ইসলাম ও আধুনিকতা

ইসলাম ধর্ম ও আধুনিকতার মধ্যকার সম্পর্কের সংক্ষিপ্ত বিবরণ

ইসলাম ও আধুনিকতা সমসাময়িক সমাজবিজ্ঞানের আলোচিত বিষয়। ইসলামের ইতিহাসের বিভিন্ন ব্যাখ্যা এবং পন্থা ঘটনাপঞ্জি লিপিবদ্ধ করেছে। আধুনিকতা একীভূত ও সুসংগত একটি জটিল ও বহুমাত্রিক ঘটনা। এটির ঐতিহাসিকভাবে বিভিন্ন দিক থেকে বিভিন্নপন্থী চিন্তাধারা প্রচলিত রয়েছে।[১]

ইসলামের উপর শিল্প বিপ্লবের প্রভাবসম্পাদনা

অষ্টাদশ শতাব্দীতে ইউরোপ বড় ধরনের রূপান্তরের মধ্য দিয়ে যায় এবং আলোর পথে হাটতে শুরু করে, যা বিজ্ঞান, যৌক্তিকতা এবং মানবিকতার গুরুত্বের উপর জোর দিয়ে বিস্তার লাভ করেছিল এবং শিল্প বিপ্লবের নতুন প্রযুক্তিগুলি ইউরোপ জুড়ে ছড়িয়ে পড়েছিল যা ইউরোপীয়দেরকে শক্তি এবং প্রভাব প্রদান করেছিল। আঠারো শতকের শেষ প্রান্তিকে কিছু পশ্চিম এবং উত্তর ইউরোপীয় দেশের প্রযুক্তিগত দক্ষতা এবং বিশ্বের অন্যান্য অঞ্চলের প্রযুক্তিগত দক্ষতার মধ্যে এই ব্যবধানটি আরও বাড়ে যায়।[২]

আধুনিক ইউরোপের উত্থানটি অনেক পণ্ডিতদের মতে উসমানীয় সাম্রাজ্যের পতনের সাথে মিলে যায়, যা আঠারো শতকে রাজনৈতিক, সামরিক এবং অর্থনৈতিক বিপর্যয়ের মুখোমুখি হয়েছিল।[৩] ১৮ শ শতাব্দীর পূর্বে উসমানীয়রা নিজেদেরকে উচ্চতর বা ১৮ শতকের মাঝামাঝি সময়ে ইউরোপের সমান শক্তি হিসাবে বিবেচনা করেছিল, ১৮ শ শতাব্দীর শেষে উসমানীয় সাম্রাজ্য এবং ইউরোপের মধ্যকার শক্তির সম্পর্ক ইউরোপের পক্ষে পরিবর্তিত হতে শুরু করে।[৪]

ফ্রান্সের উসমানীয় সাম্রাজ্যের অংশবিশেষ বিজয়সম্পাদনা

১৭৯৮ সালে নাপোলেওঁ (নেপোলিয়ন) বোনাপার্তের সেনাবাহিনী মিশরের উসমানীয় প্রদেশ দখল করে এবং প্রায় ৩০০০ মিশরীয়কে হত্যা করে। যদিও এই দখলটি মাত্র তিন বছর ছিল, তারপরে ফরাসিদের সাথে স্থায়ী শত্রুতা শুরু হয়, এই অভিজ্ঞতাটি শেষ পর্যন্ত মিশরীয় জনগণকে আলোকিত ধারণা এবং ইউরোপের নতুন প্রযুক্তির কাছে পরিচিত করেছিল।[৫]

ইউরোপে উসমানীয় পণ্ডিতগণসম্পাদনা

ইউরোপীয় শক্তি এবং ধারণাগুলির সংস্পর্শ পরবর্তীকালে মিশরের নতুন গভর্নর মুহাম্মদ আলীকে মিশরকে আধুনিকীকরণের জন্য এই প্রযুক্তি গ্রহণে অনুপ্রাণিত করে এবং উসমানীয় সাম্রাজ্যের বাকী অংশের জন্য একটি উদাহরণ স্থাপন করে। উসমানীয় সরকার দূতাবাস খুলতে এবং কর্মকর্তাদের ইউরোপে পাঠাতে শুরু করে।

বইসমূহসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. The Responsibilities of the Muslim Intellectual in the 21st Century, Abdolkarim Soroush
  2. Hourani, Albert (১৯৯১)। A History of the Arab Peoples । পৃষ্ঠা 259 
  3. Esposito, Jonh L. (২০০৫)। Islam: The Straight Path। Oxford University Press। পৃষ্ঠা 115–116। 
  4. Hourani, Albert (১৯৯১)। A History of the Arab Peoples । পৃষ্ঠা 258–259 
  5. Rogan, Eugene (২০০৯)। The Arabs: A History । Basic Books। পৃষ্ঠা 62