শৈলেশ্বর চক্রবর্তী

শৈলেশ্বর চক্রবর্তী (? - ১৯৩২) ছিলেন ভারতীয় উপমহাদেশের ব্রিটিশ বিরোধী স্বাধীনতা আন্দোলনের একজন অন্যতম ব্যক্তিত্ব। গোপন বিপ্লবী দলের সদস্য ছিলেন। ১৮ এপ্রিল, ১৯৩০ সালে চট্টগ্রাম অস্ত্রাগার আক্রমণ ও জালালাবাদ পাহাড়ের যুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন। গ্রেপ্তার এড়িয়ে বিপ্লবী কাজকর্ম চালিয়ে যান। ২৪ সেপ্টেম্বর, ১৯৩২ তারিখে ইউরোপিয়ান ক্লাব আক্রমণের দায়িত্বপালনে ঘটনাচক্রে অকৃতকার্য হওয়ার নিদারুণ আক্ষেপে আত্মহত্যা করেন।[১]

শৈলেশ্বর চক্রবর্তী
upright=শৈলেশ্বর চক্রবর্তী
জন্ম
মৃত্যু১৯৩২
জাতীয়তাব্রিটিশ ভারতীয়
নাগরিকত্ব ব্রিটিশ ভারত
পরিচিতির কারণচট্টগ্রামের অস্ত্রগার আক্রমণের ব্যক্তি
রাজনৈতিক দলঅনুশীলন সমিতি,
আন্দোলনভারতের বিপ্লবী স্বাধীনতা আন্দোলন
শৈলেশ্বর চক্রবর্তী

শৈলেশ্বর চক্রবর্তীর জন্ম চট্টগ্রামের দেওয়ানপুরে। তার পিতার নাম রত্নেশ্বর চক্রবর্তী।[১]

তথ্যসূত্র

সম্পাদনা
  1. সুবোধ সেনগুপ্ত ও অঞ্জলি বসু সম্পাদিত, সংসদ বাঙালি চরিতাভিধান, প্রথম খণ্ড, সাহিত্য সংসদ, কলকাতা, নভেম্বর ২০১৩, পৃষ্ঠা ৭২৬, আইএসবিএন ৯৭৮-৮১-৭৯৫৫-১৩৫-৬