বোঙা হাতি বাঁকুড়ার অন্যতম মাটির পুতুলের একটি লৌকিক নিদর্শন। বাঁকুড়া জেলা মূলত সাঁওতাল অধ্যুষিত। সাঁওতাল দেবতা সিং বোঙার উদ্যেশ্যে এই হাতি উৎসর্গ করা হয়।[১][২]

বোঙা হাতি
Terracotta art of Panchmura (22).jpg
বাঁকুড়ার জনপ্রিয় বোঙা হাতি
উৎপত্তিস্থলস্যান্দড়া, বাঁকুড়া, পশ্চিমবঙ্গ, ভারত
উপাদানপোড়ামাটি
আকৃতিহাতির মূর্তি
রংপোড়ামাটির রং
ব্যবহারঘর সাজানো
সংশ্লিষ্ট উৎসবসাঁওতাল দেবতা সিং বোঙার উৎসব
প্রস্তুতকারীদেবাশিষ কুম্ভকার

প্রস্তুতিসম্পাদনা

প্রথমে নরম মাটিকে চাকে গড়ে নিয়ে পরে শিল্পী হাত দিয়ে বাকি পুতুলটি তৈরী করেন। এই মূর্তি খুবই সুষম এবং শিল্পীর শিল্পকর্ম সুনিপুন। এরপর কাঁচা মাটির হাতিটিকে রোদে শুকিয়ে নিয়ে ভাটিতে পুড়িয়ে নেওয়া হয়। গোলাকার আকারের জন্য এই হাতি বিখ্যাত।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. বিশ্ব বাংলা। বাংলার পুতুল (পিডিএফ)। বিশ্ব বাংলা। [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  2. তারাপদ সাঁতারা (ডিসেম্বর, ২০০০)। পশ্চিমবঙ্গের লোকশিল্প ও শিল্পী সমাজ। কলকাতা: লোকসংস্কৃতি ও আদিবাসী সংস্কৃতি কেন্দ্র।  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য)