শাহনাজ মুন্নী

বাংলাদেশী সাংবাদিক, টেলিভিশন বার্তা সম্পাদক, কবি এবং লেখক

শাহনাজ মুন্নী (জন্ম ১৯৬৯, ঢাকা) একজন বাংলাদেশি সাংবাদিক, কবি ও লেখক।[১] জানুয়ারি ২০১৬ থেকে তিনি ঢাকায় অবস্থিত টেলিভিশন চ্যানেল নিউজ টুয়েন্টিফোরের প্রধান বার্তা সম্পাদক হিসেবে কাজ করছেন।[২] শিশুকল্যাণ বিষয়ে তিনি বিশেষ আগ্রহ সংরক্ষণ করেন।

শাহনাজ মুন্নী
মুন্নী
Shahnaz Munni (9).jpg
কবি ও গল্পকার শাহনাজ মুন্নী
জন্ম (1969-02-08) ৮ ফেব্রুয়ারি ১৯৬৯ (বয়স ৫২)
জাতীয়তাবাংলাদেশী
নাগরিকত্ববাংলাদেশ
শিক্ষাস্নাতক, সমাজ বিজ্ঞান
মাতৃশিক্ষায়তনঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
পেশাসাংবাদিকতা
আদি নিবাসঢাকা
দাম্পত্য সঙ্গীসরকার আমিন

জীবনীসম্পাদনা

মুন্নী ১৯৬৯ সালের ৮ই ফেব্রুয়ারি ঢাকায় জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ঢাকার হলিক্রস কলেজে উচ্চ মাধ্যমিক সম্পন্ন করেন। এরপর ১৯৯৪তে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সামাজিক বিজ্ঞান বিভাগে পড়াশোনা শুরু করেন।[৩] গ্রাজুয়েশনে থাকাকালীন, তার কর্মজীবন শুরু হয় ১৯৯৯তে একুশে টেলিভিশন চালু হওয়ার সময় সাংবাদিক হিসেবে।[৪] ২০০৩ সালে তিনি এটিএন বাংলার সিনিয়র রিপোর্টার হিসেবে যোগ দেন। পরবর্তীতে নিউজ টুয়েন্টিফোরে তিনি বিশেষ সংবাদদাতা হিসেবে যোগ দেন। ২০১৬ সালে তাকে সিনিয়র বার্তা সম্পাদক পদে উন্নীত করা হয়।[৫]

২০০৬ সালের সেপ্টেম্বরে তিনি ছিলেন ২০জন বিশিষ্টজনের একজন যারা ইউনিসেফের শিশু অধিকার কবিতা উৎসবে অবদান রেখেছেন। এই উৎসবের লক্ষ্য ছিল শিশু-অধিকারের প্রতি সামজিক দৃষ্টিভঙ্গির উন্নয়ন।[৬] শিশুদের শিরিশ শোঁকার নেশার উপর সংবাদ উপস্থাপন করায় তিনি ২০০৯তে, মীনা মিডিয়া এওয়ার্ডসে দ্বিতীয় পুরস্কার অর্জন করেন। যেহেতু আমাদের গণমাধ্যম প্রাথমিকভাবে প্রাপ্তবয়স্কদের দর্শক হিসেবে প্রাধান্য দেয়, তাই শিশুদের উপর সংবাদ পরিবেশন একটি কঠিন কাজ বলে তিনি মনে করেন। তিনি বলেন, "গণমাধ্যমের অনেক সুযোগ রয়েছে শিশু উন্নয়নের ক্ষেত্রে, কিন্তু এর আগে আমাদের আচরণ ও মানসিক লক্ষ্য ঠিক করতে হবে যারা গণমাধ্যমের সিদ্ধান্ত প্রণয়ন পরররযায়ে আছেন তাদেরকে।" [৭] ২০১৩তে, তিনি MCHIP  (মাতৃ ও শিশু স্বাস্থ্য ইন্টিগ্রেটেড প্রোগ্রাম) এর একজন প্রতিনিধি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। সেভ দ্যা চিলড্রেন প্রজেক্টের জন্য ৫০টি সাফল্যগাথা সংগ্রহ করেন আজমিরিগঞ্জ এবং নবীগঞ্জ উপজেলা ঘুরে।[৮] মুন্নী বাংলাদেশে যক্ষ্মা প্রতিরোধেও তার নিজক্ষেত্র থেকে অবদান রেখেছেন। [৯]

