রেহানা সুলতান

ভারতীয় অভিনেত্রী

রেহানা সুলতান (জন্ম: ১৯ নভেম্বর ১৯৫০) হলেন একজন ভারতীয় চলচ্চিত্র অভিনেত্রী। পুনের ভারতীয় চলচ্চিত্র ও দূরদর্শন সংস্থান থেকে স্নাতক সম্পন্ন করার পর দস্তক (১৯৭০) চলচ্চিত্রে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে তার বলিউডে অভিষেক ঘটে। উক্ত কাজের জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন। চেতনা (১৯৭০) চলচ্চিত্রে তিনি একটি যৌন আবেদনময়ী বলিষ্ট চরিত্রে অভিনয় করেন। এত সম্ভাবনাময় শুরুর পরও একই ধারার চলচ্চিত্র ও চরিত্র নির্বাচনের কারণে তার চলচ্চিত্র কর্মজীবনের সমাপ্তি ঘটে।

রেহানা সুলতান
জন্ম (1950-11-19) ১৯ নভেম্বর ১৯৫০ (বয়স ৬৯)
এলাহাবাদ, ভারত
মাতৃশিক্ষায়তনভারতীয় চলচ্চিত্র ও দূরদর্শন সংস্থান
পেশাঅভিনেত্রী
কর্মজীবন১৯৭০-১৯৯২
দাম্পত্য সঙ্গীবি. আর. ইশারা
পুরস্কারজাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার (১৯৭১)

প্রারম্ভিক জীবনসম্পাদনা

রেহানা সুলতান ১৯৫০ সালের ১৯শে নভেম্বর এলাহাবাদে এক বাহাই পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন।[১] তিনি ১৯৬৭ সালে হাই স্কুলের পড়াশোনা সম্পন্ন করেন এবং একই বছর পুনের ভারতীয় চলচ্চিত্র ও দূরদর্শন সংস্থানে (এফটিআইআই) অধ্যয়নের সুযোগ পান। এফটিআইআইয়ের স্নাতক কোর্সে তিনি বিশ্বনাথ আয়েঙ্গারের ডিপ্লোমা চলচ্চিত্র শাদি কি পেহলি সালগিরাহ চলচ্চিত্রে যৌন আবেদনময়ী চরিত্রে অভিনয় করেন।

কর্মজীবনসম্পাদনা

পরিচালক রাজিন্দর সিং বেদী ভারতীয় চলচ্চিত্র ও দূরদর্শন সংস্থানে রেহানা অভিনীত স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটি দেখার পর তাকে পূর্ণদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে কাজ করার প্রস্তাব দেন।[১] রেহানা ১৯৭০ সালে বেদী পরিচালিত দস্তক চলচ্চিত্রের মাধ্যমে বলিউডে আবির্ভূত হন।[২] তিনি এফটিআইআই থেকে আগত প্রথম ব্যক্তি, যিনি চলচ্চিত্রে প্রধান ভূমিকায় অভিনয় করেন। এই ছবিতে একজন নিঃসঙ্গ গৃহিণীর ভূমিকায় অভিনয় করে তিনি শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন। একই বছর তিনি বি. আর. ইশারা পরিচালিত চেতনা (১৯৭০) চলচ্চিত্রে তিনি একজন যৌনকর্মীর চরিত্রে অভিনয় করেন।[৩] তার এই কাজ হিন্দি চলচ্চিত্রে যৌনকর্মীর চিত্রায়নের ধারা পরিবর্তন করে দেয়।[২]

যৌন আবেদনময়ী চরিত্রে তার অভিনয় তাকে সফলতা এনে দিলেও তা তার ভবিষ্যৎ চলচ্চিত্র নির্বাচনের পথ সীমিত করে দেয়। তিনি পরবর্তী কালে হার জিৎ (১৯৭২), প্রেম পর্বত (১৯৭৩) এবং রাজনৈতিক ব্যঙ্গধর্মী কিস্‌সা কুরসি কা (১৯৭৭) ছবিতে অভিনয় করেন। ১৯৮১ সালে তিনি শত্রুঘ্ন সিনহার বিপরীতে পাঞ্জাবি চলচ্চিত্র পুত জাত্তান দে-এ অভিনয় করেন। ১৯৮৪ সালে তিনি বিজয় আনন্দের হাম রাহেঁ না রাহেঁ চলচ্চিত্রে শাবানা আজমীর সাথে কাজ করেন।[১]

ব্যক্তিগত জীবনসম্পাদনা

১৯৮৪ সালে তিনি তার চেতনা চলচ্চিত্রের পরিচালক ও লেখক বি. আর. ইশারার সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন এবং ধীরে ধীরে চলচ্চিত্র থেকে সরে যেতে থাকেন।[৩]

পুরস্কারসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. ঝা, সুভাষ কে. (২৫ নভেম্বর ২০০৫)। "'These girls have a Friday -to-Friday shelf life'"দ্য টেলিগ্রাফ ইন্ডিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৬ মে ২০১৯ 
  2. বিশ্বাস, সৌতিক (২০ মার্চ ২০১৭)। "The trail-blazing actress Bollywood forgot" (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৬ মে ২০১৯ 
  3. "পর্দা কাঁপানো রেহানা সুলতান, যাকে মনে রাখেনি বলিউড"বণিক বার্তা। ২০ মার্চ ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১৬ মে ২০১৯ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]

বহিঃসংযোগসম্পাদনা