এল. কে. সিদ্দিকী

বাংলাদেশি রাজনীতিবিদ

আবুল হাসনাত লুৎফুল কবির সিদ্দিকী (১৫ এপ্রিল ১৯৩৯ - ১ আগস্ট ২০১৪) ছিলেন বাংলাদেশের একজন খ্যাতনামা রাজনীতিবিদ ও প্রকৌশলী। সাধারণ্যে তিনি এল. কে. সিদ্দিকী নামেই অধিক পরিচিত ছিলেন। চট্টগ্রাম-২ থেকে তিনি ৪ বার নির্বাচিত সংসদ সদস্য। তিনি বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৭ম ডেপুটি স্পিকার হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।[১]

এল. কে. সিদ্দিকী
এল. কে. সিদ্দিকী.jpg
জাতীয় সংসদের ৭ম ডেপুটি স্পিকার
কাজের মেয়াদ
১৯ মার্চ, ১৯৯৬ – ১৪ জুলাই, ১৯৯৬
পূর্বসূরীহুমায়ুন খান পন্নী
উত্তরসূরীআব্দুল হামিদ
চট্টগ্রাম-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য
দায়িত্বাধীন
অধিকৃত কার্যালয়
১৯৭৯–১৯৮৬

১৯৯১–ফেব্রুয়ারি ১৯৯৬
ফেব্রুয়ারি ১৯৯৬–জুন ১৯৯৬

২০০১–২০০৬
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম১৫ এপ্রিল ১৯৩৯
দক্ষিণ রহমতনগর গ্রাম, সীতাকুণ্ড উপজেলা, চট্টগ্রাম জেলা, পূর্ব বাংলা, British Raj Red Ensign.svg ব্রিটিশ ভারত
(বর্তমান  বাংলাদেশ)
মৃত্যু১ আগস্ট ২০১৪
মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতাল, সিঙ্গাপুর
রাজনৈতিক দলবাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল

জন্ম ও পারিবারিক পরিচিতিসম্পাদনা

এল. কে. সিদ্দিকী ১৯৩৯ সালের ১৫ এপ্রিল চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলার দক্ষিণ রহমতনগর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতার নাম আবুল মনসুর লুৎফে আহমেদ সিদ্দিকী।[২] তার স্ত্রীর নাম মাহমুদা সিদ্দিকী; তাদের তিন ছেলে ও এক মেয়ে। তার ভাই এ.ওয়াই.বি আই সিদ্দিকী যিনি সাবেক কূটনীতিক, সাবেক সচিব ও বাংলাদেশ পুলিশের ১৬তম পুলিশ পরিদর্শক[৩]

শিক্ষাজীবনসম্পাদনা

সিদ্দিকী ১৯৫৪ সালে সীতাকুণ্ড আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় থেকে প্রথম বিভাগে মেট্রিক পাশ করেন। তিনি ১৯৬১ সালে ঢাকার আহসান উল্লাহ ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ থেকে সিভিল ইঞ্জিনিয়ারি -এ স্নাতক ডিগ্রি লাভ করেন।[২]

রাজনৈতিক জীবনসম্পাদনা

তিনি দ্বিতীয়, পঞ্চম, ষষ্ঠঅষ্টম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চট্টগ্রাম-২ থেকে সাংসদ নির্বাচিত হন এবং ১৯৮১-৮২ সালে বিদ্যুৎ, পানিসম্পদ উন্নয়ন ও বন্যা নিয়ন্ত্রণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী ও ২০০১ সালে পানিসম্পদমন্ত্রীর দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি ১৯৯৬ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারির নির্বাচনের পর গঠিত সংসদে ডেপুটি স্পিকারের দায়িত্ব পালন করেন।[৪]

মৃত্যুসম্পাদনা

তিনি ৭৫ বছর বয়সে ২০১৪ সালের ১ আগস্ট বেলা পৌনে ১১টার দিকে সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিত্সাধীন অবস্থায় মারা যান।[১]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "সাবেক ডেপুটি স্পিকার ও মন্ত্রী এল কে সিদ্দিকী আর নেই"দৈনিক প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  2. "ইঞ্জিনিয়ার এল কে সিদ্দিকী"দৈনিক সুপ্রভাত। সংগ্রহের তারিখ ৭ ডিসেম্বর ২০১৮ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  3. "বিএনপি নেতা এল কে সিদ্দিকী আর নেই"বিডিনিউজ২৪ ডটকম। সংগ্রহের তারিখ ৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  4. "এল কে সিদ্দিকী'র মরদেহ চট্টগ্রামে"বিডিনিউজ২৪ ডটকম। সংগ্রহের তারিখ ৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 

বহি:সংযোগসম্পাদনা

পূর্বসূরী:
হুমায়ুন খান পন্নী
জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার
১৯ মার্চ, ১৯৯৬–১৪ জুলাই, ১৯৯৬
উত্তরসূরী:
আব্দুল হামিদ