ক্রিস্টোফার ম্যাক্‌ক্যান্ড্‌লেস

ক্রিস্টোফার জনসন ম্যাক্‌ক্যান্ড্‌লেস (/məˈkændlɪs/; ইংরেজি: Christopher Johnson McCandless, ১২ ফেব্রুয়ারি ১৯৬৮[১] – আনু. আগস্ট ১৯৯২), এছাড়াও তার স্ব-নির্মিত ডাকনাম " আলেকজান্ডার সুপারট্রাম্প"[২] দ্বারাও পরিচিত, মাত্র ২৪ বছর বয়সে আলাস্কার বনাঞ্চলে মৃত্যুবরণ করেন। তিনি যৎসামান্য খাবার ও উপকরণ নিয়ে আলাস্কাসহ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন স্থানে ঘুরে বেরিয়েছিলেন। পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে কিছুদিন একাকী সুখের সন্ধানে ঘুরে বেড়ানোই ছিল তার উদ্দেশ্য। খাদ্যের অভাবে ডেনালি রাষ্ট্রীয় উদ্যানে তার মৃত্যু হয়। [৩][৪] তার জীবনকাহিনী নিয়ে জন ক্র্যাকাওয়ার ১৯৯৬ সালে ইনটু দ্য ওয়াইল্ড নামে একটি নন-ফিকশন বই লিখেছেন। এই বইয়ের উপর ভিত্তি করে ২০০৭ সালে একটি চলচ্চিত্র মুক্তি পায়। শন পেন পরিচালিত এই ছবির নামও রাখা হয় ইনটু দ্য ওয়াইল্ড

ক্রিস্টোফার জনসন ম্যাক্‌ক্যান্ড্‌লেস
ক্রিস্টোফার ম্যাক্‌ক্যান্ড্‌লেস.jpg
ক্রিস্টোফার ম্যাক্‌ক্যান্ড্‌লেস তাঁর ক্যাম্পের সামনে (তাঁর নিজের ক্যামেরায় ধারণকৃত এই ছবিটি পাওয়া গিয়েছিল তাঁর মৃত্যুর পর)
জন্ম১২ই ফেব্রুয়ারি, ১৯৬৮
মৃত্যু১৮ই আগস্ট, ১৯৯২
পিতা-মাতাওয়াল্ট ও বিলি ম্যাক্‌ক্যান্ড্‌লেস

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Krakauer, Jon (২০০৭)। "6"। Into the Wild। Anchor Books। পৃষ্ঠা 53। আইএসবিএন 978-0-385-48680-4 
  2. McNamee, Thomas (১৯৯৬-০৩-০৩)। "Adventures of Alexander Supertramp"The New York Times (ইংরেজি ভাষায়)। আইএসএসএন 0362-4331। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৬-১৯ 
  3. "The Call of the Wild: Into the Wild Debunked"Terra Incognita films। আগস্ট ২১, ২০০৭। সংগ্রহের তারিখ জানুয়ারি ১২, ২০২১ 
  4. Brown, Chip (ফেব্রুয়ারি ৮, ১৯৯৩)। "I Now Walk Into the Wild"The New Yorker। পৃষ্ঠা 38। আইএসএসএন 0028-792X 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা

  • Wikimapia - Christopher McCandless' abandoned bus on the Stampede Trail.
  • Wikimapia - Detrital Wash site where McCandless camped and abandoned his car after the wash flooded.