পি সি সরকার জুনিয়র

ভারতীয় জাদুকর

পি.সি. সরকার, জুনিয়র (পুরো নাম প্রদীপ চন্দ্র সরকার) (জন্ম ৩১ জুলাই ১৯৪৬ সাল [২]) একজন কলকাতা, পশ্চিমবঙ্গ, ভারতে অবস্থিত একজন ভারতীয় জাদুকর। মায়াজাল বা জাদুবিদ্যায় তিনি বিশ্বজুড়ে খ্যাতি অর্জন করেছেন। তিনি বিখ্যাত ভারতীয় জাদুকর পি.সি.সরকারের [৩] দ্বিতীয় পুত্র। তিনি মার্লিন পুরস্কার লাভ করেন।[৪]

পি.সি. সরকার,জুনিয়র
জন্ম (1946-07-31) ৩১ জুলাই ১৯৪৬ (বয়স ৭৫)
জাতীয়তাভারতীয়
পেশাজাদুকর
রাজনৈতিক দলভারতীয় জনতা পার্টি
দাম্পত্য সঙ্গীজয়শ্রী দেবী
সন্তানমানেকা, মৌবনি, মমতাজ
ওয়েবসাইটP.C. Sorcar Jr.

তিনি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রয়োগ মনোবিজ্ঞান বিষয়ে ডক্টরেট ডিগ্রী লাভ করেন[১] এবং বিনোদনের ক্ষেত্রে সর্বাধিক ব্যক্তিগত বৈদেশিক মুদ্রা উপার্জনকারী হওয়ার রেকর্ড ধারণ করেন।[২]

ভারতীয় জনতা পার্টির প্রার্থী হিসাবে বারাসাত (লোকসভা কেন্দ্র) থেকে ভারতীয় সাধারণ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন এবং তৃণমূল কংগ্রেসের ডাঃ কাকলী ঘোষ দস্তিদারের কাছে পরাজিত হন। তিনি বিখ্যাত হিন্দু 'গডম্যান' সত্য সাঁই বাবার সর্বকালের সবচেয়ে বড় সমালোচক এবং তার কৌশলগুলি অনেকবার উন্মুক্ত করেছেন।

পরিবারসম্পাদনা

তার বড় ভাই প্রফুল্ল একজন ইলেকট্রিকাল ইঞ্জিনিয়ার এবং ছোট ভাই প্রভাস একজন বাণিজ্যিক পাইলট। পিতা পদ্মশ্রী পুরস্কার-বিজয়ী পি.সি.সরকার [৩] হার্ট অ্যাটাকের কারণে ৫৪ বছর বয়সে জাপানে মারা যান।

তিনি ২২ মে ১৯৭২,বিবাহ করেন (শ্রী অরুণ কুমার ঘোষ এবং শ্রীমতী নীলীমা দেবীর কন্যা) জয়শ্রীকে। তাদের তিনটি মেয়ে, মানেকা, মৌবনিমমতাজ। মানেকাও একজন জাদুকর। মৌবনি একজন মডেল এবং মমতাজ একজন বাংলা চলচ্চিত্র অভিনেত্রী।

২৬ ডিসেম্বর ২০০৬ সালে, যখন তিনি বারাসাতে একটি ম্যাজিক শো করছেন,ঐ সময় তার মা, বাসন্তি দেবী মারা যান।

ইন্দ্রজালসম্পাদনা

পি.সি.সরকাররের দল ইন্দ্রজাল, ৪৮ টন সরঞ্জাম, ৭৫ জন শিল্পী, ডজন ডজন সেটিংস, ১২ জন জাদু কন্যা, স্বপ্নময় লেজারের আলো ব্যবস্থা, ৪০০ টি জরির পোশাক, নিজস্ব অর্কেস্ট্রা দ্বারা মূল গান এবং ৫০ টিরও বেশি বিভ্রমের কৌশল ব্যবহার করে।

তার প্রথম পর্যায়ের অভিজ্ঞতা, ১৯৫৯ সালে,কলকাতার নিউ এমপায়ারে, তিনি তার পিতাকে সহায়তা করেন। ১৯৬৩ সালে, শিলিগুড়ি রেলওয়ে ইনস্টিটিউট হলে, তার প্রথম একক পারফরম্যান্স অনুষ্ঠিত হয়।

পি.সি.সরকাররের সেরা ম্যাজিক, বড় আকারের বস্তুগুলি অদৃশ্য করা। তাজমহল এবং ইন্দোর-অমৃতসর এক্সপ্রেস অদৃশ্য করেন। ৪ নভেম্বর ২০০০ সাল, তিনি আগ্রার কাখপুরাতে দুই মিনিটের জন্য তাজমহল "অদৃশ্য" করেন।। তিনি কলকাতার ৩০০ তম বার্ষিকী উপলক্ষ্যে ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালটি অদৃশ্য করেন। এবং ১৯৯২ সালে ভারতে বর্ধমান জংশনে এক বিশাল জনসাধারণের সামনে যাত্রীদের পূর্ণ ট্রেন অদৃশ্য করেছেন।

তিনি লন্ডনের ট্রফ্লাগার স্কয়ার থেকে, চোখ বেঁধে উচ্চ গতিতে সাইকেল চালান এবং একটি রেকর্ড তৈরি করেন।

গিলি গিলি গে (১৯৮৯)সম্পাদনা

ইশার চক্রবর্তী পরিচালিত এবং ইন্দ্রজাল প্রযোজনার তৈরি ১৯৮৯ সালের গিলি গিলি গে,একটি শিশু চলচ্চিত্র। পি.সি. সরকার জুনিয়র, একটি ডবল ভূমিকা অভিনয় করেন। এছাড়াও অভিনয় করেন উৎপল দত্ত, সন্তোষ দত্ত, শ্রীলা মজুমদার

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Sankar, Anand (জুলাই ১২, ২০০৮)। "By the sleight of my hand"Business Standard। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০২-২৫ 
  2. "The magical world of P C Sorcar"Sunday TOI। ২৫ মার্চ ২০০১। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০২-২৫ 
  3. https://en.wikipedia.org/wiki/P._C._Sorcar
  4. "Merlin Award Recipients"। www.magicims.com। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০২-২৫ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা

পি. সি. সরকারের পরিবারের উল্লেখযোগ্য ব্যক্তিবর্গ
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
বাসন্তী দেবী
 
 
 
পি সি সরকার
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
মানিক সরকার
 
 
 
শিখা দেবী
 
 
 
পি সি সরকার জুনিয়র
 
 
 
জয়শ্রী দেবী
 
 
পিসি সরকার ইয়ং
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
পিয়া সরকার
 
পায়েল সরকার
 
 
মনিকা সরকার
 
মৌবাণী সরকার
 
মমতাজ সরকার