এক থা টাইগার

২০১২ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত হিন্দি ভাষার চলচ্চিত্র

'এক থা টাইগার' (ইংরেজি: Ek Tha Tiger) ২০১২ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত একটি বলিউড চলচ্চিত্র। অ্যাকশনধর্মী এই রোমান্টিক চলচ্চিত্রের মূল ভূমিকায় অভিনয় করেন সালমান খানক্যাটরিনা কাইফ। চলচ্চিত্রটির প্রযোজনা করেছেন আদিত্য চোপড়া ও পরিচালনা করেছেন কবির খান। যশ রাজ ফিল্মস এর সঙ্গে এটি কবির খানের তৃতীয় চলচ্চিত্র প্রথমটি কাবুল এক্সপ্রেস (২০০৬) এবং দ্বিতীয়টি নিউ ইয়র্ক (২০০৯)। এছাড়া এটি যশ রাজ ফিল্মস সঙ্গে সালমান খানের প্রথম কাজ। চলচ্চিত্রের মূলগান তৈরী করেছেন সোহাইল সেন এবং অতিথি সুরকার সাজিদ-অয়াজিদ।[৪]

এক থা টাইগার
এক থা টাইগার চলচ্চিত্রের পোস্টার.jpg
এক থা টাইগার চলচ্চিত্রের পোস্টার
পরিচালককবির খান
প্রযোজকআদিত্য চোপড়া
চিত্রনাট্যকারকবির খান
নিলাশ মিশ্র
কাহিনিকারআদিত্য চোপড়া
শ্রেষ্ঠাংশেসালমান খান
ক্যাটরিনা কাইফ
রনভীর শোরে
আনান ইসলাম
সুরকারমূলগান:
সোহাইল সেন
অতিথি সুরকার:
সাজিদ-অয়াজিদ
আবহ সঙ্গীত:
জুলিয়াস প্যাকিয়াম
চিত্রগ্রাহকঅসীম মিশ্র
সম্পাদকরামেস্বর এস ভাগাত
প্রযোজনা
কোম্পানি
মুক্তি১৫ আগস্ট ২০১২; ৮ বছর আগে (2012-08-15)
দৈর্ঘ্য১৩২ মিনিট[১]
দেশ ভারত
ভাষাহিন্দি
নির্মাণব্যয়৭৫ কোটি (US$১০.১৩ মিলিয়ন)[২]
আয়৩০৭ কোটি (US$৪১.৪৫ মিলিয়ন)
(বিশ্বব্যাপী আয়)[৩]

এক থা টাইগার চলচ্চিত্রের জন্য প্রি প্রডাকশনের কাজ শুরু করে ২০১০ সালের দ্বিতীয়ার্ধ থেকে, পরে স্ক্রিপ্ট সম্পন্ন হয়। এটির মূল চিত্রায়ন শুরু হয় সেপ্টেম্বর ২০১১ এবং জুন ২০১২-এ শেষ হয়ে যায়। চলচ্চিত্রটি তিনটি মহাদেশের পাঁচটি দেশ জুড়ে চিত্রায়ন করা হয়েছে।[৫]

প্রাথমিকভাবে চলচ্চিত্রটির মুক্তির তারিখ নির্ধারন করা হয়েছিল জুন ২০১২-এ, পরে তা বিলম্বের সম্মুখীন হয় এবং ১৫ আগস্ট, ২০১২ স্বাধীনতা দিবস-এ মুক্তি লাভ করে।

মুক্তির পর থেকে, এক থা টাইগার ভারতে সমালোচকেদের মিশ্র প্রক্রিয়ার পাশাপাশি সাধারণভাবে বিদেশী অভ্যর্থনা পাচ্ছে যা ইতিবাচক, ততক্ষণ এটি বক্স অফিসে ব্লকবাস্টার এর তালিকায় নাম লেখাতে সক্ষম হয়েছে।

