কৃষ্ণকুমার কুন্নথ

কৃষ্ণকুমার কুন্নথ (জন্ম ২৩ আগস্ট ১৯৬৮), যিনি কেকে নামে অধিক পরিচিত, হলেন একজন ভারতীয় নেপথ্য সঙ্গীতশিল্পী। তিনি হিন্দি, তেলুগু, মালয়ালম, কন্নড়, মারাঠি, গুজরাতি ও তামিল চলচ্চিত্রে গান গেয়ে থাকেন।[১] তিনি তার স্পষ্ট ও শ্রুতিমধুর কণ্ঠ, কণ্ঠের বৈচিত্রতা এবং স্বরগ্রাম অনুযায়ী গায়কীর জন্য প্রসিদ্ধ। তাকে ভারতের অন্যতম বৈচিত্রপূর্ণ সঙ্গীতশিল্পী হিসেবে গণ্য করা হয়।[২] তিনি শ্রেষ্ঠ পুরুষ নেপথ্য কণ্ঠশিল্পী বিভাগে সাতটি ফিল্মফেয়ার পুরস্কারের মনোনয়নসহ একাধিক পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেছেন এবং দুটি স্ক্রিন পুরস্কার অর্জন করেছেন।

কৃষ্ণকুমার কুন্নথ
SingerKK.jpg
২০১৩ সালের জানুয়ারিতে কেকে
প্রাথমিক তথ্য
আরো যে নামে
পরিচিত
কেকে, কে.কে.
জন্মদিল্লি, ভারত
ধরননেপথ্য সঙ্গীত, ইন্ডিপপ, রক
পেশানেপথ্য সঙ্গীতশিল্পী, সুরকার, গীতিকার
বাদ্যযন্ত্রসমূহকণ্ঠ
কার্যকাল১৯৯৬-বর্তমান
ওয়েবসাইটthemesmerizer.com

প্রারম্ভিক জীবনসম্পাদনা

কৃষ্ণকুমার কুন্নথ ১৯৬৮ সালের ২৩শে আগস্ট দিল্লিতে এক হিন্দু মালয়ালি পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতামাতা হলেন সি. এস. মেনন এবং কুন্নথ কনকবল্লি।[৩] তিনি নতুন দিল্লিতে বেড়ে ওঠেন।[৪] তিনি দিল্লির মাউন্ট সেন্ট ম্যারিস স্কুল পড়াশোনা করেন,[৫] এবং দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনস্থ কিরোরি মাল কলেজ থেকে স্নাতক সম্পন্ন করেন।[৬] তিনি ১৯৯৯ বিশ্বকাপ ক্রিকেটে ভারত ক্রিকেট দলের সমর্থনে "জোশ অব ইন্ডিয়া" গানে কণ্ঠ দেন।[৭] গানটির ভিডিওতে ক্রিকেট দলের সদস্যদের দেখা যায়।

কর্মজীবনসম্পাদনা

দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনস্থ কিরোরি মাল কলেজ থেকে বাণিজ্যে স্নাতক ডিগ্রি অর্জনে পর কেকে আট মাস একটি হোটেলের বিপণন নির্বাহী হিসেবে কাজ করেন। কয়েক বছর পর, ১৯৯৪ সালে তিনি মুম্বইয়ে পাড়ি জমান।[৮] তিনি বলিউডে নেপথ্য সঙ্গীতশিল্পী হিসেবে আগমনের পূর্বে প্রায় ৩,৫০০ বিজ্ঞাপনের জিঙ্গেলে কণ্ঠ দেন।[৫]

কণ্ঠ ও সঙ্গীতের ধরনসম্পাদনা

কেকে সঙ্গীতশিল্পী কিশোর কুমার ও সঙ্গীত পরিচালক রাহুল দেব বর্মণের দ্বারা প্রভাবিত। কেকের প্রিয় আন্তর্জাতিক সঙ্গীতশিল্পী হলেন মাইকেল জ্যাকসন, বিলি জোয়েল, ব্রায়ান অ্যাডামস। কেকে কখনো সঙ্গীতের প্রাতিষ্ঠানিক তালিম গ্রহণ করেননি।[৯]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "The right note"দ্য হিন্দু (ইংরেজি ভাষায়)। ৯ ডিসেম্বর ২০০৬। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ 
  2. "Best KK Songs: Top 10"ইন্ডিসিনে (ইংরেজি ভাষায়)। ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ 
  3. লাসরাডো, রিচি (২৫ নভেম্বর ২০০৬)। "A Kandid Konversation with KK"। দইজিওয়ার্ল্ড। ২৩ আগস্ট ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ 
  4. আর, বালাজি (৬ জুন ২০০৫)। "The KK factor"দ্য হিন্দু। ৫ নভেম্বর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ 
  5. "KK sang 3,500 jingles before Bollywood break"সাইফি। ২৮ এপ্রিল ২০০৯। ১২ এপ্রিল ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ 
  6. "KK"সাভন। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ 
  7. "KK Profile"। ইন.কম। ১১ মে ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ 
  8. "Sensational Singer KK to Perform Live in City on Nov 23"দইজিওয়ার্ল্ড। ২২ নভেম্বর ২০০৬। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  9. "KK: Facts about the singer we bet you don't know"দ্য টাইমস অব ইন্ডিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। ২০ আগস্ট ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০২০ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা