থল মরুভূমি

পাকিস্তানের মরুভূমি

থল মরুভূমি (উর্দু, পাঞ্জাবী: صحراےَ تھل) হলো পাকিস্তানের পাঞ্জাবে অবস্থিত একটি মরুভূমি। মরুভূমিটির বৃহত্তর বিস্তৃত অঞ্চলটি পোঠোহার মালভূমির নিকটে ঝিলামসিন্ধু নদীর মাঝখানে অবস্থিত। এর উত্তর থেকে দক্ষিণে মোট দৈর্ঘ্য ১৯০ মাইল (৩০৫ কিলোমিটার) এবং সর্বাধিক প্রস্থ ৭০ মাইল (১১০ কিলোমিটার) এবং সর্বনিম্ন প্রস্থ ২০ মাইল। মরুভূমিটি ঝিলাম নদীর বাম তীর থেকে ভাক্কার, খুশব, মিয়ানওয়ালী, লেয়াহ, মুজাফফারগড় এবং ঝং জেলা জুড়ে বিস্তৃত।[১][২] ভৌগোলিকভাবে এটি চোলিস্তান এবং থর মরুভূমির অনুরূপ।

থল মরুভূমি
Noorpur Thal desert road, engulfed in a sand storm.jpg
দৈর্ঘ্য৩০৫ কিলোমিটার (১৯০ মাইল)
ভূগোল
অবস্থানপাকিস্তান পাঞ্জাব, পাকিস্তান

থল খাল প্রকল্পসম্পাদনা

 
থল খাল

থল খাল প্রকল্পের ইতিহাস ১৩০ বছরেরও বেশি সময় ধরে চলে আসছে। ১৮৭৩ সালে এই প্রকল্পটি প্রথমে পুরো থাল দোয়াবের জন্য ভাবা হয়েছিলো। এই অঞ্চলটি সিন্ধু নদের পানি দিয়ে সেচ দেওয়ার প্রস্তাব[৩] ১৯১৯, ১৯২১, ১৯২৪, ১৯২৫, ১৯৩৬ এবং ১৯৯৯ সালে বারবার আলোচনার জন্য উত্থাপিত হয়েছিলো। এটি নদী নিম্ন তীরবর্তী অঞ্চলে পানির প্রাপ্যতা মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করবে এই যুক্তির কারণে এই প্রস্তাবটি বারবার প্রত্যাখ্যান করা হয়েছিলো। ১৯৭৫ সালে জাতীয় অর্থনৈতিক কাউন্সিলের (ইসিএনইসি) কার্যনির্বাহী কমিটি প্রকল্পটির অনুমোদন দিতে অস্বীকৃতি জানালে প্রকল্পটির প্রস্তাব আবারও আলোচনায় আসে। অবশেষে, ১৬ আগস্ট, ২০০১-এ পাকিস্তানের রাষ্ট্রপতি পারভেজ মুশাররফ ৩০ বিলিয়ন-রুপির বৃহত্তর থল খাল প্রকল্পের (জিটিসি) প্রবর্তন করেন।[৪] বৃহত্তর থল খাল প্রকল্পের দ্বিতীয় ধাপ (চৌবাড়া শাখা) ২০২০ সালে চালু হয়। এটি মরুভূমির প্রায় ৩ লক্ষ একর জমিকে সেচের আওতায় আনবে।[৫]

সমাজ ও সংস্কৃতিসম্পাদনা

 
খানসার, ভাক্কার, থল এ অবস্থিত একটি বাড়ি

থেলোচি উপভাষা জেলাগুলোতে ব্যবহৃত হয়। জেলার জনসংখ্যা একটি মরুভূমির একটি বড় অংশ জুড়ে বিস্তৃত, যার ফলে লোকেদের দীর্ঘ দূরত্বে ভ্রমণ করতে হয়, পাশাপাশি কাজের জন্য তারা পাঞ্জাবের মধ্য অঞ্চলে পাড়ি জমান।

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "thal desert information"www.panaderiatroyano.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০১-১১ 
  2. "Facts About Thal Desert"Informative Facts (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৯-০৩-১৬। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০১-১১ 
  3. "Punjab Portal"punjab.gov.pk। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০১-১২ 
  4. "Greater Thal Canal Study" (পিডিএফ)। ২৬ জানুয়ারি ২০২০ তারিখে মূল (পিডিএফ) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১২ জানুয়ারি ২০২১ 
  5. "Irrigation dept claims credit for executing key projects in 2019"DAWN.COM (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২০-০১-০১। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০১-১২ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা