প্রধান মেনু খুলুন

পিঁপড়াবিদ্যা

বাংলা চলচ্চিত্র

পিঁপড়াবিদ্যা ২০১৪ সালের ২৪ অক্টোবর[১] মুক্তিপ্রাপ্ত বাংলাদেশী নাট্য চলচ্চিত্র। মোস্তফা সরয়ার ফারুকী রচিত এবং পরিচালিত চলচ্চিত্রটি প্রযোজনা করেছে ইমপ্রেস টেলিফিল্ম এবং পরিবেশনা করেছে জাজ মাল্টিমিডিয়া[২] চিত্রগ্রহণ করেছেন গোলাম মওলা নবীর। চলচ্চিত্রে অভিনয়ে ছিলেন শিনা চৌহান,[৩][৪] নূর ইমরান মিঠু, সাব্বির হাসান লিখন, মুকিত জাকারিয়া, মোহিনী মৌ। চলচ্চিত্রে গান গেয়েছে বাংলাদেশী সঙ্গীতদল চিরকুট[৫]

পিঁপড়াবিদ্যা
পিঁপড়াবিদ্যা (২০১৪).jpg
পরিচালকমোস্তফা সরয়ার ফারুকী
প্রযোজক
রচয়িতামোস্তফা সরয়ার ফারুকী
শ্রেষ্ঠাংশে
বর্ণনাকারীমোস্তফা সরয়ার ফারুকী
সুরকার
চিত্রগ্রাহকগোলাম মওলা নবীর
সম্পাদক
প্রযোজনা
কোম্পানি
পরিবেশকজাজ মাল্টিমিডিয়া
মুক্তি
  • ২৪ অক্টোবর ২০১৪ (2014-10-24) (বাংলাদেশ)
[১]
দৈর্ঘ্য৯৫ মিনিট
দেশবাংলাদেশ
ভাষাবাংলা

চলচ্চিত্রটি এশিয়ান প্রজেক্ট মার্কেট কর্তৃক নির্বাচিত হয়েছিল।[৬][৭] এছাড়াও চলচ্চিত্রটি নির্বাচিত হয়েছিল এশিয়া প্যাসিফিক স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ড, বুসান চলচ্চিত্র উৎসব এবং সাংহাই চলচ্চিত্র উৎসবের জন্য। পাশাপাশি চলচ্চিত্রটির উদ্বোধনী প্রদর্শনী হয় দশম দুবাই আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে। ২০১৪ সালের ৬ থেকে ১৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত দুবাইয়ে অনুষ্ঠিতব্য এই উৎসবের প্রতিযোগিতা বিভাগের জন্য নির্বাচিত হয়েছিল চলচ্চিত্রটি।[৮][৯]

কাহিনীসংক্ষেপসম্পাদনা

 
পিঁপড়াবিদ্যা চলচ্চিত্রের একটি দৃশ্যে নূর ইমরান মিঠু

বাংলাদেশে পড়াশোনা শেষ করে বড় একটা বেকার শ্রেণী তৈরি হয়। তাদের অনেক স্বপ্ন থাকে। ভালো একটা চাকরি, সুন্দরী একটি মেয়ের সঙ্গ, দামি গাড়ি হাঁকিয়ে বেড়ানো। কিন্তু স্বপ্নের নাগাল পাওয়া আরেকটি দুঃস্বপ্নের ব্যাপার। সব সুখ-স্বপ্নই তখন তার কাছে রসগোল্লা, আর সে কেবল একটা নিরীহ পিঁপড়া। মিঠু একজন তরুণ গ্রাজ্যুয়েট। সে প্রতিদিন তার বাড়ি ফেরবার পথে চকমকে ঢাকা শহরের দিকে তাকিয়ে থাকে। সে জানে সে এই জগতের সদস্য নয়। সে তার নিজস্ব এক জগৎ বানিয়ে নেয়। নিজের জগতেই সে সুখী।

