শঙ্খচিল (চলচ্চিত্র)

শঙ্খচিল ভারতের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারজয়ী নির্মাতা গৌতম ঘোষের সিনেমা। শঙ্খচিল ছবির মূল চরিত্রে অভিনয় করছেন পশ্চিমবঙ্গের অভিনেতা প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় ও বাংলাদেশের কুসুম শিকদার[২] ১৯৪৭ সালের দেশভাগের প্রেক্ষাপটে গড়ে উঠেছে সিনেমাটির গল্প।

শঙ্খচিল
Shankhachil
শঙ্খচিল চলচ্চিত্র.png
শঙ্খচিল ছবির বাণিজ্যিক পোষ্টার
পরিচালকগৌতম ঘোষ
প্রযোজকইমপ্রেস টেলিফিল্মস, আশীর্বাদ চলচ্চিত্র
রচয়িতাসায়ন্তনী পুততুন্ড
মুক্তি১৪ এপ্রিল ২০১৬[১]
দেশবাংলাদেশ
ভারত
ভাষাবাংলা

দৃশ্যপটসম্পাদনা

বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তের এক জনপদের গল্প ‘শঙ্খচিল’। যেখানে এক ভূগোল শিক্ষক, তার স্ত্রী ও ছোট মেয়েকে কেন্দ্র করেই এগিয়ে যাবে ছবিটি। প্রকাশিত পোস্টারে দেখা যায়- অল্প গাছ-গাছালি ঘেরা একটি বনের ভেতর দিয়ে হাঁটছে এক যুবক। তার পরনে সাদা শার্টের সঙ্গে কালো প্যান্ট। যুবকের কাঁধে অজ্ঞান অবস্থায় রয়েছে একটি যুবতী। ১৯৪৭ সালের দেশভাগ এবং পরবর্তী সময়ে সীমান্তবর্তী এলাকার মানুষের সুখ-দুঃখের গল্প নিয়েই মূলত কাহিনী তৈরি হয়েছে এই চলচ্চিত্রের।

শ্রেষ্ঠাংশেসম্পাদনা

কাহিনী সংক্ষেপেসম্পাদনা

শঙ্খচিল, দেশের দক্ষিণ দিকের সীমান্তবর্তী গ্রামের মানুষের গল্প। দেশভাগ আর মানুষের ওপর সে ভাগাভাগির ভোগান্তি নিয়ে গল্প ডালপালা মেলেছে। শুনে ভীষণ জটিল বিষয় মনে হবে। বিষয় জটিলই, তবে পরিচালক গৌতম ঘোষ জটিল গল্প সরল করে বলায় দক্ষ । লালনকে নিয়ে মনের মানুষ আর শূন্য অঙ্ক দেখে একই রকম অনুভব হয়েছিল।

ছবি নির্মাণে তার বিষয় বেছে নেওয়া দেখেও অবাক হতে হয়। বিষয়ে বৈচিত্র্য থাকে। সে বৈচিত্র্যে সৃষ্টি হয় প্রথম মুগ্ধতা।

দেশভাগ, ধর্ম, হিন্দু-মুসলমান, সীমান্ত সবই দুধারি তলোয়ারের মতো। এ রকম বিষয় নিয়ে চলচ্চিত্র নির্মাণ শত রকমের ঝুঁকিতে পূর্ণ। দুটো দেশ, দুটো ধর্ম, আবেগ, অন্ত্যমিল, বিরোধ সবই উঠে এসেছে চলচ্চিত্রে। উঠে এসেছে মন্দ-ভালো অত্যন্ত সরল প্রবাহে। সে মন্দ-ভালোতে আনন্দ লাভ ও বেদনা বোধ হয়। পীড়িত করে কিন্তু মনে সামান্য আক্রান্তর অনুভব তৈরি করে না। ছবির শেষ পর্যন্ত এ অসাধারণত্ব অটুট থাকে। শঙ্খচিল, গৌতম ঘোষ—উভয়ই এত সব কারণেই বিশেষ।

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "বৈশাখে আসছে প্রসেনজিৎ-কুসুমের 'শঙ্খচিল'"ভোরের কাগজ। ২৮ জানুয়ারি ২০১৬। 
  2. "আসছে 'শঙ্খচিল'"প্রথম আলো। মার্চ ০৪, ২০১৫।  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য)
  3. "দুই বাংলায় একসঙ্গে উড়বে 'শঙ্খচিল'"বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম। ২০১৬-০১-২৮।