পুরাণে গ্রিক পাতাল একটি অন্যভুবন যেখানে মৃত্যুর পর আত্মারা গমন করে। পরকাল সম্পর্কে গ্রিকদের মূল ধারণা ছিল এই যে মৃত্যুর মুহূর্তে আত্মা মৃতদেহ থেকে আলাদা হয়ে যায় এবং প্রাক্তন ব্যক্তির আকার ধারণ করে, তারপর তাকে পাতালের প্রবেশদ্বারে পৌঁছে দেয়া হয়।[১]

হার্মিস সাইকোপম্পোস পাথরের ওপর বসে, একটি আত্মাকে পাতালে পরিচালনা করার জন্য তৈরি হচ্ছে। অ্যাটিক শ্বেত-ভূমি লেকিথোস, প্রা. ৪৫০ খ্রি.পূ., শ্টাটলিচে আন্টীকান-জামল্যুঙ্গেন (Inv. 2797)
গুস্তাভ দোরের হস্তে দান্তের পাতাল দেশের চিত্রাঙ্কন (ফলক ৯): ক্যারোনের আগমন

গ্রিক পুরাণে পাতালকে এর অধিপতি দেবতা হেডিসের নামে মাঝেমধ্যে ডাকা হয়ে থাকে এবং এর অবস্থান বর্ণিত আছে সাগরের বহিঃস্থ সীমার দিকে কিংবা পৃথিবীর প্রান্ত বা গর্ভের নিচে।[২] একে দীপ্ত অত্যুজ্বল অলিম্পাস পর্বতের নিরংশু তমসাচ্ছন্ন প্রতিরূপ হিসেবে বিবেচনা করা হয় - দেবরাজ্যের অনুরূপ একটি প্রেতরাজ্য[৩] হেডিস একটি অদৃশ্য পুরী জীবিতদের কাছে, এটি শুধুমাত্র মৃতদের জন্যে।[৪]

ভূগোলসম্পাদনা

নদ-নদীসম্পাদনা

পাতাল লোকের প্রবেশদ্বারসম্পাদনা

তার্তারুসসম্পাদনা

মন্দারের তৃণভূমিসম্পাদনা

শোক ক্ষেত্রসম্পাদনা

এলিসিউমসম্পাদনা

ধন্যদ্বীপপুঞ্জসম্পাদনা

শ্বরগণসম্পাদনা

হেডিসসম্পাদনা

পার্সিফোনসম্পাদনা

হেকাতেসম্পাদনা

এরিনিয়েসম্পাদনা

হার্মিসসম্পাদনা

পাতালের বিচারকগণসম্পাদনা

ক্যারোনসম্পাদনা

সের্বেরুসসম্পাদনা

থ্যানাটোসসম্পাদনা

নিক্সসম্পাদনা

তার্তারুসসম্পাদনা

আক্লিসসম্পাদনা

স্টিক্সসম্পাদনা

শ্রুতি-গল্পসম্পাদনা

তথ্যসুত্রসম্পাদনা

  1. Long, J. Bruce (২০০৫)। Encyclopedia of Religion। Detroit: Macmillan Reference USA। পৃষ্ঠা 9452। 
  2. Garland, Robert (১৯৮৫)। The Greek Way of Death। London: Duckworth। পৃষ্ঠা 49। 
  3. Fairbanks, Arthur (১ জানুয়ারি ১৯০০)। "The Chthonic Gods of Greek Religion"। The American Journal of Philology21 (3): 242। জেস্টোর 287716ডিওআই:10.2307/287716 
  4. Albinus, Lars (২০০০)। The House of Hades: studies in ancient Greek eschatology। Aarhus University Press: Aarhus। পৃষ্ঠা 67। 

আরও দেখুনসম্পাদনা