"সুরেন্দ্র কুমার সিনহা" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

সংশোধন
(সংশোধন)
(সংশোধন)
}}
 
'''বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা''' (জন্ম: [[১ ফেব্রুয়ারি]] [[১৯৫১]]) [[বাংলাদেশ|বাংলাদেশের]] একজন প্রখ্যাত আইনবিদ এবং ২১-তম [[বাংলাদেশের প্রধান বিচারপতিবৃন্দের তালিকা|প্রধান বিচারপতি]]।<ref>[http://www.prothom-alo.com/bangladesh/article/427441 দৈনিক প্রথম আলো]</ref> <ref>[http://mzamin.com/details.php?mzamin=NTg3NDA=&s=MQ== দৈনিক মানবজমিন]</ref> রাজনৈতিক বিতর্কে জড়িয়ে পড়ে গত [[২০১৭]] সালের [[১১ নভেম্বর]] তারিখে তিনি প্রধান বিচারপতির পদ হতে পদত্যাগ করেন।<ref>[http://www.bbc.com/bengali/news-41953350 বাংলাদেশের প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহা পদত্যাগ করেছেন - বিবিসি বাংলা।]</ref>
 
== জন্ম ও শিক্ষাজীবন ==
সুরেন্দ্র কুমার সিনহার জন্ম [[১৯৫১]] সালের [[১ ফেব্রুয়ারি]] [[মৌলভীবাজার জেলা|মৌলভীবাজার জেলার]] [[কমলগঞ্জ উপজেলা|কমলগঞ্জ উপজেলার]] তিলকপুর গ্রামে। <ref>[http://www.samakal.net/2015/01/18/112724 দৈনিক সমকাল]</ref> তাঁর বাবার নাম ললিত মোহন সিনহা এবং মায়ের নাম ধনবতী সিনহা। তিনি [[চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়| চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের]] অধীনে [[এলএলবি]] পাস করার পর [[১৯৭৪]] সালে সিলেট জেলা জজ আদালতে অ্যাডভোকেট হিসেবে কাজ শুরু করেন। তাঁর স্ত্রী সুষমা সিনহা। এ দম্পতির দুই মেয়ে সূচনা সিনহা ও আশা রানী সিনহা। <ref>[http://www.banglanews24.com/beta/fullnews/bn/358782.html বাংলানিউজ ২৪ ডট কম]</ref>
 
== কর্মজীবন ==
তিনি [[১৯৭৪]] সালে [[সিলেট জেলা|সিলেট]] বারে আইনজীবী হিসেবে তালিকাভুক্ত হন। [[১৯৭৮]] সালে হাইকোর্টে এবং [[১৯৯০]] সালে আপিল বিভাগে আইনজীবী হিসেবে তালিকাভুক্ত হন। [[১৯৯৯]] সালের [[২৪ অক্টোবর]] তিনি হাইকোর্টে বিচারক হিসেবে নিয়োগ পান [[২০০৯]] সালের [[১৬ জুলাই]] আপিল বিভাগের বিচারপতি হন। <ref>[http://www.risingbd.com/detailsnews.php?nssl=88196 রাইজিং বিডি ডট কম]</ref> বাংলাদেশের সংবিধানের ত্রয়োদশ সংশোধনীর মাধ্যমে আনা তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা আপিল বিভাগের যে বেঞ্চ বাতিল করেছিল, এস কে সিনহা ছিলেন তার অন্যতম সদস্য। এছাড়া [[২০১১]] সালে [[শেখ মুজিবুর রহমান|বঙ্গবন্ধু]] হত্যা মামলার চূড়ান্ত রায় দেওয়া বেঞ্চেও সদস্য হিসাবে ছিলেন তিনি। <ref>[http://bangla.bdnews24.com/bangladesh/article911560.bdnews বিডিনিউজ ২৪ ডট কম]</ref> তার সময়ে সর্ব প্রথম পাইলট প্রকল্প অধীনে বাংলাদেশের প্রতিটি আদালত ডিজিটালাইজেশনের উদ্যোগ নেওয়া হয়।<ref>{{সংবাদ উদ্ধৃতি|url=https://www.priyo.com/articles/%E0%A6%86%E0%A6%87%E0%A6%A8%E0%A6%9C%E0%A7%80%E0%A6%AC%E0%A7%80%E0%A6%A6%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%B8%E0%A6%B9%E0%A6%AF%E0%A7%8B%E0%A6%97%E0%A6%BF%E0%A6%A4%E0%A6%BE-%E0%A6%9B%E0%A6%BE%E0%A7%9C%E0%A6%BE-%E0%A6%AC%E0%A6%BF%E0%A6%9A%E0%A6%BE%E0%A6%B0-%E0%A6%AC%E0%A6%BF%E0%A6%AD%E0%A6%BE%E0%A6%97%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%AA%E0%A6%B0%E0%A6%BF%E0%A6%AC%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%A4%E0%A6%A8-%E0%A6%85%E0%A6%B8%E0%A6%AE%E0%A7%8D%E0%A6%AD%E0%A6%AC-%E0%A6%AA%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%A7%E0%A6%BE%E0%A6%A8-%E0%A6%AC%E0%A6%BF%E0%A6%9A%E0%A6%BE%E0%A6%B0%E0%A6%AA%E0%A6%A4%E0%A6%BF|title=আইনজীবীদের সহযোগিতা ছাড়া বিচার বিভাগের পরিবর্তন অসম্ভব: প্রধান বিচারপতি|newspaper=প্রিয়.কম|access-date=2017-10-03}}</ref>
 
== পুরস্কার ও সম্মাননা ==
২৮,০০৮টি

সম্পাদনা