হাসনাবাদ

পশ্চিমবঙ্গের উত্তর চব্বিশ পরগণা জেলার হাসনাবাদ সমষ্টি উন্নয়ন ব্লকের একটি গ্রাম

হাসনাবাদ হল পশ্চিমবঙ্গের উত্তর চব্বিশ পরগনা জেলার হাসনাবাদ সমষ্টি উন্নয়ন ব্লক-এর একটি গ্রাম ও গ্রাম পঞ্চায়েত। এই বাজার এলাকাটি ইছামতি নদীকাঠাখালি নদীর তীরে অবস্থিত। এখানে হাসনাবাদ সমষ্টি উন্নয়ন ব্লকের সদর দপ্তর অবস্থিত।[১]

হাসনাবাদ
গ্রাম/বাজার
ইছামতি থেকে হাসনাবাদ
ইছামতি থেকে হাসনাবাদ
হাসনাবাদ পশ্চিমবঙ্গ-এ অবস্থিত
হাসনাবাদ
হাসনাবাদ
হাসনাবাদ অবস্থান (পশ্চিমবঙ্গ,ভারত)
স্থানাঙ্ক: ২২°৩৪′৩৯″ উত্তর ৮৮°৫৫′০৩″ পূর্ব / ২২.৫৭৭৫৪২° উত্তর ৮৮.৯১৭৩৬২° পূর্ব / 22.577542; 88.917362স্থানাঙ্ক: ২২°৩৪′৩৯″ উত্তর ৮৮°৫৫′০৩″ পূর্ব / ২২.৫৭৭৫৪২° উত্তর ৮৮.৯১৭৩৬২° পূর্ব / 22.577542; 88.917362
দেশ ভারত
অঞ্চলপূর্ব ভারত
রাজ্যপশ্চিমবঙ্গ
জেলাউত্তর চব্বিশ পরগনা
মহকুমাবসিরহাট মহকুমা
সরকার
 • শাসকগ্রাম পঞ্চায়েত
আয়তন
 • মোট১.৫৯৪৫ বর্গকিমি (০.৬১৫৬ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা (২০১১)
 • মোট৩,৪১২
ভাষা
 • সরকারি ভাষাবাংলা, ইংরাজি
সময় অঞ্চল+৫:৩০

ভূগোল উপাত্তসম্পাদনা

হাসনাবাদ ২২.৩৫ ডিগ্রি উত্তর ও ৮৮.৫৫ ডিগ্রি পূর্বে অবস্থিত।[২]।সমুদ্র সমতল থেকে হাসনাবাদ ৭ মিটার উচু।

জনসংখ্যাসম্পাদনা

২০১১ সালের জন গননায় হাসনাবাদের মোট জনসংখ্যা হয়েছে ৩৪১২ জন।[৩] এর মধ্যে ১৮৬৩ জন পুরুষ ও ১৫৪৯ জন মহিলা।গ্রামটিতো মোট পরিবারের সংখ্যা ৮৫৬ টি।এই গ্রামে ৩২০ টি ০ থেকে ৬ বছরের শিশু রয়েছে।এর মধ্যে কন্যা শিশু ১৩৯ টি ও পুত্র শিশু ১৮১ টি।এখানে লাক্ষরতার হার ৮৫.৪৫ শতাংশ।এখানে কর্মক্ষম মানুষের সংখ্যা ১৫৩০ জন।

শিক্ষাব্যবস্থাসম্পাদনা

হাসনাবাদে উচ্চ বিদ্যালয় ও একাধিক প্রথমিক বিদ্যালয় রয়েছে।

  • হাসনাবাদ ডিপি ইন্সটিটিউট
  • হাসনাবাদ ডিপি এফ পি বিদ্যালয়
  • হাসনাবাদ এফ পি বিদ্যালয়
  • হাসনাবাদ নাগেন্দ্র এফ পি বিদ্যালয়
  • হাসনাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়।[৪]

যোগাযোগসম্পাদনা

সড়কসম্পাদনা

হাসনাবাদের মধ্যে দিয়ে রাজ্য সড়ক ২ বিস্তৃত। টাকি-হাসনাবাদ সড়ক ও একটি গুরুত্বপূর্ণ সড়ক এই এলাকার।হাসনাবাদ থেকে বসিরহাট, বারাসাতকলকাতার মধ্যে বাস পরিসেবা চালু রয়েছে।এছাড়া সল্প দূরত্বের জন্য রয়েছে অটোরিক্সা ও টোট পরিসেভা। হাসনাবাদের সঙ্গে হিঙ্গলগঞ্জের সরাসরি যোগাযোগ গড়ে তোলার লক্ষ্যে কাঠাখালি নদীতে কাঠাখালি সেতুর নির্মাণ কার্য চলছে।[৫][৬][৭][৮]

রেলসম্পাদনা

হাসনাবাদ রেলওয়ে স্টেশন [৯] হল কলকাতা শহরতলি রেল এর একটি টার্মিনাল স্টেশন যা বারাসত-হাসনাবাদ শাখায় অবস্থিত। এই স্টেশনটিতে ৩ টি প্লাটফর্ম রয়েছে। স্টেশনটি শিয়ালদহ থেকে ৭৫ কিলোমিটার ও বারাসত থেকে ৫২ কিলোমিটার দূরত্বে অবস্থিত। এটি হাসনাবাদ ও হাসনাবাদ এর পার্শ্ববর্তী এলাকাগুলোতে রেল পরিষেবা প্রদান করে থাকে। এই স্টেশন থেকে বারাসাতশিয়ালদহ লোকাল ট্রেন চলাচল করে। এই এলাকার মানুষের কাছে এই লোকাল ট্রেন কলকাতায় যাতায়াতের গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম হিসাবে বিবেচিত হয়।

জলপথসম্পাদনা

 
হাসনাবাদ ফেরি ঘাট

এই এলাকার পূর্বে রয়েছে ইছামতি এবং দক্ষিণে কাঠাখালি নদী, ফলে এই এলাকার যোগাযোগ ব্যবস্থায় জলপথ খুবই গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম। হাসনাবাদ থেকে কাঠাখালি নদীতে ফেরি চলাচল করে হিঙ্গলগঞ্জে চলাচল করার জন্য।

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "হাসনাবাদের মানচিত্র" 
  2. "Hasnabad Map — Satellite Images of Hasnabad" 
  3. "হাসনাবাদের জনসংখ্যা (২০১১)" 
  4. "List of Schools in Hasnabad (North Twenty Four Pargana), West Bengal" [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  5. "বার বার বাধা সেতু তৈরিতে" 
  6. "থাম কেটে নতুন করে তৈরি করা হচ্ছে সেতু"আনন্দবাজার প্রত্রিকা। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০১৭ 
  7. "নিষ্প্রদীপ বেহাল সেতু, বাড়ছে দুষ্কৃতীদের উপদ্রব"আনন্দবাজার প্রত্রিকা। সংগ্রহের তারিখ ৭ মার্চ ২০১৭ 
  8. {সংবাদ উদ্ধৃতি|title =নৌকা চলে না, সেতুর দাবিতে নদীতে নেমে বিক্ষোভে বাসিন্দারা | url=http://archives.anandabazar.com/archive/1131223/23pgn1.html }}
  9. "ট্রেনের দেরিতে স্টেশনে ভাঙচুর, মারে জখম ১৫-শিয়ালদহ থেকে বিকেল ৫টা ৫৮ মিনিটে ছাড়া হাসনাবাদগামী ইছামতী প্যাসেঞ্জার প্রায় এক ঘণ্টা দেরিতে"