কৈলাসচন্দ্র বসু

(স্যার কৈলাসচন্দ্র বসু থেকে পুনর্নির্দেশিত)

স্যার কৈলাসচন্দ্র বসু ( English : Sir Kailash Chandra Bose) (২৬ ডিসেম্বর ১৮৫০ - ১৯ জানুয়ারি ১৯২৭) ভারতের চিকিৎসাশাস্ত্রে পরম হিতকারী খ্যাতনামা ব্যক্তিত্ব। ভারতে প্রথম স্যার উপাধিপ্রাপ্ত চিকিৎসক।

জন্ম ও প্রারম্ভিক জীবনসম্পাদনা

কৈলাশচন্দ্রের জন্ম কলকাতার সিমলার বসুপরিবারে। বাবু মধুসূদন বসুর দ্বিতীয় সন্তান ছিলেন তিনি। বিদ্যালয়ের পড়াশোনা শেষ করে ১৮৭৪ খ্রিস্টাব্দে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ হতে ডাক্তারি পাশ করে ক্যাম্পবেল হাসপাতালে রেসিডেন্ট মেডিক্যাল অফিসার হন।

কর্মজীবনসম্পাদনা

কিন্তু ভাইয়ের পরামর্শে সরকারি চাকরি পরিত্যাগ করে প্রাইভেট প্র্যাকটিশ শুরু করেন এবং এমন সুনাম অর্জন করেন যে, বাংলায় অগ্রণী চিকিৎসক হিসাবে বিশেষ করে অবস্থাপন্ন মাড়োয়ারি সম্প্রদায়ের মাঝে অল্প দিনেই স্থান করে নেন। চিকিৎসাক্ষেত্রে নিজের চেষ্টায় প্রভূত উন্নতি সাধনও করেছেন। বহুজনহিতকর কাজে এগিয়ে এসে নিজ উপার্জিত অর্থ ব্যয় করেন। প্রধানত তাঁরই প্রচেষ্টায় বাংলায় পশুচিকিৎসা কলেজ ও হাসপাতাল এবং ট্রপিক্যাল মেডিসিন স্কুলের জন্য অর্থ সংগৃহীত হয়েছিল। এছাড়া কলকাতা মেডিক্যাল স্কুল, সোদপুর, পিঞ্জরাপোল, কুষ্ঠনিবাস প্রভৃতির তিনি অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা। কলকাতা মেডিক্যাল সোস্যাইটি, ভারতীয় মেডিক্যাল কংগ্রেসের সহ-সভাপতি, কলকাতা মিউনিসিপ্যালিটির কমিশনার এবং অবৈতনিক প্রেসিডেন্সী ম্যাজিসেট্রট ছিলেন।

সম্মাননাসম্পাদনা

অবিভক্ত বাংলায় চিকিৎসাক্ষেত্রে তাঁর অসামান্য কাজের স্বীকৃতিতে বহু সম্মানে সম্মানিত হয়েছেন।

  • ১৮৯৫ খ্রিস্টাব্দে তিনি রায়বাহাদুর খেতাব পান। ১৯০০ খ্রিস্টাব্দে সি.আই.ই সম্মানে ভূষিত হন।
  • ১৯০৪ খ্রিস্টাব্দে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফেলো হন।
  • ১৯১০ খ্রিস্টাব্দে জনসেবার স্বীকৃতি স্বরূপ 'কাইজার-ই-হিন্দ' স্বর্ণপদক লাভ করেন।
  • ১৯১৬ খ্রিস্টাব্দে ভারতীয় ডাক্তারদের মধ্যে তিনিই প্রথম 'স্যার' উপাধি দ্বারা সম্মানিত হন।

মৃত্যুসম্পাদনা

কৈলাশচন্দ্র বসু ১৯২৭ খ্রিস্টাব্দের ১৯ শে জানুয়ারি মৃত্যুবরণ করেন।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  • সুবোধচন্দ্র ও অঞ্জলি বসু সম্পাদিত সাহিত্য সংসদ,কলকাতা প্রকাশিত সংসদ বাঙালি চরিতাভিধান প্রথম খণ্ড পঞ্চম সংস্করণ তৃতীয়মুদ্রণ পৃষ্ঠা সংখ্যা ১৬৪ দ্রষ্টব্য।
  • The Indian Medical Gezette.1927