অ্যান্টনি ফিরিঙ্গি

অ্যান্টনি ফিরিঙ্গি বা হ্যান্সম্যান অ্যান্টনি (ইংরেজি: Anthony Firingee বা Hensman Anthony) (১৭৮৬ – ১৮৩৬), যিনি প্রথম ইউরোপীয় বাংলা ভাষার কবিয়াল। তিনি একজন পর্তুগীজ। তিনি কবিগানের জন্য বিখ্যাত ছিলেন।[১]

অ্যান্টনি ফিরিঙ্গি
জন্ম১৭৮৬
পর্তুগাল
মৃত্যুঅক্টোবর ১৮৩৬(1836-10-00) (বয়স ৪৯–৫০)
পেশাকবিগান
 
ফিরিঙ্গি কালীবাড়ি, বৌবাজার, জুলাই ২০২২।

পর্তুগীজ নাগরিক হ্যান্সম্যান ১৯শতকের প্রথম দিকে বাংলাতে আসেন এবং পশ্চিমবঙ্গের ফরাসডাঙ্গা নামক এলাকায় বসবাস শুরু করেন। প্রথমে তার বাংলা গানগুলোর বাঁধনদার ছিলেন গোরক্ষনাথ, পরে এন্টনি ফিরিঙ্গি নিজেই গান বাঁধতে পারদর্শী হন। ভালবেসে গান গাইতেন, জাতি ধর্ম বর্ণের উর্ধে উঠে তার গানে মানুষ ও মানবতার কথা পাওয়া যায়। তার অন্যতম জনপ্রিয় গানটি হল ‘সাধন ভজন জানিনে মা, জেতে তো ফিরিংগি’। তিনি সৌদামিনি নামক এক হিন্দু ব্রাহ্মণ নারীকে সতীদাহ হওয়ার থেকে উদ্ধার করেন ও বিবাহ করেন। তিনি কলকতার দক্ষিণে একটি মা কালিকার মন্দির প্রতিষ্ঠা করেন, যা ফিরিঙ্গি কালীবাড়ি নামে পরিচিত।

চলচ্চিত্রে অ্যান্টনি ফিরিঙ্গি

সম্পাদনা

তাঁর জীবন নিয়ে চলচ্চিত্রও নির্মিত হয়েছে। এরমধ্যে ১৯৬৭ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত উত্তম কুমার অভিনীত বিখ্যাত চলচ্চিত্র অ্যান্টনি ফিরিঙ্গি প্রণিধানযোগ্য। এখানে কবিয়াল ভোলা ময়রার সাথে তার কবিগানের লড়াই দেখানো হয়েছিল।

এছাড়া ২০১৪ সালে মুক্তি পায় তাঁর জীবন ও বর্তমান প্রজন্মে তাঁর পুনর্জন্ম মিলিয়ে প্রখ্যাত চলচ্চিত্রনির্মাতা সৃজিত মুখোপাধ্যায় পরিচালিত ও প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়, যীশু সেনগুপ্ত, স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়সহ তারকামণ্ডিত চলচ্চিত্র জাতিস্মর[২]

আরও দেখুন

সম্পাদনা

তথ্যসূত্র

সম্পাদনা
  1. Kuśa Satyendra (২০০০)। Dictionary of Hindu literature। Sarup & Sons। পৃষ্ঠা 87। আইএসবিএন 8176251593 
  2. "Srijit's Jaatishwar"The Telegraph। ৬ জুলাই ২০১৩। ১৮ নভেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৪ নভেম্বর ২০১৩