মূলগল্পসম্পাদনা

একজন এজেন্ট-যার সাঙ্কেতিক নাম "টাইগার" সালমান খান- ভারতের শীর্ষ গুপ্তচর এবং রিসার্চ অ্যান্ড অ্যানালাইসিস উইং (র) এর একজন কর্মকর্তা - যিনি উত্তর ইরাকের একটি মিশন পরিচালনা করছেন। টাইগার তার একজন নিজস্ব লোককে এক হত্যা করতে বাধ্য হয়-গোয়েন্দা সংস্থা ইন্টার সার্ভিসেস ইন্টেলিজেন্স (আইএসআই) এর সঙ্গে হাত মিলিয়ে নেয়। ইরাক থেকে ফিরে আসার পর তাকে খুব শীঘ্রই একটি মিশনে ডাবলিন পাঠানো হয়-ডাবলিনের এক বিজ্ঞানী, যিনি কি না পাকিস্তানে মিসাইল প্রযুক্তির গোপন তথ্য পাচার করছেন, তাকে ধরার জন্য সেখানে বিজ্ঞানীর কেয়ারটেকার, ব্যালে ড্যান্সার শিক্ষক জোয়ার সঙ্গে বন্ধুত্ব হয়। গোপী বারবার টাইগারকে জয়ার সঙ্গে প্রেমে পড়া না সতর্ক করে, কিন্তু তিনি. নৃত্য একাডেমী একটি দর্শন সময়, তার তার অনুভূতি বলার আগে, টাইগার আবিষ্কার করে জোয়া একজন আইএসআই এজেন্ট। টাইগার তার কাছে আইএসআই সম্বন্ধে তথ্য চাইলে জোয়া পাকিস্তানের বিশ্বাসঘাতকতা করতে রাজি হয়না। জোয়াকে হত্যার পরিবর্তে টাইগার তাকে যেতে দেয়।

কিছু দিন পরে ইস্তানবুল এ জাতিসংঘের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সাক্ষাত অনুষ্ঠান এ টাইগার আর জোয়ার দেখা হয়। তারা তাদের ভালবাসার জন্য সবকিছু ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় ও তাদের এজেন্সী কে বোকা বানিয়ে কাজাখস্তান যাবার কথা বলে গোপনে কিউবা চলে যায়। কয়ে বছর পর টাইগার আর জোয়াকে তাদের এজেন্সী খুঁজে বের করে। ভারতে ফিরে আসার পরিবর্তে, তারা এরোপ্লনে বিদেশে পালিয়ে যায়। টাইগার সিনয় কে বলে তারা তখন ফিরে আসবে যখন ভারত আর পাকিস্তানের র আর আইএসআই এর প্রয়োজন থাকবে না।

শ্রেষ্ঠাংশে অভিনয়সম্পাদনা

  • সালমান খান- কোড নেম:টাইগার, মিশন নাম: মনিষ চন্দ্র, আসল নাম: অভিনাস সিং রাথোড়
  • ক্যাটরিনা কাইফ- জোয়া
  • রনভীর শোরে- গোপী
  • গিরিস কার্নাদ- সেনয়
  • রোশান সেথ
  • গ্যাভি চাহাল

সঙ্গীতসম্পাদনা

গানের তালিকাসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "EK THA TIGER (12A) - BBFC"। BBFC। সংগ্রহের তারিখ ২৬ আগস্ট ২০১২ 
  2. Nabanita (আগস্ট ১৪, ২০১২)। "Can Salman Khan's Ek Tha Tiger beat Aamir's 3 Idiots at the Box Office collections?"। Oneindia.in। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ১৫, ২০১২ 
  3. "Top Ten All Time Worldwide Grossers: EK THA TIGER 300 Crore Plus"। BOXOFFICEINDIA। ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১২ 
  4. "Ek Tha Tiger"Bollywood Hungama। সংগ্রহের তারিখ মার্চ ৬, ২০১২ 
  5. Harshikaa Udasi (আগস্ট ৪, ২০১২)। "Arts / Cinema : Spy Story"The Hindu। ৬ আগস্ট ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ৯, ২০১২ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা