তুর্কি বর্ণমালা

তুর্কি বর্ণমালা (তুর্কী: Türk alfabesi) হলো লাতিন-ভিত্তিক একটি অশব্দীয় লিখন পদ্ধতি যা মূলত তুর্কি ভাষার জন্য ব্যবহার করা হয়। অতিরিক্ত ৬টি বর্ণসহ (Ç, Ğ, I, İ, Ö, Ş এবং Ü) এই বর্ণমালায় মোট ২৯টি অক্ষর বিদ্যমান। তুর্কি ধ্বনিতত্ত্বের উপর ভিত্তি করে এই বর্ণমালাটি তৈরি করা হয়েছে। ১৯২৮ সালে মুস্তাফা কেমাল আতাতুর্ক তাঁর বিভিন্ন সংস্কারমূলক কর্মসূচির অংশ হিসাবে পুরাতন উসমানীয় লিপিকে আধুনিক এই লিখন পদ্ধতি দ্বারা প্রতিস্থাপন করেন। একটি আইন জারির মাধ্যমে ১৯২৯ সালের পহেলা জানুয়ারি থেকে তুরস্কের সকল সরকারি কাজে এই লিপির ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়।[১][২] সেই থেকে এটি তুর্কি ভাষার জন্য ব্যবহৃত প্রধান এবং সবচেয়ে বেশি প্রচলিত লিখন পদ্ধতি।

তুর্কি বর্ণমালার অক্ষরসমূহ।

বর্ণসম্পাদনা

তুর্কি বর্ণ তুর্কি নাম আ-ধ্ব-ব রূপ ধ্বনিগত রূপ বাংলা
প্রতিবর্ণীকরণ
উদাহরণ ও মন্তব্য
Aa [a] Ankara আঙ্কারা শহর (আঙ্কারা)
Bb[৩] বে [b] ব্‌ Bursa বুরসা শহর (বুর্সা)
Cc জে [dʒ] জ্‌ Cemal Gürsel সাবেক প্রধানমন্ত্রী জেমাল গুর্সেল (জেমাল্‌ গ্যুর্‌সেল্‌)
Çç চে [tʃ] চ্‌ Çorlu চোরলু (চোর্লু)
Dd[৪] দে [d] দ্‌ Diyarbakır দিয়ারবাকির শহর (দিয়ার্‌বাক্‌ই্যর্‌)
Ee [e] Eskişehir এস্কিশেহির শহর (এস্‌কিশেহির্‌)
Ff ফে [f] ফ়্‌ Ferit Melen সাবেক প্রধানমন্ত্রী ফেরিত মেলেন (ফ়েরিৎ মেলেন্‌)
Gg গে/গ্যে [g] বা [ɟ] গ্‌ বা গ্য্‌ Gaziantep গাজিয়ান্তেপ শহর (গাজ়িআন্‌তেপ্‌)
Ğğ[৫] য়ুমশাক গে/গ্যে [ɣ] গ়্‌/য়্‌ বা অনুচ্চারিত য় Recep Tayyip Erdoğan প্রধানমন্ত্রী রেজেপ তায়িপ এর্দোয়ান (রেজেপ্‌ তায়িপ্‌ এর্দোআন্‌)
এই ধ্বনিটি শব্দের আদিতে বসে না।
Hh[৬] হে, হা [h] হ্‌ Hatay হাতায় অঙ্গরাজ্য (হাতায়্‌)
ই্য [ɯ] ই্য Isparta ইস্পার্তা শহর (ই্যস্‌পার্‌তা)
İi [i] İzmir ইজমির শহর (ইজ়্‌মির্‌)
İ, i বর্ণ বড় হাতেও লিখলে, উপরের বিন্দুটি লেখা হয় (যথা İ), I, ı বর্ণের আকার যাতে না নেয়।
Jj ঝে/য্হে [ʒ] ঝ়্‌ এই ধ্বনিটি শুধুমাত্র বিদেশী শব্দে পাওয়া যায়।
Kk[৭] কে, কা [k] বা [c] ক্‌ বা ক্য্‌ Kocaeli কোজায়েলি অঙ্গরাজ্য (কোজাএলি)
Ll ল্বে/লে [ɫ] বা [l] ল্ব্‌ বা ল্‌
Mm মে [m] ম্‌ Mersin মেরসিন শহর (মের্সিন্‌)
Nn নে [n] ন্‌ Nevşehir নেভশেহির শহর (নেভ়্‌শেহির্‌)
Oo [o] Osmaniye ওসমানিয়ে শহর (ওস্‌মানিয়ে)
Öö ও্য [œ] ও্য Hilmi Özkök জেনারেল হিলমি ওজকোক (হিল্‌মি ও্যজ়্‌ক্যোক্‌)
Pp[৮] পে [p] প্‌ Orhan Pamuk ওরহান পামুক, লেখক (ওর্হান্‌ পামুক্‌)
Rr ড়ে/রে [ɾ] ড়্ বা র্‌ Rize রিজে শহর (রিজ়ে)
Ss সে [s] স্‌ Samsun সামসুন শহর (সাম্‌সুন্‌)
Şş শে [ʃ] শ্‌ Şanlıurfa শানলিউরফা শহর (শান্‌ল্যিউর্ফ়া)
Tt[৯] তে [t] ত্‌ Trabzon ত্রাবজোন শহর (ত্রাব্‌জ়োন্‌)
Uu [u] Uşak উশাক শহর (উশাক্‌)
Üü উ্য [y] উ্য Ümraniye উমরানিয়ে (উ্যম্‌রানিয়ে)
Vv ৱে [v] ভ়্‌/ৱ্ Van ভান শহর (ভ়ান্‌)
Yy য়ে [j] য়্‌ ইয়, য় Yozgat ইয়োজগাত শহর (য়োজ়্‌গাৎ)
Zz যে [z] জ়্‌ Zonguldak জোনগুলদাক শহর (জ়োন্‌গুল্‌দাক্‌)
Qq[১০] ক্যু - - - -
Ww[১১] - - - - -
Xx[১২] ইক্স - - - -

বিঃদ্রঃসম্পাদনা

  • তুর্কি ভাষার স্থানীয় শব্দের ক্ষেত্রে Q, W এবং X, এই তিনটি বর্ণের কোনো ব্যবহার নেই। এই তিনটি বর্ণকে যথাক্রমে "K", "V" এবং "Ks" দ্বারা প্রতিস্থাপন করে দেওয়া হয়। শুধুমাত্র অল্প কিছু ক্ষেত্রে অন্য ভাষা থেকে পাওয়া কৃৃৃতঋণ শব্দের ক্ষেত্রে এই বর্ণগুলো প্রতিস্থাপন না করে সরাসরি ব্যবহার করা হয়।
  • B ও P বর্ণ দুটি শব্দের প্রথমে ও মাঝে স্বতঃস্ফূর্তভাবে ব্যবহৃত হলেও শব্দের শেষে B বর্ণটির ব্যবহার ও উচ্চারণ পরিবর্তিত হয়ে P হয়ে যায়। যেমন: আরবি "রজ", তুর্কি ভাষায় হবে "রেচে" (Rajab ~ Recep)। একইভাবে, D ও T বর্ণ দুটিও একই নিয়মে শব্দে বসে, এবং শব্দের শেষে D একই নিয়মে পরিবর্তিত হয়ে T হয়ে যায়। যেমন: আরবি "আহমে", তুর্কি ভাষায় হবে "আহমে" (Ahmed ~ Ahmet)।
  • "Ğ" একটি বিশেষ বর্ণ যা শুধুমাত্র তুর্কীয় ভাষাসমূহতেই দেখা যায়। বাংলায় এটি "য়" এর অত্যন্ত নিকটবর্তী। অনেকেই এটিকে "" ভেবে ভুল করেন। যেমন- পুর্বে অধিকাংশ সংবাদ মাধ্যমে "Erdoğan" নামটিকে বাংলায় "এরদোগান" লিখে ভুল করা হয়েছিল। এর সঠিক উচ্চারণ: এর্দোআন্‌ ~ এরদোয়ান।
  • K এবং H উভয় বর্ণের সাধারণ নাম "হা" বা "হে"। উচ্চারণের জটিলতার ফলে এমনটা হয়েছে। তবে বর্তমানে আধুনিক প্রমিত তুর্কিতে উভয় বর্ণের জন্য আলাদা নাম ও উচ্চারণ বিদ্যমান।

এছাড়াও তুর্কি বর্ণমালায় সার্কামফ্লেক্স-যুক্ত â, î ও û ব্যবহার করা হয়। আ-ধ্ব-ব'তে এর মান যথাক্রমে [aː], [iː] এবং [uː]। বাংলায় এগুলোকে দীর্ঘস্বর (, , ) বলা হয়। নিয়মিত ব্যবহার হলেও এগুলো তুর্কি বর্ণমালার অংশ নয়। এগুলোর নাম দীর্ঘস্বর হলেও প্রকৃত পক্ষে বাংলা ধ্বনিতত্ত্বে কোনো দীর্ঘস্বর নেই। প্রতিবর্ণীকরণের সময় â এর পরিবর্তে "আ", î এর পরিবর্তে "ই" ও û এর পরিবর্তে "উ" লেখা হয়।

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Dil Derneği, Yazım Kılavuzu, 2002 (the writing guide of the Turkish language)
  2. Nationalist Notes, Time, July 23, 1928
  3. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  4. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  5. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  6. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  7. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  8. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  9. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  10. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  11. দেখুন, বিঃদ্রঃ
  12. দেখুন, বিঃদ্রঃ