an evil spirit; ... the past tense (also bhūtkāl भूतकाल); (adj.) past, bygone ...