প্রধান মেনু খুলুন

কেন্দ্রাপড়া জেলা

ওড়িশার একটি জেলা

কেন্দ্রাপড়া জেলা (ওড়িয়া: କେନ୍ଦ୍ରାପଡ଼ା ଜିଲ୍ଲା, প্রতিবর্ণী. কেন্দ্রাপড়া জিল্লা) পূর্ব ভারতে অবস্থিত ওড়িশা রাজ্যের ৩০ টি জেলার একটি জেলা৷ ১৮ই চৈত্র ১৩৯৯ বঙ্গাব্দে(১লা এপ্রিল ১৯৯৩ খ্রিস্টাব্দে) পূর্বতন কটক জেলা থেকে নতুন কেন্দ্রাপড়া জেলাটি গঠিত হয়৷ জেলাটি ওড়িশার কেন্দ্রীয় ওড়িশা বিভাগের অন্তর্গত৷ জেলাটির জেলাসদর কেন্দ্রাপড়া শহরে অবস্থিত এবং কেন্দ্রাপড়া মহকুমা নিয়ে গঠিত৷

কেন্দ্রাপড়া জেলা
କେନ୍ଦ୍ରାପଡ଼ା ଜିଲ୍ଲା
ওড়িশার জেলা
ওড়িশায় কেন্দ্রাপড়ার অবস্থান
ওড়িশায় কেন্দ্রাপড়ার অবস্থান
দেশভারত
রাজ্যওড়িশা
প্রশাসনিক বিভাগকেন্দ্রীয় ওড়িশা বিভাগ
সদরদপ্তরকেন্দ্রাপড়া
তহশিল
আয়তন
 • মোট২৬৪৪ কিমি (১০২১ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা (২০১১)
 • মোট১৪,৪০,৩৬১
 • জনঘনত্ব৫৪০/কিমি (১৪০০/বর্গমাইল)
জনতাত্ত্বিক
 • সাক্ষরতা৮৫.১৫ শতাংশ
 • লিঙ্গানুপাত১০০৭
গড় বার্ষিক বৃষ্টিপাত১৫৬৭ মিমি
ওয়েবসাইটদাপ্তরিক ওয়েবসাইট

পরিচ্ছেদসমূহ

নামকরণসম্পাদনা

কেন্দ্রাপড়া জেলার জেলাসদরটি স্থানীয়দের মধ্যে তুলসীক্ষেত্র নামেই অধিক পরিচিত৷ পৌরানিক কাহিনী অনুযায়ী কৃৃষ্ণজ্যেষ্ঠ বলরাম এই অঞ্চলের অধিপতি কেন্দ্রাসুরকে বধ করে তার কন্যা তুলসীকে বিবাহ করেন৷ কেন্দ্রাসুরের হত্যাকান্ডকে ভিত্তি করে জায়গাটির নাম হয় কেন্দ্রাপড়া৷[১]

ইতিহাসসম্পাদনা

ভূপ্রকৃতিসম্পাদনা

অর্থনীতিসম্পাদনা

অবস্থানসম্পাদনা

জেলাটির উত্তরে ওড়িশা রাজ্যের ভদ্রক জেলাজেলাটির দক্ষিণে ওড়িশা রাজ্যের জগৎসিংহপুর জেলাজেলাটির দক্ষিণ পশ্চিমে(নৈঋত) ওড়িশা রাজ্যের কটক জেলাজেলাটির পশ্চিমে ওড়িশা রাজ্যের যাজপুর জেলাজেলাটির উত্তর পশ্চিমে(বায়ু) ওড়িশা রাজ্যের যাজপুর জেলা[২] কেন্দ্রাপড়া জেলাটির পূর্বপ্রান্তে রয়েছে বঙ্গোপসাগর৷

জেলাটির আয়তন ২৬৪৪ বর্গ কিমি৷ রাজ্যের জেলায়তনভিত্তিক ক্রমাঙ্ক ৩০ টি জেলার মধ্যে তম৷ জেলার আয়তনের অনুপাত ওড়িশা রাজ্যের ১.৭০%৷

ভাষাসম্পাদনা

কেন্দ্রাপড়া জেলায় প্রচলিত ভাষাসমূহের পাইচিত্র তালিকা নিম্নরূপ -

২০১১ অনুযায়ী কেন্দ্রাপড়া জেলার ভাষাসমূহ[৩]

  ওড়িয়া (৯১.৪৭%)
  বাংলা (৪.৭৬%)
  উর্দু (৩.৩১%)
  অন্যান্য (০.৪৬%)

ধর্মসম্পাদনা

জনসংখ্যার উপাত্তসম্পাদনা

মোট জনসংখ্যা ১৩০২০০৫(২০০১ জনগণনা) ও ১৪৪০৩৬১(২০১১ জনগণনা)৷ রাজ্যে জনসংখ্যাভিত্তিক ক্রমাঙ্ক ৩০ টি জেলার মধ্যে ১৪তম৷ ওড়িশা রাজ্যের ৩.৪৩% লোক কেন্দ্রাপড়া জেলাতে বাস করেন৷ জেলার জনঘনত্ব ২০০১ সালে ৪৯২ ছিলো এবং ২০১১ সালে তা বৃদ্ধি পেয়ে ৫৪৫ হয়েছে৷ জেলাটির ২০০১-২০১১ সালের মধ্যে জনসংখ্যা বৃৃদ্ধির হার ১০.৬৩% , যা ১৯৯১-২০১১ সালের ১৩.২৭% বৃদ্ধির হারের থেকে কম৷ জেলাটিতে লিঙ্গানুপাত ২০১১ অনুযায়ী ১০০৭(সমগ্র) এবং শিশু(০-৬ বৎ) লিঙ্গানুপাত ৯২৬৷[৪]

নদনদীসম্পাদনা

পরিবহন ও যোগাযোগসম্পাদনা

পর্যটন ও দর্শনীয় স্থানসম্পাদনা

ঐতিহ্য ও সংস্কৃতিসম্পাদনা

শিক্ষাসম্পাদনা

জেলাটির স্বাক্ষরতা হার ৭৬.৮১%(২০০১) তথা ৮৫.১৫%(২০১১)৷ পুরুষ স্বাক্ষরতার হার ৮৭.১১%(২০০১) তথা ৯১.৪৫%(২০১১)৷ নারী স্বাক্ষরতার হার ৬৬.৭৬%(২০০১) তথা ৭৮.৯৬% (২০১১)৷ জেলাটিতে শিশুর অনুপাত সমগ্র জনসংখ্যার ১১.১৯%৷[৪]

প্রশাসনিক বিভাগসম্পাদনা

সীমান্তসম্পাদনা

বিশিষ্ট ব্যাক্তিবর্গসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা