২০২১–২২ অ্যাশেজ সিরিজ

ক্রিকেট সিরিজ
(২০২১-২২ অ্যাশেজ সিরিজ থেকে পুনর্নির্দেশিত)

২০২১–২২ অ্যাশেজ সিরিজ (পৃষ্ঠপোষকতাজনিত কারণে যেটি ভোডাফোন পুরুষ অ্যাশেজ সিরিজ নামে পরিচিত)[১] ছিল ইংল্যান্ডঅস্ট্রেলিয়ার মধ্যে অনুষ্ঠিত একটি টেস্ট ক্রিকেট ম্যাচের সিরিজ। সিরিজটি দি অ্যাশেজ নামে পরিচিত ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যে ঐতিহাসিক দ্বৈরথের একটি অংশ। ২০২১ সালের ৮ ডিসেম্বর ও ২০২২ সালের ১৮ জানুয়ারির মধ্যে অস্ট্রেলিয়ার পাঁচটি ভেন্যুতে সিরিজের ম্যাচগুলো খেলা হয়।[২] সিরিজটি ২০২১-২০২৩ আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের একটি অংশ হিসেবে খেলা হয়।[৩]

২০২১–২২ অ্যাশেজ সিরিজ
২০২১–২২ ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের অস্ট্রেলিয়া সফর-এর অংশ
২০২১–২২ অ্যাশেজ সিরিজের লোগো.png
২০২১–২২ অ্যাশেজ সিরিজের আনুষ্ঠানিক লোগো
তারিখ৮ ডিসেম্বর ২০২১ – ১৮ জানুয়ারি ২০২২
অবস্থানঅস্ট্রেলিয়া
ফলাফল অস্ট্রেলিয়া সিরিজে জয়ী
সিরিজ সেরা ট্র্যাভিস হেড
দলসমূহ
 অস্ট্রেলিয়া  ইংল্যান্ড
অধিনায়ক
প্যাট কামিন্স জো রুট
সর্বাধিক রান
ট্র্যাভিস হেড (৩৫৭) জো রুট (৩২২)
সর্বাধিক উইকেট
প্যাট কামিন্স (২১) মার্ক উড (১৭)

সিরিজে অস্ট্রেলিয়া ৪–০ ব্যবধানে জয়লাভ করে।[৪]

দলীয় সদস্যসম্পাদনা

  অস্ট্রেলিয়া[৫]   ইংল্যান্ড[৬]

সূচিসম্পাদনা

১ম টেস্টসম্পাদনা

৮–১২ ডিসেম্বর ২০২১
স্কোরকার্ড
১৪৭ (৫০.১ ওভার)
জস বাটলার ৩৯ (৫৮)
প্যাট কামিন্স ৫/৩৮ (১৩.১ ওভার)
৪২৫ (১০৪.৩ ওভার)
ট্র্যাভিস হেড ১৫২ (১৪৮)
অলি রবিনসন ৩/৫৮ (২৩ ওভার)
২৯৭ (১০৩ ওভার)
জো রুট ৮৯ (১৬৫)
নাথান লায়ন ৪/৯১ (৩৪ ওভার)
২০/১ (৫.১ ওভার)
মার্কাস হ্যারিস* (১০)
অলি রবিনসন ১/১৩ (৩ ওভার)
অস্ট্রেলিয়া ৯ উইকেটে জয়ী
ব্রিসবেন ক্রিকেট মাঠ, ব্রিসবেন
আম্পায়ার: পল রাইফেল (অস্ট্রেলিয়া) ও রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: ট্র্যাভিস হেড (অস্ট্রেলিয়া)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • প্রথম দিনে বৃষ্টির কারণে ৩৭.৫ ওভার খেলা সম্ভব হয়নি।
  • অ্যালেক্স ক্যারি (অস্ট্রেলিয়া)-এর টেস্ট অভিষেক হয়।
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ পয়েন্ট: অস্ট্রেলিয়া ১২, ইংল্যান্ড −৮।[৭][৮]

