রাজমহল

বাংলার ঐতিহাসিক রাজধানী

রাজমহল ভারতীয় অধিরাজ্যের, ঝাড়খণ্ড প্রদেশের সাহেবগঞ্জ জেলায় অবস্থিত একমাত্র মহকুমা শহর। শহরটি একসময় সুবা বাংলার রজধানী ছিল।

রাজমহল
আকবরনগর
নগর
রাজমহল ঝাড়খণ্ড-এ অবস্থিত
রাজমহল
রাজমহল
ভারতের ঝাড়খণ্ডে রাজমহলের অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৫°০৩′ উত্তর ৮৭°৫০′ পূর্ব / ২৫.০৫° উত্তর ৮৭.৮৪° পূর্ব / 25.05; 87.84স্থানাঙ্ক: ২৫°০৩′ উত্তর ৮৭°৫০′ পূর্ব / ২৫.০৫° উত্তর ৮৭.৮৪° পূর্ব / 25.05; 87.84
রাষ্ট্র ভারত
রাজ্যঝাড়খণ্ড
জেলাসাহেবগঞ্জ
জনসংখ্যা (২০০১)
 • মোট১৭,৯৭৪
ভাষা
 • দাপ্তরিকহিন্দি, বাংলা[১](দ্বিতীয় ভাষা)
 • স্থানীয়বাংলা
সময় অঞ্চলভাপ্রস (ইউটিসি+৫:৩০)

ইতিহাসসম্পাদনা

এখানে রাজমহলের যুদ্ধ সংগঠিত হয়।

মান সিংহের শাসনামলে ও সম্রাট আকবরের সময় রাজমহল বাংলার রাজধানী ছিল তখন এর নাম ছিল আকবরনগর[২]

রাজমহলের হৃদয়স্থানে অবস্থিত নীলকুঠি নামক স্থানটি ঐতিহাসিক ভাবে রাজমহলের গুরুত্বপূর্ণ স্থান। ব্রিটিশ শাসনের সময়, কাপড় ধোওয়াতে ব্যবহৃত নীল উৎপাদনের জন্যে এই নীলকুঠিটি ২৪ সেপ্টেম্বর ১৭৯৬ সালে ইংরেজরা স্থাপন করে।

জনতাত্বিকসম্পাদনা

২০০১ জনগণনা অনুসারে রাজমহলের মোট জনসংখ্যা ১৭,৯৭৪ জন।[৩] যার ৫২% পুরুষ ও ৪৮% নারী জনসংখ্যা। রজমহলের শিক্ষার হার ভারতের মোট শিক্ষার হার ৫৯.৫%-এর চাইতে কম; গড় ৪৮% তার মধ্যে নারী ৪৯% শিক্ষিত ও পুরুষ ৫৫% শিক্ষিত। রাজমহলের মোট জনসংখ্যার ১৯ শতাংশ ৬ বছর বা তার চাইতে কম বয়সী।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "ঝাড়খণ্ডে বাংলা হলো দ্বিতীয় সরকারি ভাষা"https://prothom-alo.com। ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ৩০ মে ২০১৬  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য); |প্রকাশক= এ বহিঃসংযোগ দেয়া (সাহায্য)
  2. Sarkar, Jadunath (1984). A History of Jaipur, c. 1503-1938, New Delhi: Orient Longman, আইএসবিএন ৮১-২৫০-০৩৩৩-৯, p.81
  3. "ভারতের জনগণনা ২০০১: ২০০১ জনগণনা থেকে তথ্য, গ্রাম, শহর ও নগরাঞ্চাল সহ"। ভারতীয় জনগণনা কমিশন। ২০০৪-০৬-১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ মে ২০১৬