‘পিঁপড়াবিদ্যা’ চলচ্চিত্রটির গল্প সমকালীন। হাজার বছর ধরে চলে আসা মধ্যবিত্ত পরিবারের এক যুবকের আশা, না-পাওয়া, অবদমিত বিষণ্ণতা, সীমাবদ্ধতা, লোভ ও লোভের পঙ্খিরাজের লাগামহীন বিচরণকে তুলে ধরা হয়েছে।[১০]

অভিনয়েসম্পাদনা

উৎপাদনসম্পাদনা

চলচ্চিত্রের দৃশ্যায়ন করা হয়েছে ঢাকা এবং কক্সবাজারের বিভিন্ন স্থানে। প্রায় চল্লিশ দিন ধরে এর শ্যুটিং চলে।[১১]

অভ্যর্থনাসম্পাদনা

পিঁপড়াবিদ্যা চলচ্চিত্রটি কো-প্রোডাকশন মার্কেট এশিয়া প্রোজেক্ট মার্কেটের (এপিএম) জন্য নির্বাচিত হয়েছিল। ২০১৩ সালের ৩০টি চলচ্চিত্রের মধ্যে এটি স্থান করে নিয়েছে।[৬][৭] এছাড়াও এশিয়া প্যাসিফিক স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ড, বুসান চলচ্চিত্র উৎসবের "উইন্ডোস অন এশিয়ান সিনেমা" বিভাগের জন্য[১২][১৩] এবং সাংহাই চলচ্চিত্র উৎসবের গোল্ডেন গবলেট পুরস্কার প্রতিযোগিতার জন্য নির্বাচিত হয়েছে।[১৪] সিঙ্গাপুর আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে "সিলভার স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ডের" জন্য মনোনীত হয়েছে চলচ্চিত্রটি।[১৫]

আরো দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "'পিঁপড়াবিদ্যা'র মুক্তি ২৪ অক্টোবর"দৈনিক প্রথম আলো। আগস্ট ২১, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  2. "পিঁপড়াবিদ্যার সঙ্গে জাজ মাল্টিমিডিয়া"দৈনিক প্রথম আলো। সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  3. "পিঁপড়াবিদ্যা'র টানে শিনা"দৈনিক প্রথম আলো। অক্টোবর ১৪, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  4. "পিঁপড়াবিদ্যা আমাকে ডাকছে"দৈনিক প্রথম আলো। অক্টোবর ২৩, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  5. "চিরকুটের 'লালে লাল'"দৈনিক প্রথম আলো। জুন ২২, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  6. "এশিয়ান প্রোজেক্ট মার্কেটে 'পিঁপড়াবিদ্যা'"দৈনিক প্রথম আলো। আগস্ট ২১, ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  7. "Farooki's Busan connection"দ্য ডেইলি স্টার (বাংলাদেশ))। আগস্ট ২১, ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর , ২০১৪  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |সংগ্রহের-তারিখ= (সাহায্য)
  8. "দুবাই উৎসবে পিঁপড়াবিদ্যা"। সংগ্রহের তারিখ ২২ নভেম্বর ২০১৩ 
  9. "Pipra Bidya to contest in Dubai film fest"। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৩ 
  10. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ১২ ডিসেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ ডিসেম্বর ২০১৩ 
  11. "Farooki completes Piprabidya's shooting"। সংগ্রহের তারিখ 08 July 2013  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |সংগ্রহের-তারিখ= (সাহায্য)
  12. "মুক্তির আগে ফারুকীর পিঁপড়াবিদ্যা 'স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ড' ও 'বুসানে'"দৈনিক প্রথম আলো। সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  13. "স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ড ও বুসানে পিঁপড়াবিদ্যা"দৈনিক প্রথম আলো। সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  14. "গোল্ডেন গবলেট প্রতিযোগিতায় 'পিঁপড়াবিদ্যা'"দৈনিক প্রথম আলো। মে ৩০, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 
  15. "সিলভার স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ডে মনোনীত 'পিঁপড়াবিদ্যা'"দৈনিক প্রথম আলো। অক্টোবর ২৮, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ১২, ২০১৪ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা