সমর সেন (অর্থনীতিবিদ)

ড . সমররঞ্জন সেন (আনু. ১৯১৫  – ২৮ জুলাই ২০০৪) ছিলেন বিশিষ্ট ভারতীয় কৃষি-অর্থনীতিবিদ যিনি আন্তর্জাতিক পুনর্নিমাণ ও বিকাশ ব্যাঙ্কের নির্বাহী পরিচালক ছিলেন।[১] তিনি ১৯৩৮ খ্রিস্টাব্দে ভারতীয় আর্থিক সেবা তথা ইন্ডিয়ান ইকনমিক সার্ভিসের প্রথম ব্যাচের সদস্য ছিলেন। ভারতে কৃষি ও গ্রামীণ উন্নয়ন প্রক্রিয়া পরিচালনায় তিনি বিশেষ অবদান রেখেছেন। [২]

সমর সেন
জন্মআনু. ১৯১৫
মৃত্যু২৮ জুলাই ২০০৪(2004-07-28) (বয়স ৮৮–৮৯)
পেশাকৃষি-অর্থনীতিবিদ
পরিচিতির কারণকৃষি গবেষণা কেন্দ্র স্থাপন
দাম্পত্য সঙ্গীঅনিতা সেন

সংক্ষিপ্ত জীবনীসম্পাদনা

সমর সেনের পড়াশোনা ঢাকাকলকাতা শহরে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে  তার শিক্ষক ছিলেন অর্থনীতির বিখ্যাত অধ্যাপক অমিয়কুমার দাশগুপ্তকলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পিএইচডি ডিগ্রি লাভের পর তিনি ১৯৪৬ খ্রিস্টাব্দে লন্ডন স্কুল অফ ইকনমিক্স থেকে দ্বিতীয়বার পিএইচডি করেন। দেশভাগের আগে কিছুদিন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনা করেন।

তবে ব্রিটিশ শাসনামলে ১৯৩৮ খ্রিস্টাব্দে তিনি  ইন্ডিয়ান ইকনমিক সার্ভিস তথা ভারতীয় আর্থিক সেবায় প্রথম ব্যাচের সদস্য হিসাবে কৃষি মন্ত্রকে যোগ দেন। স্বাধীনতার পর পাকাপাকিভাবে ভারতে চলে আসেন এবং ১৯৪৮ খ্রিস্টাব্দে  ভারতের  পরিকল্পনা কমিশনের উপদেষ্টা হন। তিনি দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে কৃষি-অর্থনীতি সংক্রান্তে গবেষণা কেন্দ্র চালু করতে অগ্রণী ভূমিকা নেন। ১৯৭০ খ্রিস্টাব্দ থেকে ১৯৭৭ খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত তিনি বিশ্ব ব্যাঙ্কের ঋণ প্রদানকারী সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল ব্যাঙ্ক ফর রিকনস্ট্রাকশন অ্যান্ড ডেভেলপমেন্টে ভারতের এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর বা নির্বাহী পরিচালক ছিলেন। তিনি উন্নয়নশীল দেশগুলির জন্য বিশেষ গুরুত্ব প্রদানে বিশ্ব ব্যাঙ্কের ভূমিকার উপর জোর দেন।

ভারতে ফেরার পর ১৯৮৫ খ্রিস্টাব্দে  ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাংকের পূর্বাঞ্চলীয়  সবুজ বিপ্লবে অংশ গ্রহণ এবং পরে সারকারিয়া কমিশনের সদস্য হন। [৩] তিনি দেশে কৃষি গবেষণা কেন্দ্রও প্রতিষ্ঠা করেন। [৪]

ড.সেন ১৯৪৯ খ্রিস্টাব্দ হতে প্রকাশিত অর্থনীতি বিষয়ক আন্তর্জাতিক পত্রিকা দ্য ইকোনমিক উইকলি -র (পরবর্তীতে  ইকোনমিক অ্যান্ড পলিটিক্যাল উইকলি নামে পরিচিত)  অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন। [১] ড.সেন ও অনিতা সেনের দুই পুত্র অভিজিৎ সেন ও প্রণব সেন। দুজনেই অর্থনীতিবিদ এবং ভারতের পরিকল্পনা কমিশনে নিযুক্ত। [৩]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1.   অঞ্জলি বসু সম্পাদিত, সংসদ বাঙালি চরিতাভিধান, দ্বিতীয়  খণ্ড, সাহিত্য সংসদ, কলকাতা, জানুয়ারি ২০১৯ পৃষ্ঠা ৪১৭,৪১৮, আইএসবিএন ৯৭৮-৮১-৭৯৫৫-২৯২-৬
  2. "PM condoles death of renowned economist Samar Sen"Zee News। ২০০৪-০৭-২৯। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-১২-০৩ 
  3. Bureau, Our Economy (২০০৪-০৭-২৯)। "Samar Sen dies"Business Standard News। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-১২-০৩ 
  4. "Samar Ranjan Sen"। ২০০৪-০৯-১৮: 7–8। ২০১৮-০৩-২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-১২-০৩ 

আরও পড়ুনসম্পাদনা