লেখক হিসেবে, তিনি একজন কবি, একজন প্রাবন্ধিক এবং ছোটগল্প লেখক। তিনি শিশুদের জন্য লিখে থাকেন।জ্বিনের কান্না, তার প্রথম ছোটগল্পের বই যেটি ১৯৯৭ সালে প্রকাশিত হয়েছিল।[১০] গোয়েত্থে ইন্স্টিটিউটের অধীনে আয়োজিত "কবিদের অনুবাদে কবিরা" প্রজেক্টে মুন্নী অংশগ্রহণ করেছিলেন। এই প্রজেক্টে ভারতীয় এবং দক্ষিণ এশীয় ভাষাসমূহকে জার্মান কবিতার সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়া হয়েছিল, অর্থাৎ ঐসকল ভাষার কবিতাকে জার্মান ভাষায় রূপান্তর করা হয়েছিল। তার বেশ কয়েকটি কবিতা জার্মানে রূপান্তর করা হয়েছিল, আবার তিনিও আধুনিক জার্মান কবি হেন্ড্রিক জ্যাকসনের কবিতা অনুবাদ করেছিলেন। [১১][১২]

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন সামাজিকবিজ্ঞানের গ্রাজুয়েট হিসেবে মুন্নী লেখক ও সমালোচক আজফার হুসাইনের সাথে গবেষণা করেছেন। [১৩]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Shahnaz Munni" (ইংরেজি ভাষায়)। Goethe Institut। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  2. "Shahnaz Munni joins News 24" (ইংরেজি ভাষায়)। Daily Sun। ৭ জানুয়ারি ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  3. "শাহনাজ মুন্নী" (ইংরেজি ভাষায়)। lirikline। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  4. "শাহনাজ মুন্নী সম্পর্কে" (ইংরেজি ভাষায়)। ফেসবুক। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  5. "নিউজ টোয়েন্টিফোরে শাহনাজ মুন্নী"বাংলাদেশ প্রতিদিন। ০৭ জানুয়ারি ২০১৫।  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য)
  6. "September 27, 2006: Poetry festival on rights of the child held in Dhaka" (ইংরেজি ভাষায়)। Unicef। ২৭ সেপ্টেম্বর ২০০৬। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  7. McNamara (৪ নভেম্বর ২০০৯)। "Media 5826" (ইংরেজি ভাষায়)। Unicef। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  8. "ournalist Shahnaz Munni, Maternal and Newborn Health Ambassador of MCHIP visited MaMoni Project" (ইংরেজি ভাষায়)। Save the Children। ২৫ মার্চ ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  9. "BRAC Recognises media efforts to report on TB" (ইংরেজি ভাষায়)। BRAC। ১৬ এপ্রিল ২০১৫। 
  10. "শাহনাজ মুন্নী" (ইংরেজি ভাষায়)। ঢাকা ট্রিবিউন। ১০ নভেম্বর ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  11. Hasan, Lamat R. (৮ অক্টোবর ২০১৬)। "Chapter & verse: poetic encounters for the love of language & culture" (ইংরেজি ভাষায়)। Catch News। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  12. "Poets Translating Poets at Goethe Institut today" (ইংরেজি ভাষায়)। দ্য ইনডিপেন্ডেন্ট। ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬ 
  13. "শাহনাজ মুন্নী" (ইংরেজি ভাষায়)। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। সংগ্রহের তারিখ ১৩ নভেম্বর ২০১৬