২য় টেস্টসম্পাদনা

১৬–২০ ডিসেম্বর ২০২১ (দিন/রাত)
স্কোরকার্ড
৪৭৩/৯ঘো (১৫০.৪ ওভার)
মার্নাস লাবাসকাখনি ১০৩ (৩০৫)
বেন স্টোকস ২/১১৩ (২৫ ওভার)
২৩৬ (৮৪.১ ওভার)
দাউদ মালান ৮০ (১৫৭)
মিচেল স্টার্ক ৪/৩৭ (১৬.১ ওভার)
২৩০/৯ঘো (৬১ ওভার)
ট্র্যাভিস হেড ৫১ (৫৪)
জো রুট ২/২৭ (৬ ওভার)
১৯২ (১১৩.১ ওভার)
ক্রিস ওকস ৪৪ (৯৭)
ঝাই রিচার্ডসন ৫/৪২ (১৯.১ ওভার)
অস্ট্রেলিয়া ২৭৫ রানে জয়ী
অ্যাডিলেড ওভাল, অ্যাডিলেড
আম্পায়ার: পল উইলসন (অস্ট্রেলিয়া) ও রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: মার্নাস লাবাসকাখনি (অস্ট্রেলিয়া)
  • অস্ট্রেলিয়া টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • দ্বিতীয় দিনে বৃষ্টির কারণে ১৭.৪ ওভার খেলা সম্ভব হয়নি।
  • মাইকেল নেসার (অস্ট্রেলিয়া)-এর টেস্ট অভিষেক হয়।
  • ঝাই রিচার্ডসন (অস্ট্রেলিয়া) টেস্ট ক্রিকেটে নিজের প্রথম পাঁচ উইকেট লাভ করেন।[৯]
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ পয়েন্ট: অস্ট্রেলিয়া ১২, ইংল্যান্ড ০।

৩য় টেস্টসম্পাদনা

২৬–৩০ ডিসেম্বর ২০২১
স্কোরকার্ড
১৮৫ (৬৫.১ ওভার)
জো রুট ৫০ (৮২)
প্যাট কামিন্স ৩/৩৬ (১৫ ওভার)
২৬৭ (৮৭.৫ ওভার)
মার্কাস হ্যারিস ৭৬ (১৮৯)
জেমস অ্যান্ডারসন ৪/৩৩ (২৩ ওভার)
৬৮ (২৭.৪ ওভার)
জো রুট ২৮ (৫৯)
স্কট বোল্যান্ড ৬/৭ (৪ ওভার)
অস্ট্রেলিয়া ইনিংস ও ১৪ রানে জয়ী
মেলবোর্ন ক্রিকেট মাঠ, মেলবোর্ন
আম্পায়ার: পল উইলসন (অস্ট্রেলিয়া) ও পল রাইফেল (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: স্কট বোল্যান্ড (অস্ট্রেলিয়া)
  • অস্ট্রেলিয়া টসে জিতে ফিল্ডিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • স্কট বোল্যান্ড (অস্ট্রেলিয়া)-এর টেস্ট অভিষেক হয়।
  • স্কট বোল্যান্ড (অস্ট্রেলিয়া) টেস্ট ক্রিকেটে নিজের প্রথম পাঁচ উইকেট লাভ করেন।[১০]
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ পয়েন্ট: অস্ট্রেলিয়া ১২, ইংল্যান্ড ০।

