মর্টার (অস্ত্র)

মর্টার সাধারণত একটি হালকা, সহজে বহনযোগ্য,মাজল-লোডেড অস্ত্র। যা একটি মসৃণ-ব্যারেল (যদিও কিছু মডেল রাইফেলড ব্যারেল ব্যবহার করে) একটি বেস প্লেটে স্থির ধাতব টিউব(রিকোয়েল ছড়িয়ে দেওয়ার জন্য), একটি হালকা দ্বিপদ-বিশিষ্ট মাউন্ট এবং একটি দৃষ্টি অভিনেত্র নিয়ে গঠিত। এরা উচ্চ-চাপযুক্ত ব্যালিস্টিক গতিপথে বিস্ফোরক গোলা (প্রযুক্তিগতভাবে বোমা বলা হয়)[২]উৎক্ষেপণ করে। মর্টারগুলি সাধারণত বিভিন্ন গোলা-বারুদের সাথে ঘনিষ্ঠ ফায়ার সাপোর্টের জন্য পরোক্ষ আগ্নেয়াস্ত্র হিসাবে ব্যবহৃত হয়।

পোল্যান্ডীয় এলএম-৬০ ডি ৬০ মিমি মর্টার, ২০০০ সালের দিক থেকে ব্যবহৃত আধুনিক পদাতিক মর্টার।[১]

ইতিহাসসম্পাদনা

মর্টার শত শত বছর ধরে ব্যবহৃত হচ্ছে। ১৪১৩ সালের নৌ যুদ্ধে কোরিয়ায় প্রথম দিকের মর্টার ব্যবহার করা হয় যখন কোরিয়ার বন্দুকধারীরা ওয়ান'গু (লাউ আকৃতির মর্টার) (완구, 碗口) তৈরি করে।[৩] ওয়ান'গু'র প্রাচীনতম সংস্করণটি ১৪০৭ সালের।[৪] চোই হে-সান (최해산, 崔海山) (১৩৮০-১৪৪৩), চোয়ে মু-সিওন (최무선) (১৩২৫-১৩৯৫) এর পুত্র, সাধারণত ওয়ান'গু উদ্ভাবনের কৃতিত্ব পান।[৫] অবরোধ যুদ্ধে প্রথম ব্যবহার করা হয় ১৪৫৩ সালে কনস্টান্টিনোপল অবরোধের সময়, যা জয়কারী মেহমেদ দ্বারা করা হয়েছিল। জিওভান্নি দা তাগলিয়াকোজ্জো কর্তৃক বেলগ্রেডের ১৪৫৬ সালের অবরোধের একটি ইতালীয় বিবরণে বলা হয়েছে যে, উসমানীয় তুর্কিরা সাতটি মর্টার ব্যবহার করেছিল যা "এক ইতালীয় মাইল উঁচুতে পাথরের গুলি" নিক্ষেপ করেছিল।[৬] বিমান যাত্রার সময়টি আপাতদৃষ্টিতে যথেষ্ট দীর্ঘ ছিল যে, পর্যবেক্ষকদের পোস্ট করে হতাহতের ঘটনা এড়ানো সম্ভব হয় যাতে তাদের গতিপথের বিষয়ে সতর্ক করা যায়।[৭]

 
১৬৮৭ সালের সেপ্টেম্বরে এথেন্সের অ্যাক্রোপলিসের ভেনিসীয় অবরোধের চিত্র সম্বলিত খোদাই। পার্থেননে আঘাত করা শেলের গতিপথ চিহ্নিত করা হয়েছে, যার ফলে বিস্ফোরণ ঘটেছিল।

 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. উদ্ধৃতি ত্রুটি: <ref> ট্যাগ বৈধ নয়; D24, LM-60D নামের সূত্রটির জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  2. "mortar" definition, Oxford Dictionary of English" (ইংরেজি ভাষায়)। Oxford University Press। সংগ্রহের তারিখ ১০ অক্টোবর ২০১৯ 
  3. Siege Weapons of the Far East (2): AD 960–1644 By Stephen Turnbull pg. 13
  4. "Toys"Culturecontent.com। ১০ অক্টোবর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৯ নভেম্বর ২০১৭ 
  5. "대완구"Data.kdata.kr। ১ ডিসেম্বর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৯ নভেম্বর ২০১৭ 
  6. Gábor Ágoston (২০০৫)। Guns for the Sultan: Military Power and the Weapons Industry in the Ottoman Empire। Cambridge University Press। পৃষ্ঠা 68। আইএসবিএন 978-0-521-84313-3 
  7. Franz Babinger (১৯৯২)। Mehmed the Conqueror and His Time। Princeton University Press। পৃষ্ঠা 140। আইএসবিএন 978-0-691-01078-6