৪র্থ টেস্টসম্পাদনা

৫–৯ জানুয়ারি ২০২২
স্কোরকার্ড
৪১৬/৮ঘো (১৩৪ ওভার)
উসমান খাওয়াজা ১৩৭ (২৬০)
স্টুয়ার্ট ব্রড ৫/১০১ (২৯ ওভার)
২৯৪ (৭৯.১ ওভার)
জনি বেয়ারস্টো ১১৩ (১৫৮)
স্কট বোল্যান্ড ৪/৩৬ (১৪.১ ওভার)
২৬৫/৬ঘো (৬৮.৫ ওভার)
উসমান খাওয়াজা ১০১* (১৩৮)
জ্যাক লিচ ৪/৮৪ (২১.৫ ওভার)
২৭০/৯ (১০২ ওভার)
জ্যাক ক্রলি ৭৭ (১০০)
স্কট বোল্যান্ড ৩/৩০ (২৪ ওভার)
খেলা ড্র
সিডনি ক্রিকেট মাঠ, সিডনি
আম্পায়ার: পল রাইফেল (অস্ট্রেলিয়া) ও রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: উসমান খাওয়াজা (অস্ট্রেলিয়া)
  • অস্ট্রেলিয়া টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • প্রথম ও তৃতীয় দিনে বৃষ্টির কারণে যথাক্রমে ৪৩.১ ওভার ও ৩৩ ওভার খেলা সম্ভব হয়নি।
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ পয়েন্ট: অস্ট্রেলিয়া ৪, ইংল্যান্ড ৪।

৫ম টেস্টসম্পাদনা

১৪–১৮ জানুয়ারি ২০২২ (দিন/রাত)
স্কোরকার্ড
৩০৩ (৭৫.৪ ওভার)
ট্র্যাভিস হেড ১০১ (১১৩)
স্টুয়ার্ট ব্রড ৩/৫৯ (২৪.৪ ওভার)
১৮৮ (৪৭.৪ ওভার)
ক্রিস ওকস ৩৬ (৪৮)
প্যাট কামিন্স ৩/৪৫ (১৩.৪ ওভার)
১৫৫ (৫৬.৩ ওভার)
অ্যালেক্স ক্যারি ৪৯ (৮৮)
মার্ক উড ৬/৩৭ (১৬.৩ ওভার)
১২৪ (৩৮.৫ ওভার)
জ্যাক ক্রলি ৩৬ (৬৬)
স্কট বোল্যান্ড ৩/১৮ (১২ ওভার)
অস্ট্রেলিয়া ১৪৬ রানে জয়ী
বেলরিভ ওভাল, হোবার্ট
আম্পায়ার: পল উইলসন (অস্ট্রেলিয়া) ও রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: ট্র্যাভিস হেড (অস্ট্রেলিয়া)
  • ইংল্যান্ড টসে জিতে ফিল্ডিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • প্রথম দিনে বৃষ্টির কারণে ৩০.৩ ওভার খেলা সম্ভব হয়নি।
  • স্যাম বিলিংস (ইংল্যান্ড)-এর টেস্ট অভিষেক হয়।
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ পয়েন্ট: অস্ট্রেলিয়া ১২, ইংল্যান্ড ০।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Fixture confirmed for dual Ashes series, Afghan Test"ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। ১৮ মে ২০২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৯ মে ২০২১ 
  2. "England Ashes schedule confirmed for 2021-22"ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইংরেজি ভাষায়)। ২০ মে ২০২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৭-০৯ 
  3. "England vs India to kick off the second World Test Championship"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। ৫ আগস্ট ২০২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০২১ 
  4. "Ashes: England crushed by Australia in final Test"বিবিসি স্পোর্ট (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৬ জানুয়ারি ২০২২ 
  5. "Khawaja, Richardson recalled in Australia's Ashes squad"ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। ১৭ নভেম্বর ২০২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ নভেম্বর ২০২১ 
  6. "England name Men's Test squad for 2021-22 Ashes Tour"ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইংরেজি ভাষায়)। ১০ অক্টোবর ২০২১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১০ অক্টোবর ২০২১ 
  7. "England docked WTC points for slow over rate; Head fined"আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১১ ডিসেম্বর ২০২১ 
  8. "England lose more WTC points for slow over-rate in first Ashes Test"আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৭ ডিসেম্বর ২০২১ 
  9. "Australia overcome epic Jos Buttler rearguard to seal hefty win"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০ ডিসেম্বর ২০২১ 
  10. "Scott Boland six-for leads humiliation as Australia romp to Ashes glory"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৮ ডিসেম্বর ২০২১ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা